শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৮:৪৫
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, January 22, 2017 11:46 pm
A- A A+ Print

অবশেষে জিতল ইংল্যান্ড!

29

না, পারলেন না কেদার যাদব। পারলেন না ভুবনেশ্বর কুমারও। শেষ বলে ছক্কাটা মারতে পারলেন না ভুবনেশ্বর, শেষ ৪ বলে ৬ রানের সমীকরণটা মেলাতে পারলেন যাদব। ৫ রানে ম্যাচ জিতে অবশেষে ভারত সফরে হাসি নিয়ে মাঠ ছাড়ল ইংল্যান্ড। সিরিজের মীমাংসা তো আগের ম্যাচেই হয়ে গেছে (২-১)। ৬ বলে দরকার ১৬ রান। প্রথম বলেই ছক্কা, পরের বলটা চার। দুটোই এক্সট্রা কভার দিয়ে, প্রায় অবিকল একই রকম শটে। এই ইডেন গার্ডেনেই ৮ মাস আগের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ফাইনালের স্মৃতিই ফিরে আসছিল তখন। এরপরই চমকে দিলেন ওকস। ডট, ডট, আউট! ওই এক্সট্রা কভারেই ক্যাচ দিলেন যাদব। শেষ বলেও কোনো রান নিতে পারলেন না ভুবনেশ্বর। অথচ ইংল্যান্ড ইনিংসের পরই মনে হচ্ছিল, সিরিজটা ৩-০ ব্যবধানেই শেষ হচ্ছে। শেষ দশ ওভারের ঝড়ের পরও ইংল্যান্ডের রান ‘মাত্র’ ৩২১ রান। এ ম্যাচ তো ভারত জিতেই গেছে! কিন্তু শেষ ওভারের নাটকীয়তায় বদলে গেল সবকিছু। সিরিজের আগের দুই ওয়ানডেতে রীতিমতো রানবন্যা হয়েছে। প্রথম ম্যাচে ইংল্যান্ডের ৩৫১ রানের লক্ষ্যটা ভারত পেরিয়েছে ১১ বল হাতে রেখে। সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে রান আরও ১৬টা বেশি করেছে ইংল্যান্ড। কিন্তু ৩৬৬ রান করেও সে ম্যাচটা হারতে হয়েছে ১৫ রানে। সে তুলনায় ৩২১ রানটা একটু কমই হয়ে গেছে আজ। তবে রানটা যে তিন শ পেরিয়েছে এ জন্যই বেন স্টোকস ও ক্রিস ওকসকে ধন্যবাদ দেওয়া উচিত অধিনায়ক এওইন মরগানের। ৪০ ওভার শেষের ২২৫ রানের স্কোরটা ৩২১ হয়েছে এ দুজনের ঝড়ে। ৩৯ বলে ৫৭ রান করে অপরাজিত ছিলেন স্টোকস। আর ইনিংসের শেষ ওভারে আউট হওয়া ওকস করেছেন ৩৪ রান। ১৯ বলের এই ক্যামিওতে ছিল ৪টি চার ও ১টি ছক্কা। শেষ দশ ওভারে ইংল্যান্ড পেয়েছে ৯৬ রান। অথচ শুরুতে আরও বড় কিছুর ইঙ্গিত দিয়েছিল ইংল্যান্ডের ইনিংস। জেসন রয়ের ৫৬ বলে ৬৫ ও বেয়ারস্টোর ৫৬ রানে আরেকটি সাড়ে তিন শ ছাড়ানো ম্যাচের দেখা পাওয়া যাবে বলেই মনে হচ্ছিল। কিন্তু হার্দিক পান্ডিয়ার মিডল অর্ডার গুঁড়িয়ে দেওয়া এক স্পেলে ইংল্যান্ড ইনিংস পায়নি প্রয়োজনীয় গতি। শুধু বল না, ব্যাটিংয়েও পান্ডিয়াকে দরকার হয়েছে ভারতের। ৩২১ তাড়া করতে নেমে কোহলির ভাগ্যপ্রসূত ৫৫ রানের পরও বিপদে পড়েছিল ভারত। ১৭৩ রানেই হারিয়েছিল ৫ উইকেট। ১১০ বলে ১৪৯ রান দরকার এমন অবস্থায় নেমে ক্যারিয়ার সেরা ইনিংসটাই খেলেছেন পান্ডিয়া। কেদার যাদবের সঙ্গে ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে ৮৩ বলে তুলেছেন ১০৪ রান। ক্যারিয়ারের প্রথম ফিফটির পরই আউট হয়ে গেছেন পান্ডিয়া (৪৩ বলে ৫৬)। পান্ডিয়ার পর দ্রুত আরও দুই উইকেট হারালেও ভরসা হয়ে ছিলেন যাদব। কিন্তু ৭৫ বলে ৯০ রান করা যাদব যে হেরে গেলেন শেষ মুহূর্তে।

Comments

Comments!

 অবশেষে জিতল ইংল্যান্ড!AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

অবশেষে জিতল ইংল্যান্ড!

Sunday, January 22, 2017 11:46 pm
29

না, পারলেন না কেদার যাদব। পারলেন না ভুবনেশ্বর কুমারও। শেষ বলে ছক্কাটা মারতে পারলেন না ভুবনেশ্বর, শেষ ৪ বলে ৬ রানের সমীকরণটা মেলাতে পারলেন যাদব। ৫ রানে ম্যাচ জিতে অবশেষে ভারত সফরে হাসি নিয়ে মাঠ ছাড়ল ইংল্যান্ড। সিরিজের মীমাংসা তো আগের ম্যাচেই হয়ে গেছে (২-১)।
৬ বলে দরকার ১৬ রান। প্রথম বলেই ছক্কা, পরের বলটা চার। দুটোই এক্সট্রা কভার দিয়ে, প্রায় অবিকল একই রকম শটে। এই ইডেন গার্ডেনেই ৮ মাস আগের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ফাইনালের স্মৃতিই ফিরে আসছিল তখন। এরপরই চমকে দিলেন ওকস। ডট, ডট, আউট! ওই এক্সট্রা কভারেই ক্যাচ দিলেন যাদব। শেষ বলেও কোনো রান নিতে পারলেন না ভুবনেশ্বর।
অথচ ইংল্যান্ড ইনিংসের পরই মনে হচ্ছিল, সিরিজটা ৩-০ ব্যবধানেই শেষ হচ্ছে। শেষ দশ ওভারের ঝড়ের পরও ইংল্যান্ডের রান ‘মাত্র’ ৩২১ রান। এ ম্যাচ তো ভারত জিতেই গেছে! কিন্তু শেষ ওভারের নাটকীয়তায় বদলে গেল সবকিছু।
সিরিজের আগের দুই ওয়ানডেতে রীতিমতো রানবন্যা হয়েছে। প্রথম ম্যাচে ইংল্যান্ডের ৩৫১ রানের লক্ষ্যটা ভারত পেরিয়েছে ১১ বল হাতে রেখে। সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে রান আরও ১৬টা বেশি করেছে ইংল্যান্ড। কিন্তু ৩৬৬ রান করেও সে ম্যাচটা হারতে হয়েছে ১৫ রানে। সে তুলনায় ৩২১ রানটা একটু কমই হয়ে গেছে আজ।
তবে রানটা যে তিন শ পেরিয়েছে এ জন্যই বেন স্টোকস ও ক্রিস ওকসকে ধন্যবাদ দেওয়া উচিত অধিনায়ক এওইন মরগানের। ৪০ ওভার শেষের ২২৫ রানের স্কোরটা ৩২১ হয়েছে এ দুজনের ঝড়ে। ৩৯ বলে ৫৭ রান করে অপরাজিত ছিলেন স্টোকস। আর ইনিংসের শেষ ওভারে আউট হওয়া ওকস করেছেন ৩৪ রান। ১৯ বলের এই ক্যামিওতে ছিল ৪টি চার ও ১টি ছক্কা। শেষ দশ ওভারে ইংল্যান্ড পেয়েছে ৯৬ রান।

অথচ শুরুতে আরও বড় কিছুর ইঙ্গিত দিয়েছিল ইংল্যান্ডের ইনিংস। জেসন রয়ের ৫৬ বলে ৬৫ ও বেয়ারস্টোর ৫৬ রানে আরেকটি সাড়ে তিন শ ছাড়ানো ম্যাচের দেখা পাওয়া যাবে বলেই মনে হচ্ছিল। কিন্তু হার্দিক পান্ডিয়ার মিডল অর্ডার গুঁড়িয়ে দেওয়া এক স্পেলে ইংল্যান্ড ইনিংস পায়নি প্রয়োজনীয় গতি।
শুধু বল না, ব্যাটিংয়েও পান্ডিয়াকে দরকার হয়েছে ভারতের। ৩২১ তাড়া করতে নেমে কোহলির ভাগ্যপ্রসূত ৫৫ রানের পরও বিপদে পড়েছিল ভারত। ১৭৩ রানেই হারিয়েছিল ৫ উইকেট। ১১০ বলে ১৪৯ রান দরকার এমন অবস্থায় নেমে ক্যারিয়ার সেরা ইনিংসটাই খেলেছেন পান্ডিয়া। কেদার যাদবের সঙ্গে ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে ৮৩ বলে তুলেছেন ১০৪ রান। ক্যারিয়ারের প্রথম ফিফটির পরই আউট হয়ে গেছেন পান্ডিয়া (৪৩ বলে ৫৬)।
পান্ডিয়ার পর দ্রুত আরও দুই উইকেট হারালেও ভরসা হয়ে ছিলেন যাদব। কিন্তু ৭৫ বলে ৯০ রান করা যাদব যে হেরে গেলেন শেষ মুহূর্তে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X