রবিবার, ১৮ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৬ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ভোর ৫:২১
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Wednesday, November 2, 2016 6:31 pm
A- A A+ Print

অস্ত্র নিয়ে অধ্যক্ষকে ছাত্রের হুমকি

nk-154

কলেজে ছাত্র জমায়েতে (অ্যাসেম্বলি) যোগ না দেওয়ায় বকাঝকা করায় এক ছাত্রের বিরুদ্ধে অধ্যক্ষকে হত্যার হুমকির অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ বুধবার সকালে নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলার জয়াগ কলেজে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পরপরই এর প্রতিবাদে কলেজের সাধারণ ছাত্রছাত্রীরা ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করেছে। একপর্যায়ে তারা কলেজের সামনের সোনাইমুড়ী-চাটখিল-রামগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধ করে। খবর পেয়ে সোনাইমুড়ী থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। কলেজ সূত্রে জানা গেছে, আজ বুধবার সকাল সোয়া দশটার দিকে কলেজের অ্যাসেম্বলিতে যোগ না দিয়ে ক্যাম্পাসে বিশৃঙ্খলা করতে দেখে দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র এমদাদুল হককে ডেকে সতর্ক করেন অধ্যক্ষ মো. আইয়ুব আলী। সেই সঙ্গে তাকে ক্যাম্পাস থেকে বের করে দেওয়া হয়। কিছুক্ষণ পর ক্লাস শুরু হলে এমদাদুল হক একটি আগ্নেয়াস্ত্র হাতে নিয়ে অফিস কক্ষে ঢুকে অধ্যক্ষের কাছে ‘অপমানের’ কৈফিয়ত চান। এ সময় অধ্যক্ষের কক্ষে থাকা অপর একজন শিক্ষক ওই ছাত্রকে ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে ধরে ফেলেন। তখন এমদাদুলের সঙ্গে থাকা অস্ত্রধারী অন্য চার সহযোগী তাকে ছিনিয়ে নিয়ে অস্ত্র উঁচিয়ে ক্যাম্পাস ত্যাগ করে। এ ঘটনা জানাজানি হলে বিক্ষোভে ফেটে পড়ে কলেজের সাধারণ ছাত্রছাত্রীরা। তারা ক্লাস বর্জন করে কলেজ ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করে। একপর্যায়ে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা কলেজের সামনের সোনাইমুড়ী-চাটখিল-রামগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধ করে। অধ্যক্ষসহ কলেজের শিক্ষকেরা শিক্ষার্থীদের শান্ত করার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন। পরে পুলিশ এসে অভিযুক্ত ছাত্রকে গ্রেপ্তারের আশ্বাস দিলে শিক্ষার্থীরা অবরোধ তুলে নেয়। জয়াগ কলেজের অধ্যক্ষ মো. আইয়ুব আলী প্রথম আলোকে বলেন, ‘এমদাদুল হক নামের ওই ছাত্র নিয়মিত কলেজে আসে না। এলেও অন্যদের নানাভাবে বিরক্ত করে। আজও একই ঘটনা করতে দেখে তাঁকে ডেকে ধমক দিয়ে কলেজ থেকে বের করে দেওয়া হয়। এরপর সে অস্ত্রসহ কয়েকজনকে নিয়ে অফিস কক্ষে ঢুকে আমার দিকে অস্ত্র ধরে।’ এ সময় সামনে থাকা এক শিক্ষক ধাক্কা দিয়ে ওই ছাত্রকে সরিয়ে দেওয়ায় তিনি রক্ষা পেয়েছেন। এ ঘটনায় পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি। সোনাইমুড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইসমাইল মিঞা প্রথম আলোকে বলেন, জয়াগ কলেজের এক ছাত্র অধ্যক্ষের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেছে বলে অধ্যক্ষ তাঁকে জানিয়েছেন। কিন্তু তিনি তাঁকে অস্ত্র নিয়ে হুমকির বিষয়ে কিছু বলেননি। এ ঘটনায় কলেজের শিক্ষার্থীরা উত্তেজিত হয়ে পড়লে পুলিশ তাদের শান্ত করে। এ ব্যাপারে অধ্যক্ষ লিখিত অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments

Comments!

 অস্ত্র নিয়ে অধ্যক্ষকে ছাত্রের হুমকিAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

অস্ত্র নিয়ে অধ্যক্ষকে ছাত্রের হুমকি

Wednesday, November 2, 2016 6:31 pm
nk-154

কলেজে ছাত্র জমায়েতে (অ্যাসেম্বলি) যোগ না দেওয়ায় বকাঝকা করায় এক ছাত্রের বিরুদ্ধে অধ্যক্ষকে হত্যার হুমকির অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ বুধবার সকালে নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলার জয়াগ কলেজে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার পরপরই এর প্রতিবাদে কলেজের সাধারণ ছাত্রছাত্রীরা ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করেছে। একপর্যায়ে তারা কলেজের সামনের সোনাইমুড়ী-চাটখিল-রামগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধ করে। খবর পেয়ে সোনাইমুড়ী থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

কলেজ সূত্রে জানা গেছে, আজ বুধবার সকাল সোয়া দশটার দিকে কলেজের অ্যাসেম্বলিতে যোগ না দিয়ে ক্যাম্পাসে বিশৃঙ্খলা করতে দেখে দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র এমদাদুল হককে ডেকে সতর্ক করেন অধ্যক্ষ মো. আইয়ুব আলী। সেই সঙ্গে তাকে ক্যাম্পাস থেকে বের করে দেওয়া হয়। কিছুক্ষণ পর ক্লাস শুরু হলে এমদাদুল হক একটি আগ্নেয়াস্ত্র হাতে নিয়ে অফিস কক্ষে ঢুকে অধ্যক্ষের কাছে ‘অপমানের’ কৈফিয়ত চান। এ সময় অধ্যক্ষের কক্ষে থাকা অপর একজন শিক্ষক ওই ছাত্রকে ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে ধরে ফেলেন। তখন এমদাদুলের সঙ্গে থাকা অস্ত্রধারী অন্য চার সহযোগী তাকে ছিনিয়ে নিয়ে অস্ত্র উঁচিয়ে ক্যাম্পাস ত্যাগ করে।

এ ঘটনা জানাজানি হলে বিক্ষোভে ফেটে পড়ে কলেজের সাধারণ ছাত্রছাত্রীরা। তারা ক্লাস বর্জন করে কলেজ ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করে। একপর্যায়ে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা কলেজের সামনের সোনাইমুড়ী-চাটখিল-রামগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধ করে। অধ্যক্ষসহ কলেজের শিক্ষকেরা শিক্ষার্থীদের শান্ত করার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন। পরে পুলিশ এসে অভিযুক্ত ছাত্রকে গ্রেপ্তারের আশ্বাস দিলে শিক্ষার্থীরা অবরোধ তুলে নেয়।

জয়াগ কলেজের অধ্যক্ষ মো. আইয়ুব আলী প্রথম আলোকে বলেন, ‘এমদাদুল হক নামের ওই ছাত্র নিয়মিত কলেজে আসে না। এলেও অন্যদের নানাভাবে বিরক্ত করে। আজও একই ঘটনা করতে দেখে তাঁকে ডেকে ধমক দিয়ে কলেজ থেকে বের করে দেওয়া হয়। এরপর সে অস্ত্রসহ কয়েকজনকে নিয়ে অফিস কক্ষে ঢুকে আমার দিকে অস্ত্র ধরে।’ এ সময় সামনে থাকা এক শিক্ষক ধাক্কা দিয়ে ওই ছাত্রকে সরিয়ে দেওয়ায় তিনি রক্ষা পেয়েছেন। এ ঘটনায় পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।

সোনাইমুড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইসমাইল মিঞা প্রথম আলোকে বলেন, জয়াগ কলেজের এক ছাত্র অধ্যক্ষের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেছে বলে অধ্যক্ষ তাঁকে জানিয়েছেন। কিন্তু তিনি তাঁকে অস্ত্র নিয়ে হুমকির বিষয়ে কিছু বলেননি। এ ঘটনায় কলেজের শিক্ষার্থীরা উত্তেজিত হয়ে পড়লে পুলিশ তাদের শান্ত করে। এ ব্যাপারে অধ্যক্ষ লিখিত অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X