মঙ্গলবার, ২০শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১:৪৭
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Tuesday, January 17, 2017 12:04 pm
A- A A+ Print

ইতিহাদ এয়ারওয়েজের ফ্লাইটেও বিড়ম্বনা এড়ানো গেল না

21

বাংলাদেশ বিমানের পরিবর্তে ইতিহাদ এয়ারওয়েজের ফ্লাইটে উঠেও বিড়ম্বনা এড়ানো গেল না। সুইজারল্যান্ডের উদ্দেশে রওনা দেওয়ার আগে গত রবিবার রাতে জ্বালানি তেল নেওয়ার কথা বলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আধাঘণ্টা ফ্লাইটের ভেতর বসিয়ে রাখা হয়। হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এ ঘটনা ঘটে। প্রধানমন্ত্রীকে বিমানের ভেতরে বসিয়ে রেখেই ফ্লাইটে জ্বালানি তেল সংগ্রহ ও পরীক্ষা করা হয়। সিভিল এভিয়েশনের দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, যাত্রীদের ফ্লাইটের ভেতর রেখে জ্বালানি তেল ভরা ও পরীক্ষা করায় নিরাপত্তা ঝুঁকি থাকে। আর প্রধানমন্ত্রীকে অন বোর্ড রেখে রিফুয়েলিং বা ফুয়েল টেস্ট করা সমীচীন হয়নি। এ নিয়ে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেননও বিস্ময়ও প্রকাশ করেছেন। তিনি সাংবাদিকদের বলেছেন, নিরাপত্তা ঝুঁকিতে থাকা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ফ্লাইটের ভেতরে রেখে জ্বালানি তেল সংগ্রহ বা পরীক্ষা করাটা অনাকাঙ্ক্ষিত। এ কাজটা তারা (ইতিহাদ কর্তৃপক্ষ) আগেই করতে পারত। এতে ভিভিআইপি হিসেবে তার (প্রধানমন্ত্রী) মর্যাদার হানি ঘটেছে। এমন ঘটনা যদি বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইটে ঘটত তাহলে এতক্ষণে হৈচৈ পড়ে যেত। মঙ্গলবার এমন তথ্য দিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে দৈনিক কালেরকন্ঠ। প্রতিবেদনটি আরটিএনএনের পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হলো- বিমান সূত্র জানায়, ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের সভায় যোগ দিতে যাওয়ার উদ্দেশে গত রবিবার রাত পৌনে ১০টায় ইতিহাদের ফ্লাইট ধরতে প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর সফরসঙ্গীরা শাহজালাল বিমানবন্দরে পৌঁছান। সেখানে গিয়ে তিনি জানতে পারেন, ফ্লাইট বিলম্ব হবে। রাত ১০টা ৫ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর ৩০ জন সফরসঙ্গীকে নিয়ে যাওয়া হয় ইতিহাদের ফ্লাইটে। তার আগে ওই ফ্লাইটে তোলা হয় ৩২৬ জন সাধারণ যাত্রী। বাংলাদেশ বিমানের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক এয়ার কমোডর জাকিউল ইসলাম বলেছেন, ফ্লাইটের ভেতরে যাত্রী রেখে রিফুয়েলিং করাটা উচিত নয়। এতে কিছুটা নিরাপত্তা ঝুঁকি থাকেই। তবে দেখতে হবে এ ক্ষেত্রে নিরাপত্তার প্রয়োজনীয় সব শর্ত পূরণ করা হয়েছে কি না। জানতে চাইলে ইতিহাদ এয়ারওয়েজের কান্ট্রি ম্যানেজার হানিফ জাকারিয়া বলেছেন, ‘আমি নিজে বিমানবন্দরে উপস্থিত ছিলাম। আসলে ওই ফ্লাইটের তেমন বিলম্ব হয়নি, মিনিট দশেক বিলম্ব হয়েছে। বিকজ, ফ্লাইট ওয়াজ লেট অ্যারাইভাল। ’ প্রধানমন্ত্রীকে অন বোর্ড রেখে রিফুয়েলিং করাটা ঠিক হয়েছে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ভিভিআইপি ফ্লাইটের ফুয়েল টেস্ট করার জন্য স্যাম্পল সংগ্রহ করা হয়েছে। বিমানের সিবিএ নেতা মশিকুর রহমান বলেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রী বিমানের পরিবর্তে ইতিহাদে চড়েছেন, এটাই আমাদের জন্য দুর্ভাগ্যজনক। তারপর উনাকে অন বোর্ড রেখে রিফুয়েলিং করাটা ছিল উদ্বেগজনক। কারণ সিভিল এভিয়েশনের রুলস কোনো উড়োজাহাজের ভেতরে যাত্রী রেখে তাতে জ্বালানি তেল সংগ্রহ করাটা অনুমোদন করে না। সারা দুনিয়া এ নিয়ম মেনে চলে। ইতিহাদ তা অমান্য করেছে। ’ প্রসঙ্গত, গত ২৭ নভেম্বর হাঙ্গেরি যাওয়ার পথে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বহনকারী বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইটের ইঞ্জিনে ত্রুটি দেখা দেয়, যার কারণে সেটি তুর্কমেনিস্তানের রাজধানী আশখাবাদে জরুরি অবতরণ করে। এ ঘটনায় গঠিত তদন্ত কমিটিগুলোর প্রতিবেদনে বলা হয়, ত্রুটির ওই ঘটনা ছিল ‘মানবসৃষ্ট’। এ ঘটনায় করা মামলায় পরে বিমানের বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

Comments

Comments!

 ইতিহাদ এয়ারওয়েজের ফ্লাইটেও বিড়ম্বনা এড়ানো গেল নাAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

ইতিহাদ এয়ারওয়েজের ফ্লাইটেও বিড়ম্বনা এড়ানো গেল না

Tuesday, January 17, 2017 12:04 pm
21

বাংলাদেশ বিমানের পরিবর্তে ইতিহাদ এয়ারওয়েজের ফ্লাইটে উঠেও বিড়ম্বনা এড়ানো গেল না। সুইজারল্যান্ডের উদ্দেশে রওনা দেওয়ার আগে গত রবিবার রাতে জ্বালানি তেল নেওয়ার কথা বলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আধাঘণ্টা ফ্লাইটের ভেতর বসিয়ে রাখা হয়। হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এ ঘটনা ঘটে। প্রধানমন্ত্রীকে বিমানের ভেতরে বসিয়ে রেখেই ফ্লাইটে জ্বালানি তেল সংগ্রহ ও পরীক্ষা করা হয়।

সিভিল এভিয়েশনের দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, যাত্রীদের ফ্লাইটের ভেতর রেখে জ্বালানি তেল ভরা ও পরীক্ষা করায় নিরাপত্তা ঝুঁকি থাকে। আর প্রধানমন্ত্রীকে অন বোর্ড রেখে রিফুয়েলিং বা ফুয়েল টেস্ট করা সমীচীন হয়নি।

এ নিয়ে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেননও বিস্ময়ও প্রকাশ করেছেন। তিনি সাংবাদিকদের বলেছেন, নিরাপত্তা ঝুঁকিতে থাকা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ফ্লাইটের ভেতরে রেখে জ্বালানি তেল সংগ্রহ বা পরীক্ষা করাটা অনাকাঙ্ক্ষিত। এ কাজটা তারা (ইতিহাদ কর্তৃপক্ষ) আগেই করতে পারত। এতে ভিভিআইপি হিসেবে তার (প্রধানমন্ত্রী) মর্যাদার হানি ঘটেছে। এমন ঘটনা যদি বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইটে ঘটত তাহলে এতক্ষণে হৈচৈ পড়ে যেত।

মঙ্গলবার এমন তথ্য দিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে দৈনিক কালেরকন্ঠ। প্রতিবেদনটি আরটিএনএনের পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হলো-

বিমান সূত্র জানায়, ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের সভায় যোগ দিতে যাওয়ার উদ্দেশে গত রবিবার রাত পৌনে ১০টায় ইতিহাদের ফ্লাইট ধরতে প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর সফরসঙ্গীরা শাহজালাল বিমানবন্দরে পৌঁছান। সেখানে গিয়ে তিনি জানতে পারেন, ফ্লাইট বিলম্ব হবে। রাত ১০টা ৫ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর ৩০ জন সফরসঙ্গীকে নিয়ে যাওয়া হয় ইতিহাদের ফ্লাইটে। তার আগে ওই ফ্লাইটে তোলা হয় ৩২৬ জন সাধারণ যাত্রী।

বাংলাদেশ বিমানের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক এয়ার কমোডর জাকিউল ইসলাম বলেছেন, ফ্লাইটের ভেতরে যাত্রী রেখে রিফুয়েলিং করাটা উচিত নয়। এতে কিছুটা নিরাপত্তা ঝুঁকি থাকেই। তবে দেখতে হবে এ ক্ষেত্রে নিরাপত্তার প্রয়োজনীয় সব শর্ত পূরণ করা হয়েছে কি না।

জানতে চাইলে ইতিহাদ এয়ারওয়েজের কান্ট্রি ম্যানেজার হানিফ জাকারিয়া বলেছেন, ‘আমি নিজে বিমানবন্দরে উপস্থিত ছিলাম। আসলে ওই ফ্লাইটের তেমন বিলম্ব হয়নি, মিনিট দশেক বিলম্ব হয়েছে। বিকজ, ফ্লাইট ওয়াজ লেট অ্যারাইভাল। ’

প্রধানমন্ত্রীকে অন বোর্ড রেখে রিফুয়েলিং করাটা ঠিক হয়েছে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ভিভিআইপি ফ্লাইটের ফুয়েল টেস্ট করার জন্য স্যাম্পল সংগ্রহ করা হয়েছে।

বিমানের সিবিএ নেতা মশিকুর রহমান বলেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রী বিমানের পরিবর্তে ইতিহাদে চড়েছেন, এটাই আমাদের জন্য দুর্ভাগ্যজনক। তারপর উনাকে অন বোর্ড রেখে রিফুয়েলিং করাটা ছিল উদ্বেগজনক। কারণ সিভিল এভিয়েশনের রুলস কোনো উড়োজাহাজের ভেতরে যাত্রী রেখে তাতে জ্বালানি তেল সংগ্রহ করাটা অনুমোদন করে না। সারা দুনিয়া এ নিয়ম মেনে চলে। ইতিহাদ তা অমান্য করেছে। ’

প্রসঙ্গত, গত ২৭ নভেম্বর হাঙ্গেরি যাওয়ার পথে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বহনকারী বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইটের ইঞ্জিনে ত্রুটি দেখা দেয়, যার কারণে সেটি তুর্কমেনিস্তানের রাজধানী আশখাবাদে জরুরি অবতরণ করে। এ ঘটনায় গঠিত তদন্ত কমিটিগুলোর প্রতিবেদনে বলা হয়, ত্রুটির ওই ঘটনা ছিল ‘মানবসৃষ্ট’। এ ঘটনায় করা মামলায় পরে বিমানের বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X