সোমবার, ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১৪ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৭:২৩
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Monday, September 5, 2016 11:19 pm
A- A A+ Print

এসপি বাবুল আক্তারকে নিয়ে বিব্রত পুলিশ

241013_1

পুলিশ সুপার বাবুল আক্তার প্রশ্নে বিব্রত হচ্ছে পুলিশ প্রশাসন। সংবাদকর্মীসহ বিভিন্ন মহল থেকে প্রতিদিন আইজিপিসহ পুলিশের কর্তা-ব্যক্তিদের দিকে প্রশ্ন ছুড়ে দিচ্ছেন পুলিশ সুপার বাবুল আক্তারের ‘আমল নামা’ নিয়ে। বাবুল আক্তার স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করেনি বলে দাবি করে এ আলোচনা আরো একধাপ উস্কে দিয়েছে। ফলে পুলিশের দায়িত্বশীল পদে থাকা কর্মকর্তারা আছেন বিব্রতকর এক পরিস্থিতির মধ্যে। খুব শিগগিরই বাবুলের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হচ্ছে জানিয়ে পুলিশের একজন পদস্থ কর্মকর্তা বলেছেন। এসপি পদ মর্যাদার একজন দায়িত্বশীল কর্মকর্তার কাছ থেকে জোর করে পদত্যাগপত্রে সই নেয়ার বিষয়টি বিশ্বাস করা মানে বোকার স্বর্গে বাস করা। তিনি স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করে আবার কি কারণে অস্বীকার করছেন সেটা উনিই ভাল জানেন। এ ব্যাপারে সোমবার আইজিপি একেএম শহীদুল হক মুঠোফোনে এ প্রতিবেদককে পাল্টা প্রশ্ন করেন। এসব গাঁজাখুরি বিষয়। তিনি বলেন, বাবুল নিজেই দায়িত্ব পালনে অপরাগতা প্রকাশ করেন। দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি চেয়েছেন। পুলিশ সদর দফতরের একাধিক সূত্র জানায়, চাকরী বিধি অনুযায়ী কোনো কর্মকর্তা স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করলে- সেটা তিনি আর নিজে থেকে ইউথড্র করতে পারেন না। তবে কর্তৃপক্ষ যদি তার সে পদত্যাগ পত্র গ্রহণ না করে তাকে চাকরীতে যোগদান করতে বলেন-তাহলেই কেবল তিনি চাকরী ফিরে পেতে পারেন। এক্ষেত্রে বাবুলকেও সে পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে। সূত্র আরো জানিয়েছে বাবুল অবশ্য চাকরিতে যোগদান করার জন্য পুলিশ সদর দফতর ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ে আবেদন জানিয়েছেন। এ ব্যাপারে পুলিশ সদর দফতরের ডিআইজি (প্রশাসন) বিনয়কৃষ্ণ বালা সোমবার তার দফতরে এ প্রতিবেদককে বলেন, পদত্যাগপত্র দাখিলের পর ওই কর্মকর্তা নিয়ম অনুযায়ী পুনরায় লিখিত কোনো আবেদন করতে পারেন না। ফলে তার আবেদনটি অগ্রগামী করা হয়নি। সেটা ধামাচাপা দেওয়া হয়েছে। সংশ্লিষ্ট একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র জানিয়েছে বাবুল আক্তার বিভিন্ন মহলে তদবির করছেন। আর বলে বেড়াচ্ছেন, তিনি স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করেননি। যা পুলিশের বক্তব্যের সাথে পরস্পরবিরোধী। এ বিব্রতকর অবস্থা এড়াতে যথাশীঘ্র সম্ভব বাবুল ইস্যুর সমাধান করার প্রক্রিয়া শুরু করা হয়েছে। তারা মতে, রাষ্ট্রপতি দেশে না থাকায় এটি ঝুলে ছিল। এখন তিনি দেশে ফিরেছেন-এ বিষয়ে সুষ্ঠু একটি সুরাহা হবে। অন্যদিকে বাবুল আক্তার ৬ জুন পুলিশ সদর দফতরে রিপোর্ট করে বনশ্রী এলাকায় শ্বশুর বাড়িতে অবস্থান নেন। তার আগের দিন ৫ জুন বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতু চট্টগ্রামে খুন হন। ২৩ জুন বাবুল আক্তারকে বাসা থেকে ডেকে এনে ১৫ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশের পদস্থ কর্মকর্তারা। সেখানেই তিনি পদত্যাগ করেন।

Comments

Comments!

 এসপি বাবুল আক্তারকে নিয়ে বিব্রত পুলিশAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

এসপি বাবুল আক্তারকে নিয়ে বিব্রত পুলিশ

Monday, September 5, 2016 11:19 pm
241013_1

পুলিশ সুপার বাবুল আক্তার প্রশ্নে বিব্রত হচ্ছে পুলিশ প্রশাসন। সংবাদকর্মীসহ বিভিন্ন মহল থেকে প্রতিদিন আইজিপিসহ পুলিশের কর্তা-ব্যক্তিদের দিকে প্রশ্ন ছুড়ে দিচ্ছেন পুলিশ সুপার বাবুল আক্তারের ‘আমল নামা’ নিয়ে। বাবুল আক্তার স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করেনি বলে দাবি করে এ আলোচনা আরো একধাপ উস্কে দিয়েছে।

ফলে পুলিশের দায়িত্বশীল পদে থাকা কর্মকর্তারা আছেন বিব্রতকর এক পরিস্থিতির মধ্যে। খুব শিগগিরই বাবুলের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হচ্ছে জানিয়ে পুলিশের একজন পদস্থ কর্মকর্তা বলেছেন। এসপি পদ মর্যাদার একজন দায়িত্বশীল কর্মকর্তার কাছ থেকে জোর করে পদত্যাগপত্রে সই নেয়ার বিষয়টি বিশ্বাস করা মানে বোকার স্বর্গে বাস করা। তিনি স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করে আবার কি কারণে অস্বীকার করছেন সেটা উনিই ভাল জানেন। এ ব্যাপারে সোমবার আইজিপি একেএম শহীদুল হক মুঠোফোনে এ প্রতিবেদককে পাল্টা প্রশ্ন করেন। এসব গাঁজাখুরি বিষয়। তিনি বলেন, বাবুল নিজেই দায়িত্ব পালনে অপরাগতা প্রকাশ করেন। দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি চেয়েছেন।

পুলিশ সদর দফতরের একাধিক সূত্র জানায়, চাকরী বিধি অনুযায়ী কোনো কর্মকর্তা স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করলে- সেটা তিনি আর নিজে থেকে ইউথড্র করতে পারেন না। তবে কর্তৃপক্ষ যদি তার সে পদত্যাগ পত্র গ্রহণ না করে তাকে চাকরীতে যোগদান করতে বলেন-তাহলেই কেবল তিনি চাকরী ফিরে পেতে পারেন। এক্ষেত্রে বাবুলকেও সে পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে।

সূত্র আরো জানিয়েছে বাবুল অবশ্য চাকরিতে যোগদান করার জন্য পুলিশ সদর দফতর ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ে আবেদন জানিয়েছেন। এ ব্যাপারে পুলিশ সদর দফতরের ডিআইজি (প্রশাসন) বিনয়কৃষ্ণ বালা সোমবার তার দফতরে এ প্রতিবেদককে বলেন, পদত্যাগপত্র দাখিলের পর ওই কর্মকর্তা নিয়ম অনুযায়ী পুনরায় লিখিত কোনো আবেদন করতে পারেন না। ফলে তার আবেদনটি অগ্রগামী করা হয়নি। সেটা ধামাচাপা দেওয়া হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র জানিয়েছে বাবুল আক্তার বিভিন্ন মহলে তদবির করছেন। আর বলে বেড়াচ্ছেন, তিনি স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করেননি। যা পুলিশের বক্তব্যের সাথে পরস্পরবিরোধী। এ বিব্রতকর অবস্থা এড়াতে যথাশীঘ্র সম্ভব বাবুল ইস্যুর সমাধান করার প্রক্রিয়া শুরু করা হয়েছে। তারা মতে, রাষ্ট্রপতি দেশে না থাকায় এটি ঝুলে ছিল। এখন তিনি দেশে ফিরেছেন-এ বিষয়ে সুষ্ঠু একটি সুরাহা হবে।

অন্যদিকে বাবুল আক্তার ৬ জুন পুলিশ সদর দফতরে রিপোর্ট করে বনশ্রী এলাকায় শ্বশুর বাড়িতে অবস্থান নেন। তার আগের দিন ৫ জুন বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতু চট্টগ্রামে খুন হন। ২৩ জুন বাবুল আক্তারকে বাসা থেকে ডেকে এনে ১৫ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশের পদস্থ কর্মকর্তারা। সেখানেই তিনি পদত্যাগ করেন।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X