সোমবার, ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ১১:৩৪
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, July 31, 2016 1:20 pm
A- A A+ Print

কাজে যোগ দিলেন মেট্রোরেলের জাপানি প্রকৌশলীরা

Rail1469947886

গুলশানের হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় সন্ত্রাসী হামলায় ছয় জাপানি কর্মকর্তা নিহত হওয়ার পর বাংলাদেশ ছাড়েন অপর জাপানি কর্মকর্তারা। এ সময়ে বন্ধ ছিল প্রকল্পের কাজও। এক মাস পর তারা আবার যোগ দিয়েছেন মেট্রোরেল প্রকল্পে।
  রোববার প্রকল্পের কর্মকর্তাদের সঙ্গে তারা বৈঠক করেছেন। শিগগিরই মেট্রোরেলের কাজ পুরোদমে শুরু করবেন জাপানের এই প্রকৌশলীরা।   মেট্রোরেল প্রকল্পের পরিচালক মোফাজ্জেল হোসেন রাইজিংবিডিকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।   তিনি বলেন, গত ৩০ জুন প্রকল্পের জাপানি কিছু কর্মকর্তা ছুটি নিয়ে জাপান গিয়েছিলেন। কিন্তু গুলশানের ঘটনার পর নিরাপত্তার কথা বলে তারা কাজে যোগ দিতে দেরি করছিলেন। তারা শনিবার বাংলাদেশে এসেছেন। আজ (রোববার) তারা কাজে যোগ দিয়েছেন, যথারীতি সাইটও ভিজিট করেছেন।   কাজ বন্ধ ছিল না দাবি করে মোফাজ্জেল হোসেন বলেছেন, ‘এ সময়ে আমাদের কাজ বন্ধ ছিল না। কন্ট্রাক্ট প্রতিষ্ঠানের সাব-কন্ট্রাক্টররা কাজ চালিয়ে গেছে এ সময়ে।’   গত জুনে মেট্রোরেল-৬ এর ডিপোর মাটির উন্নয়নের কাজ শুরু করা হয়। এর ঠিকাদার হিসেবে কাজ করছে জাপানের টোকিও কনস্ট্রাকশন লিমিটেড। এ ছাড়া মেট্রোরেলের বিস্তারিত নকশা প্রণয়নের কাজও করছে জাপান ও যুক্তরাজ্যের কয়েকটি কোম্পানি। এর বাইরে মেট্রো-১ ও মেট্রো-৫ এর সম্ভাব্যতা যাচাই করছে জাপানের তিনটি প্রতিষ্ঠান। এদের একটি প্রতিষ্ঠানের ছয়জন কর্মী ১ জুলাই গুলশান হামলায় নিহত হন। এরপরই ঢাকা ছাড়েন বিভিন্ন প্রকল্পে নিয়োজিত জাপানের প্রকৌশলীরা।   মেট্রোরেলের প্রকৌশলীদের সর্বোচ্চ নিরাপত্তার আশ্বাস দিয়েছে সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়। এজন্য প্রকল্প এলাকায় চারটি পর্যবেক্ষণ টাওয়ার নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। মোতায়েন করা হয়েছে অর্ধশতাধিক সশস্ত্র আনসার সদস্য।   এদিকে মেট্রোরেল ছাড়াও বিভিন্ন প্রকল্পের সঙ্গে যুক্ত জাপানি কর্মকর্তাদের নিরাপত্তাও বাড়ানো হয়েছে। ঢাকায় মেট্রোরেলের তিনটি কার্যালয় ছাড়াও প্রকল্পের সঙ্গে জড়িত বিদেশি কর্মকর্তাদের আবাসিক এলাকায় নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।   উল্লেখ্য, রাজধানীর উত্তরা থেকে মতিঝিল পর্যন্ত দেশের প্রথম মেট্রোরেল নির্মাণ হতে যাচ্ছে। প্রকল্পটি বাস্তবায়নে ব্যয় হবে ২২ হাজার কোটি টাকা। এর মধ্যে জাপান আন্তর্জাতিক সহযোগিতা সংস্থা জাইকা দিচ্ছে প্রায় ১৬ হাজার ৬০০ কোটি টাকা। এ ছাড়া মেট্রো-১ ও মেট্রো-৫ এর সম্ভাব্যতা যাচাইয়ে কারিগরি সহায়তা দিচ্ছে জাপান।  

Comments

Comments!

 কাজে যোগ দিলেন মেট্রোরেলের জাপানি প্রকৌশলীরাAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

কাজে যোগ দিলেন মেট্রোরেলের জাপানি প্রকৌশলীরা

Sunday, July 31, 2016 1:20 pm
Rail1469947886

গুলশানের হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় সন্ত্রাসী হামলায় ছয় জাপানি কর্মকর্তা নিহত হওয়ার পর বাংলাদেশ ছাড়েন অপর জাপানি কর্মকর্তারা। এ সময়ে বন্ধ ছিল প্রকল্পের কাজও। এক মাস পর তারা আবার যোগ দিয়েছেন মেট্রোরেল প্রকল্পে।

 

রোববার প্রকল্পের কর্মকর্তাদের সঙ্গে তারা বৈঠক করেছেন। শিগগিরই মেট্রোরেলের কাজ পুরোদমে শুরু করবেন জাপানের এই প্রকৌশলীরা।

 

মেট্রোরেল প্রকল্পের পরিচালক মোফাজ্জেল হোসেন রাইজিংবিডিকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

 

তিনি বলেন, গত ৩০ জুন প্রকল্পের জাপানি কিছু কর্মকর্তা ছুটি নিয়ে জাপান গিয়েছিলেন। কিন্তু গুলশানের ঘটনার পর নিরাপত্তার কথা বলে তারা কাজে যোগ দিতে দেরি করছিলেন। তারা শনিবার বাংলাদেশে এসেছেন। আজ (রোববার) তারা কাজে যোগ দিয়েছেন, যথারীতি সাইটও ভিজিট করেছেন।

 

কাজ বন্ধ ছিল না দাবি করে মোফাজ্জেল হোসেন বলেছেন, ‘এ সময়ে আমাদের কাজ বন্ধ ছিল না। কন্ট্রাক্ট প্রতিষ্ঠানের সাব-কন্ট্রাক্টররা কাজ চালিয়ে গেছে এ সময়ে।’

 

গত জুনে মেট্রোরেল-৬ এর ডিপোর মাটির উন্নয়নের কাজ শুরু করা হয়। এর ঠিকাদার হিসেবে কাজ করছে জাপানের টোকিও কনস্ট্রাকশন লিমিটেড। এ ছাড়া মেট্রোরেলের বিস্তারিত নকশা প্রণয়নের কাজও করছে জাপান ও যুক্তরাজ্যের কয়েকটি কোম্পানি। এর বাইরে মেট্রো-১ ও মেট্রো-৫ এর সম্ভাব্যতা যাচাই করছে জাপানের তিনটি প্রতিষ্ঠান। এদের একটি প্রতিষ্ঠানের ছয়জন কর্মী ১ জুলাই গুলশান হামলায় নিহত হন। এরপরই ঢাকা ছাড়েন বিভিন্ন প্রকল্পে নিয়োজিত জাপানের প্রকৌশলীরা।

 

মেট্রোরেলের প্রকৌশলীদের সর্বোচ্চ নিরাপত্তার আশ্বাস দিয়েছে সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়। এজন্য প্রকল্প এলাকায় চারটি পর্যবেক্ষণ টাওয়ার নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। মোতায়েন করা হয়েছে অর্ধশতাধিক সশস্ত্র আনসার সদস্য।

 

এদিকে মেট্রোরেল ছাড়াও বিভিন্ন প্রকল্পের সঙ্গে যুক্ত জাপানি কর্মকর্তাদের নিরাপত্তাও বাড়ানো হয়েছে। ঢাকায় মেট্রোরেলের তিনটি কার্যালয় ছাড়াও প্রকল্পের সঙ্গে জড়িত বিদেশি কর্মকর্তাদের আবাসিক এলাকায় নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।

 

উল্লেখ্য, রাজধানীর উত্তরা থেকে মতিঝিল পর্যন্ত দেশের প্রথম মেট্রোরেল নির্মাণ হতে যাচ্ছে। প্রকল্পটি বাস্তবায়নে ব্যয় হবে ২২ হাজার কোটি টাকা। এর মধ্যে জাপান আন্তর্জাতিক সহযোগিতা সংস্থা জাইকা দিচ্ছে প্রায় ১৬ হাজার ৬০০ কোটি টাকা। এ ছাড়া মেট্রো-১ ও মেট্রো-৫ এর সম্ভাব্যতা যাচাইয়ে কারিগরি সহায়তা দিচ্ছে জাপান।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X