বুধবার, ২১শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৯ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৯:৩৮
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, November 12, 2016 4:48 pm
A- A A+ Print

কোহলির ‘হিট উইকেট’ দুর্ভাগ্য

77

আদিল রশিদের বলটি পুল করেছিলেন বিরাট কোহলি। মিড উইকেটে দাঁড়িয়ে থাকা ফিল্ডার সুযোগই পেলেন না তা ধরার। ভারত-অধিনায়কও দৌড়েছিলেন রানের জন্য। কিন্তু একি! উইকেটকিপার জনি বেয়ারস্টোর উল্লাসেই সংবিৎ ফিরল সকলের! ব্যাক-ফুটে শটটি খেলতে গিয়ে শরীরের ভারসাম্যটা যে রাখতে পারেননি তিনি! বাঁ পা তাঁর লেগে যায় স্টাম্পে। কোহলি আউট—হিট উইকেট। ২০০২ সালের পর এই প্রথম কোনো ভারতীয় ব্যাটসম্যান হিট উইকেট হলেন। অধিনায়ক হিসেবে লালা অমরনাথের পর কোহলিই প্রথম। কোহলির আগে ২১ জন ভারতীয় ব্যাটসম্যান হিট উইকেট হয়েছেন। ২০০২ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সেন্ট জোনসে সর্বশেষ এমন আউট হয়েছিলেন ভিভিএস লক্ষণ! লালা অমরনাথই প্রথম ভারতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে হিট-উইকেটের শিকার হয়েছিলেন ১৯৪৯ সালে। চেন্নাইয়ের সে টেস্টে ভারত খেলেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। এই তালিকায় সবচেয়ে বেশি নিজের নাম লিখিয়েছেন লাল অমরনাথেরই ছেলে মহিন্দর অমরনাথ। ১৯৭৮ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে লাহোরে প্রথম হিট উইকেট হয়েছিলেন মহিন্দর। দ্বিতীয়বার ১৯৭৯ সালে, মুম্বাইয়ে, অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে। তৃতীয়টি ১৯৮৪ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে ফয়সলাবাদে। ভিভিএস লক্ষণ ২০০২ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হিট-উইকেট হয়েছিলেন ১৩০ রানে। ১৯৫৯ সালে দিল্লিতে সেঞ্চুরি থেকে মাত্র ৪ রান দূরে দাঁড়িয়ে হিট উইকেট হয়েছিলেন চান্দু বোর্দে। টেস্টটি ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। ১৯৬২ সালে পোর্ট অব স্পেনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে শূন্য হিট-উইকেট হয়েছিলেন বিজয় মাঞ্জরেকার। শূন্য রানে হিট উইকেট হয়ে ফেরা অন্য ভারতীয় ব্যাটসম্যান হনুমন্ত সিং ( বিপক্ষ নিউজিল্যান্ড, মুম্বাই, ১৯৬৫)। হিট উইকেট হয়ে ফেরা ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা হলেন—মাধব আপতে (১৯৫৩), নরেন তামহানে (১৯৫৯), বুধি কুন্দারান (১৯৬০), দিলীপ সারদেশাই (১৯৬১), এমএল জয়সীমা (১৯৬৫), সৈয়দ আবিদ আলী (১৯৬৮), মদন লাল (১৯৭৪), ভিনু মানকড় (১৯৭৪), ব্রিজেশ প্যাটেল (১৯৭৭), দিলীপ ভেংসরকার (১৯৭৭), কিরন মোরে (১৯৮৯), নয়ন মঙ্গিয়া (১৯৯৪), শিব সুন্দর দাস (২০০১)। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সবচেয়ে বেশি, মোট আটবার হিট-উইকেটের শিকার ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে হয়েছে পাঁচবার। কোহলি আজ হিট-উইকেট হয়ে অস্ট্রেলিয়ার পাশে বসিয়েছেন ইংল্যান্ডকে (৫ বার)। নিউজিল্যান্ড ও পাকিস্তানের বিপক্ষে দুবার করে হিট-উইকেট দুর্ভাগ্যের শিকার হতে হয়েছে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের।

Comments

Comments!

 কোহলির ‘হিট উইকেট’ দুর্ভাগ্যAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

কোহলির ‘হিট উইকেট’ দুর্ভাগ্য

Saturday, November 12, 2016 4:48 pm
77

আদিল রশিদের বলটি পুল করেছিলেন বিরাট কোহলি। মিড উইকেটে দাঁড়িয়ে থাকা ফিল্ডার সুযোগই পেলেন না তা ধরার। ভারত-অধিনায়কও দৌড়েছিলেন রানের জন্য। কিন্তু একি! উইকেটকিপার জনি বেয়ারস্টোর উল্লাসেই সংবিৎ ফিরল সকলের! ব্যাক-ফুটে শটটি খেলতে গিয়ে শরীরের ভারসাম্যটা যে রাখতে পারেননি তিনি! বাঁ পা তাঁর লেগে যায় স্টাম্পে। কোহলি আউট—হিট উইকেট। ২০০২ সালের পর এই প্রথম কোনো ভারতীয় ব্যাটসম্যান হিট উইকেট হলেন। অধিনায়ক হিসেবে লালা অমরনাথের পর কোহলিই প্রথম।

কোহলির আগে ২১ জন ভারতীয় ব্যাটসম্যান হিট উইকেট হয়েছেন। ২০০২ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সেন্ট জোনসে সর্বশেষ এমন আউট হয়েছিলেন ভিভিএস লক্ষণ! লালা অমরনাথই প্রথম ভারতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে হিট-উইকেটের শিকার হয়েছিলেন ১৯৪৯ সালে। চেন্নাইয়ের সে টেস্টে ভারত খেলেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। এই তালিকায় সবচেয়ে বেশি নিজের নাম লিখিয়েছেন লাল অমরনাথেরই ছেলে মহিন্দর অমরনাথ। ১৯৭৮ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে লাহোরে প্রথম হিট উইকেট হয়েছিলেন মহিন্দর। দ্বিতীয়বার ১৯৭৯ সালে, মুম্বাইয়ে, অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে। তৃতীয়টি ১৯৮৪ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে ফয়সলাবাদে।
ভিভিএস লক্ষণ ২০০২ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হিট-উইকেট হয়েছিলেন ১৩০ রানে। ১৯৫৯ সালে দিল্লিতে সেঞ্চুরি থেকে মাত্র ৪ রান দূরে দাঁড়িয়ে হিট উইকেট হয়েছিলেন চান্দু বোর্দে। টেস্টটি ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। ১৯৬২ সালে পোর্ট অব স্পেনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে শূন্য হিট-উইকেট হয়েছিলেন বিজয় মাঞ্জরেকার। শূন্য রানে হিট উইকেট হয়ে ফেরা অন্য ভারতীয় ব্যাটসম্যান হনুমন্ত সিং ( বিপক্ষ নিউজিল্যান্ড, মুম্বাই, ১৯৬৫)।
হিট উইকেট হয়ে ফেরা ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা হলেন—মাধব আপতে (১৯৫৩), নরেন তামহানে (১৯৫৯), বুধি কুন্দারান (১৯৬০), দিলীপ সারদেশাই (১৯৬১), এমএল জয়সীমা (১৯৬৫), সৈয়দ আবিদ আলী (১৯৬৮), মদন লাল (১৯৭৪), ভিনু মানকড় (১৯৭৪), ব্রিজেশ প্যাটেল (১৯৭৭), দিলীপ ভেংসরকার (১৯৭৭), কিরন মোরে (১৯৮৯), নয়ন মঙ্গিয়া (১৯৯৪), শিব সুন্দর দাস (২০০১)।
ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সবচেয়ে বেশি, মোট আটবার হিট-উইকেটের শিকার ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে হয়েছে পাঁচবার। কোহলি আজ হিট-উইকেট হয়ে অস্ট্রেলিয়ার পাশে বসিয়েছেন ইংল্যান্ডকে (৫ বার)। নিউজিল্যান্ড ও পাকিস্তানের বিপক্ষে দুবার করে হিট-উইকেট দুর্ভাগ্যের শিকার হতে হয়েছে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X