বুধবার, ২১শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৯ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৯:৪১
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, June 3, 2017 9:26 am
A- A A+ Print

খুলনায় ‘ইসলামী আন্দোলনের’ নেতাকে গুলি করে হত্যা

photo-1496422906

খুলনার দৌলতপুরে দুর্বৃত্তদের গুলিতে ‘ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের’ নেতা নিহত হয়েছেন। আজ শুক্রবার রাত ৮টার দিকে আঞ্জুমান রোডের মসজিদের পাশে ওই ঘটনা ঘটে। নিহত ব্যক্তির নাম শেখ ইকবাল সারওয়ার (৪৫)। তিনি ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের সভাপতি ছিলেন বলে জানা গেছে। তিনি সাইকেলের যন্ত্রাংশের ব্যবসা করতেন। প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্র জানা যায়, মাগরিবের নামাজ শেষে মসজিদের পাশে রাস্তায় কয়েকজন পাট ব্যবসায়ীর সঙ্গে আলাপ করছিলেন ইকবাল সারওয়ার। এই সময় তাঁর ফোন বেজে উঠলে তিনি একটু দূরে সরে গিয়ে কথা বলেন। তখনই দুর্বৃত্তরা ইকবালের বুকে তিনটি গুলি করে। ঘটনাস্থল থেকে মুমূর্ষু অবস্থায় ইকবালকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। ইকবালের দুই মেয়ে ও এক ছেলে রয়েছে। তাঁর মেয়ের জামাতা কিছুদিন আগে সৌদি আরবে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। ঘটনার পরপরই খুলনা মহানগর পুলিশের উপকমিশনার জাহাঙ্গীর হোসেনসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। দৌলতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন জানান, নিহত ইকবাল একসময় আখতার হোসেন খোকনের সহযোগী ছিলেন। আখতার হোসেন টাইগার খোকন নামে পরিচিত ছিলেন। তিন সহযোগীসহ ১৯৯৭ সালের ২৯ নভেম্বর দুর্বৃত্তদের গুলিতে নিহত হন আখতার হোসেন খোকন। ওই সময় দৌলতপুর স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি ছিলেন আখতার আর সাধারণ সম্পাদক ছিলেন ইকবাল সারওয়ার।

Comments

Comments!

 খুলনায় ‘ইসলামী আন্দোলনের’ নেতাকে গুলি করে হত্যাAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

খুলনায় ‘ইসলামী আন্দোলনের’ নেতাকে গুলি করে হত্যা

Saturday, June 3, 2017 9:26 am
photo-1496422906

খুলনার দৌলতপুরে দুর্বৃত্তদের গুলিতে ‘ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের’ নেতা নিহত হয়েছেন। আজ শুক্রবার রাত ৮টার দিকে আঞ্জুমান রোডের মসজিদের পাশে ওই ঘটনা ঘটে।

নিহত ব্যক্তির নাম শেখ ইকবাল সারওয়ার (৪৫)। তিনি ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের সভাপতি ছিলেন বলে জানা গেছে। তিনি সাইকেলের যন্ত্রাংশের ব্যবসা করতেন।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্র জানা যায়, মাগরিবের নামাজ শেষে মসজিদের পাশে রাস্তায় কয়েকজন পাট ব্যবসায়ীর সঙ্গে আলাপ করছিলেন ইকবাল সারওয়ার। এই সময় তাঁর ফোন বেজে উঠলে তিনি একটু দূরে সরে গিয়ে কথা বলেন। তখনই দুর্বৃত্তরা ইকবালের বুকে তিনটি গুলি করে। ঘটনাস্থল থেকে মুমূর্ষু অবস্থায় ইকবালকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন।

ইকবালের দুই মেয়ে ও এক ছেলে রয়েছে। তাঁর মেয়ের জামাতা কিছুদিন আগে সৌদি আরবে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন।

ঘটনার পরপরই খুলনা মহানগর পুলিশের উপকমিশনার জাহাঙ্গীর হোসেনসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

দৌলতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন জানান, নিহত ইকবাল একসময় আখতার হোসেন খোকনের সহযোগী ছিলেন। আখতার হোসেন টাইগার খোকন নামে পরিচিত ছিলেন। তিন সহযোগীসহ ১৯৯৭ সালের ২৯ নভেম্বর দুর্বৃত্তদের গুলিতে নিহত হন আখতার হোসেন খোকন। ওই সময় দৌলতপুর স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি ছিলেন আখতার আর সাধারণ সম্পাদক ছিলেন ইকবাল সারওয়ার।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X