রবিবার, ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১৩ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৯:৪৩
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Wednesday, July 19, 2017 12:17 am
A- A A+ Print

চিকুনগুনিয়ায় অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-ওষুধ নয়

চিকুনগুনিয়ায় জন্য অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা এবং ওষুধ না দিতে চিকিৎসকদের প্রতি পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা। একই সঙ্গে তারা চিকুনগুনিয়া জ্বরে আতঙ্কিত না হয়ে এ বিষয়ে সচেতনতার উপর গুরুত্বারোপ করেছেন। মঙ্গলবার শহীদ ডা. শামসুল আলম খান মিলন সভাকক্ষে বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন আয়োজিত সেমিনারে তারা এসব কথা বলেন। এডিস মশার বংশ বিস্তারের কারণে নগরীতে এডিস মশাবাহিত চিকুনগুনিয়া রোগের প্রকোপ বৃদ্ধি পাওয়ায় এডিস মশাবাহিত চিকুনগুনিয়া ভাইরাস সংক্রমণ জ্বর নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধের লক্ষ্যে বিএমএ এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক প্রধান অতিথির বক্তব্যে চিকুনগুনিয়া জ্বরের বিষয়কে‘ ছোট ইস্যু’ হিসেবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, এতে কেউ মারা যায়নি। এখনও মুত্যৃর খবর জানা যায়নি। অথচ ঢাকার মানুষের মুখে মুখে শোনা যাচ্ছে চিকুনগুনিয়া। এই রোগটি প্রাণঘাতি নয়। প্রতিমন্ত্রী মিডিয়ার সমালোচনা করে বলেন, সড়ক দুর্ঘটনায়, বায়ু দুষণে, অসংক্রামক রোগে বহু লোক মারা যাচ্ছে। সেই বিষয়ে এত আলোচনা হচ্ছে না। এ বিষয়ে এগিয়ে আসতে হবে। সচেতন করতে হবে। স্বাস্থ্য সেবার মান উন্নয়ন করার কথা দাবি করে তিনি বলেন, ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ করেছি। তিনি বলেন, চিকুনগুনিয়ার টেস্ট একমাত্র রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইসস্টিটিউট (আইইডিসিআর) হয়। অন্য কোথাও নয়। মেডিসিন বিশেষজ্ঞ, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন অনুষদের ডিন অধ্যাপক ডা. এ বি এম আব্দুল্লাহ সেমিনারে চিকুনগুনিয়া জ্বরের জন্য অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা না দেয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। তিনি বলেন, জ্বর হলে খাওয়াতে হবে প্যারাসিটামল জাতীয় ওষুধ। কিন্তু অন্য ওষুধে খেতে হলে চিকিৎসকের পরামর্শ  নিতে হবে। চিকুনগুনিয়ার ৮০ থেকে ৯০ ভাগ রোগী দু’সপ্তাহের মধ্যে ভালো হয়ে যান। ১০ ভাগ রোগী ব্যথায় ভোগেন। যাদের (৬০বছরের উপরে বয়স) ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, কিডনির সমস্যা আছে এবং গর্ভবতী মায়েদের ও এক বছরের শিশুদের ক্ষেত্রে একটু ঝুঁকি থেকে যায়। এক্ষেত্রে চিকিৎসকদের পরামর্শ নিতে হবে।  তিনি বলেন, বর্তমানে চিকুনগুনিয়া জ্বরকে প্রাদুর্ভাব বলতে পারেন, মহামারি নয়। এই জ্বরকে ল্যাংড়া জ্বরও বলতে পারেন। খ্যাতিমান রিউমাটোলজিস্ট বিএসএমএম’র রিউমাটোলজি বিভাগের অধ্যাপক ডা. সৈয়দ আতিকুল হক বলেন, চিকুনগুনিয়া জ্বরে খুব কম মৃত্যু হয়। হাজারে একজন। মারা যায় না, বলা ঠিক হবে না। তিনি বলেন, এই জ্বরের জন্য পাইকারি হারে হাসপাতালে ভর্তির প্রয়োজন নেই। চিকিৎসকদের প্রতি পরামর্শ দিয়ে এই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক বলেন, চিকুনগুনিয়া জ্বরের জন্য অ্যান্টিবায়োটিক, স্ট্রোয়েডস, আইভি ফ্লুয়েড দেব না। বিএমএ’র সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রো-ভিসি অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ, সংগঠনের মহাসচিব ডা. মো. ইহতেশামুল হক চৌধুরী, প্রাক্তন মুখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা আইইডিসিআর ডা. মোহাম্মদ মুশতাক হোসেন, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগ তত্ত্ব বিভাগের পরিচালক ডা. সানিয়া তাহমিনা ঝরা, বিএসএমএম’র মেডিসিন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ তানভীর ইসলাম, বিএসএমএম’র রিউমাটোলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. মো. আবু শাহীন প্রমুখ। সেমিনার সঞ্চালনা করেন সংগঠনের বিজ্ঞান বিষয়ক সম্পাদক ডা. শাহরিয়ার নবী শাকিল।

Comments

Comments!

 চিকুনগুনিয়ায় অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-ওষুধ নয়AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

চিকুনগুনিয়ায় অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-ওষুধ নয়

Wednesday, July 19, 2017 12:17 am

চিকুনগুনিয়ায় জন্য অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা এবং ওষুধ না দিতে চিকিৎসকদের প্রতি পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা। একই সঙ্গে তারা চিকুনগুনিয়া জ্বরে আতঙ্কিত না হয়ে এ বিষয়ে সচেতনতার উপর গুরুত্বারোপ করেছেন। মঙ্গলবার শহীদ ডা. শামসুল আলম খান মিলন সভাকক্ষে বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন আয়োজিত সেমিনারে তারা এসব কথা বলেন। এডিস মশার বংশ বিস্তারের কারণে নগরীতে এডিস মশাবাহিত চিকুনগুনিয়া রোগের প্রকোপ বৃদ্ধি পাওয়ায় এডিস মশাবাহিত চিকুনগুনিয়া ভাইরাস সংক্রমণ জ্বর নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধের লক্ষ্যে বিএমএ এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক প্রধান অতিথির বক্তব্যে চিকুনগুনিয়া জ্বরের বিষয়কে‘ ছোট ইস্যু’ হিসেবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, এতে কেউ মারা যায়নি। এখনও মুত্যৃর খবর জানা যায়নি। অথচ ঢাকার মানুষের মুখে মুখে শোনা যাচ্ছে চিকুনগুনিয়া। এই রোগটি প্রাণঘাতি নয়। প্রতিমন্ত্রী মিডিয়ার সমালোচনা করে বলেন, সড়ক দুর্ঘটনায়, বায়ু দুষণে, অসংক্রামক রোগে বহু লোক মারা যাচ্ছে। সেই বিষয়ে এত আলোচনা হচ্ছে না। এ বিষয়ে এগিয়ে আসতে হবে। সচেতন করতে হবে। স্বাস্থ্য সেবার মান উন্নয়ন করার কথা দাবি করে তিনি বলেন, ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ করেছি। তিনি বলেন, চিকুনগুনিয়ার টেস্ট একমাত্র রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইসস্টিটিউট (আইইডিসিআর) হয়। অন্য কোথাও নয়। মেডিসিন বিশেষজ্ঞ, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন অনুষদের ডিন অধ্যাপক ডা. এ বি এম আব্দুল্লাহ সেমিনারে চিকুনগুনিয়া জ্বরের জন্য অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা না দেয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। তিনি বলেন, জ্বর হলে খাওয়াতে হবে প্যারাসিটামল জাতীয় ওষুধ। কিন্তু অন্য ওষুধে খেতে হলে চিকিৎসকের পরামর্শ  নিতে হবে। চিকুনগুনিয়ার ৮০ থেকে ৯০ ভাগ রোগী দু’সপ্তাহের মধ্যে ভালো হয়ে যান। ১০ ভাগ রোগী ব্যথায় ভোগেন। যাদের (৬০বছরের উপরে বয়স) ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, কিডনির সমস্যা আছে এবং গর্ভবতী মায়েদের ও এক বছরের শিশুদের ক্ষেত্রে একটু ঝুঁকি থেকে যায়। এক্ষেত্রে চিকিৎসকদের পরামর্শ নিতে হবে।  তিনি বলেন, বর্তমানে চিকুনগুনিয়া জ্বরকে প্রাদুর্ভাব বলতে পারেন, মহামারি নয়। এই জ্বরকে ল্যাংড়া জ্বরও বলতে পারেন। খ্যাতিমান রিউমাটোলজিস্ট বিএসএমএম’র রিউমাটোলজি বিভাগের অধ্যাপক ডা. সৈয়দ আতিকুল হক বলেন, চিকুনগুনিয়া জ্বরে খুব কম মৃত্যু হয়। হাজারে একজন। মারা যায় না, বলা ঠিক হবে না। তিনি বলেন, এই জ্বরের জন্য পাইকারি হারে হাসপাতালে ভর্তির প্রয়োজন নেই। চিকিৎসকদের প্রতি পরামর্শ দিয়ে এই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক বলেন, চিকুনগুনিয়া জ্বরের জন্য অ্যান্টিবায়োটিক, স্ট্রোয়েডস, আইভি ফ্লুয়েড দেব না। বিএমএ’র সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রো-ভিসি অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ, সংগঠনের মহাসচিব ডা. মো. ইহতেশামুল হক চৌধুরী, প্রাক্তন মুখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা আইইডিসিআর ডা. মোহাম্মদ মুশতাক হোসেন, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগ তত্ত্ব বিভাগের পরিচালক ডা. সানিয়া তাহমিনা ঝরা, বিএসএমএম’র মেডিসিন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ তানভীর ইসলাম, বিএসএমএম’র রিউমাটোলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. মো. আবু শাহীন প্রমুখ। সেমিনার সঞ্চালনা করেন সংগঠনের বিজ্ঞান বিষয়ক সম্পাদক ডা. শাহরিয়ার নবী শাকিল।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X