মঙ্গলবার, ২০শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৮:০৮
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Wednesday, October 26, 2016 7:42 pm
A- A A+ Print

চুল যখন অবাধ্য

9e8adf3b6a48a662c55424520c3d4a10-11

পরিপাটি সাজপোশাক, কিন্তু তারপরও দেখতে ভালো লাগছে না। চুলের বেহাল আজ। শ্যাম্পু করার সুযোগ হয়নি। ফলে তেলতেলে হয়ে আছে অথবা উষ্কখুষ্ক। এতে পুরো সাজই শেষ। মনটাও খুঁতখুঁত করছে। সারা দিন থেকে থেকে মনটা খুঁতখুঁত করছে এই চুলের জন্য। রইল কিছু চটজলদি টিপস। সহজেই অবাধ্য চুলকে বাধ্য করতে পারবেন আপনার মনমতো স্টাইলে। ১. এ রকম দিনে চুল খোলা রাখবেন না। উল্টিয়ে খোঁপা করে রাখলেও চুলে তেলতেলে ভাব ফুটে ওঠে। ফ্রেঞ্চ বেণি করে রাখতে পারেন ক্যাজুয়াল লুকের জন্য। সারা দিন শেষে দাওয়াত থাকলে চুল খুলে ফেলুন। ঢেউখেলানো ভাব চলে আসবে। ২. মাথার সামনের দিকে ব্যান্ডানা পরে নিন অথবা স্কার্ফ বেঁধে নিন। অবশ্যই একটু স্টাইল করে বাঁধবেন। দেখে যেন মনে হয়, এটাই করতে চেয়েছিলেন আজকে। চাইলে হালকা ঝুঁটি বেঁধে রাখতে পারেন। ৩. চুল বেশি উষ্কখুষ্ক হয়ে থাকলে লিভ ইন কন্ডিশনার লাগিয়ে নিন। ৪. হেয়ার ড্রায়ারের ঠান্ডা বাতাস ব্যবহার করুন। গরম বাতাস ব্যবহার করে চুল সেট করতে চাইলে চুল আরও প্রাণহীন হয়ে পড়বে। ৫. হাতে একটু সময় থাকলে চুল ভিজিয়ে নিতে পারেন। আর্দ্রতা ফিরে আসবে চুলে। এরপর ব্লো ড্রায়ার দিয়ে চুল শুকিয়ে নিন। ৬. চুলে ফোলানো ভাব আনতে চাইলে সিঁথি পরিবর্তন করে দেখতে পারেন। এ ছাড়া মাথা নিচু করে চুল পুরো উল্টে আঁচড়ে নিন। এতে করেও খানিকটা ফোলানো ভাব চলে আসবে। ৭. চুলের তেলতেলে জায়গায় পাউডার ব্যবহার করতে পারেন। তবে ভালো করে চুল ঝেড়ে বা আঁচড়ে নিতে হবে। এতে করে তেল খানিকটা শুষে নেবে পাউডার। চুল বাঁধার পরে হেয়ার স্প্রে করে নিন। স্প্রেতে থাকা রাসায়নিক পদার্থ বাকি তেলটুকুও শুষে নেবে। ৮. বাজারে এখন নানা নকশার হ্যাট কিনতে পাওয়া যায়। পাশ্চাত্য পোশাক পরলে সঙ্গে মিলিয়ে হ্যাট পরে নিতে পারেন। ৯. মেসি বান করে ফেলতে পারেন। এলোমেলো খোঁপায় বরং আরও স্টাইলিশ লাগবে। ১০. নানা ধরনের হেয়ার ক্লিপ ব্যবহার করতে পারেন। চুল তেলতেলে ভাব বা উষ্কখুষ্ক যেটাই হোক না কেন সিঁথি পাল্টে সুন্দর করে ক্লিপ দিয়ে আটকে রাখুন। ১১. সময়-সুযোগ পেলে চুলের নিচের দিকটা হালকা কোঁকড়া করে নিন। ১২. ড্রাই শ্যাম্পু ব্যবহার করুন। সমস্যা কমে যাবে অনেকখানি। সূত্র: অল উইম্যানস টক, দ্য হেলথ সাইট, উইকি হাউ টু নো

Comments

Comments!

 চুল যখন অবাধ্যAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

চুল যখন অবাধ্য

Wednesday, October 26, 2016 7:42 pm
9e8adf3b6a48a662c55424520c3d4a10-11


পরিপাটি সাজপোশাক, কিন্তু তারপরও দেখতে ভালো লাগছে না। চুলের বেহাল আজ। শ্যাম্পু করার সুযোগ হয়নি। ফলে তেলতেলে হয়ে আছে অথবা উষ্কখুষ্ক। এতে পুরো সাজই শেষ। মনটাও খুঁতখুঁত করছে। সারা দিন থেকে থেকে মনটা খুঁতখুঁত করছে এই চুলের জন্য। রইল কিছু চটজলদি টিপস। সহজেই অবাধ্য চুলকে বাধ্য করতে পারবেন আপনার মনমতো স্টাইলে।

১. এ রকম দিনে চুল খোলা রাখবেন না। উল্টিয়ে খোঁপা করে রাখলেও চুলে তেলতেলে ভাব ফুটে ওঠে। ফ্রেঞ্চ বেণি করে রাখতে পারেন ক্যাজুয়াল লুকের জন্য। সারা দিন শেষে দাওয়াত থাকলে চুল খুলে ফেলুন। ঢেউখেলানো ভাব চলে আসবে।
২. মাথার সামনের দিকে ব্যান্ডানা পরে নিন অথবা স্কার্ফ বেঁধে নিন। অবশ্যই একটু স্টাইল করে বাঁধবেন। দেখে যেন মনে হয়, এটাই করতে চেয়েছিলেন আজকে। চাইলে হালকা ঝুঁটি বেঁধে রাখতে পারেন।
৩. চুল বেশি উষ্কখুষ্ক হয়ে থাকলে লিভ ইন কন্ডিশনার লাগিয়ে নিন।
৪. হেয়ার ড্রায়ারের ঠান্ডা বাতাস ব্যবহার করুন। গরম বাতাস ব্যবহার করে চুল সেট করতে চাইলে চুল আরও প্রাণহীন হয়ে পড়বে।
৫. হাতে একটু সময় থাকলে চুল ভিজিয়ে নিতে পারেন। আর্দ্রতা ফিরে আসবে চুলে। এরপর ব্লো ড্রায়ার দিয়ে চুল শুকিয়ে নিন।
৬. চুলে ফোলানো ভাব আনতে চাইলে সিঁথি পরিবর্তন করে দেখতে পারেন। এ ছাড়া মাথা নিচু করে চুল পুরো উল্টে আঁচড়ে নিন। এতে করেও খানিকটা ফোলানো ভাব চলে আসবে।
৭. চুলের তেলতেলে জায়গায় পাউডার ব্যবহার করতে পারেন। তবে ভালো করে চুল ঝেড়ে বা আঁচড়ে নিতে হবে। এতে করে তেল খানিকটা শুষে নেবে পাউডার। চুল বাঁধার পরে হেয়ার স্প্রে করে নিন। স্প্রেতে থাকা রাসায়নিক পদার্থ বাকি তেলটুকুও শুষে নেবে।
৮. বাজারে এখন নানা নকশার হ্যাট কিনতে পাওয়া যায়। পাশ্চাত্য পোশাক পরলে সঙ্গে মিলিয়ে হ্যাট পরে নিতে পারেন।
৯. মেসি বান করে ফেলতে পারেন। এলোমেলো খোঁপায় বরং আরও স্টাইলিশ লাগবে।
১০. নানা ধরনের হেয়ার ক্লিপ ব্যবহার করতে পারেন। চুল তেলতেলে ভাব বা উষ্কখুষ্ক যেটাই হোক না কেন সিঁথি পাল্টে সুন্দর করে ক্লিপ দিয়ে আটকে রাখুন।
১১. সময়-সুযোগ পেলে চুলের নিচের দিকটা হালকা কোঁকড়া করে নিন।
১২. ড্রাই শ্যাম্পু ব্যবহার করুন। সমস্যা কমে যাবে অনেকখানি।

সূত্র: অল উইম্যানস টক, দ্য হেলথ সাইট, উইকি হাউ টু নো

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X