শুক্রবার, ১৫ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং, ১লা পৌষ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ২:২২
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Friday, April 14, 2017 7:54 pm
A- A A+ Print

চেয়ারম্যান ও এমডির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া যাবে

a1df6d264d39fecd3f83191d91198701-58efcd63b00bd

আমানতকারী ও শেয়ারহোল্ডারদের স্বার্থে এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংকের চেয়ারম্যান ফরাছত আলী ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) দেওয়ান মুজিবর রহমানের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যবস্থা নিতে বাধা নেই।

প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বাধীন চার সদস্যের আপিল বিভাগ গত বুধবার হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে ব্যাংকটির সাবেক এক পরিচালকের করা আবেদন নিষ্পত্তি করে দিয়েছেন। একই সঙ্গে যে প্রতিবেদনের ভিত্তিতে ওই দুজনকে নোটিশ দেওয়া হয়েছিল তারঅনুলিপি ব্যাংকটির কাছে তিন দিনের মধ্যে পাঠাতে বাংলাদেশ ব্যাংককে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এর আগে গত ২০ মার্চ চেয়ারম্যান ও এমডিকে কারণ দর্শাতে পৃথক নোটিশ দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক। এর পরিপ্রেক্ষিতে ওই দুই ব্যক্তি হাইকোর্টে রিট আবেদন করেন। এর ওপর প্রাথমিক শুনানি নিয়ে ২৮ মার্চ হাইকোর্ট রুলসহ অন্তর্বর্তীকালীন আদেশ দেন। এর বিরুদ্ধে ব্যাংকটির উদ্যোক্তা ও সাবেক পরিচালক এ এম তুষার ইকবাল রহমান আপিল বিভাগে আবেদন (সিএমপি) করেন, যা বুধবার শুনানির জন্য ওঠে।

আদালতে চেয়ারম্যান ও এমডির পক্ষে শুনানিতে ছিলেন আইনজীবী রোকন উদ্দিন মাহমুদ ও এ এম আমিন উদ্দিন। সাবেক পরিচালকের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী শেখ ফজলে নূর তাপস ও  আইনজীবী মোহাম্মদ মেহেদী হাসান চৌধুরী।

পরে মেহেদী হাসান চৌধুরী প্রথম আলোকে বলেন, হাইকোর্টের রিট (রুল) খারিজ করে দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংক কারণ দর্শানোর জন্য যে নোটিশ দিয়েছিল, এটা বহাল রইল। ফলে ব্যাংকটির চেয়ারম্যান ও এমডির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের আর কোনো বাধা থাকল না।

গত ২০ মার্চ ব্যাংকটির চেয়ারম্যান ও এমডির কাছে পাঠানো পৃথক নোটিশে বাংলাদেশ ব্যাংক জানায়, আমানতকারীদের স্বার্থে ও জনস্বার্থে এনআরবি কমার্শিয়াল (এনআরবিসি) ব্যাংক চালাতে ব্যর্থ হয়েছে ফরাছত আলীর নেতৃত্বাধীন পরিচালনা পর্ষদ। আর ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) দেওয়ান মুজিবর রহমান ব্যর্থ হয়েছেন ব্যাংকটিতে যথাযথ ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করতে। এমনকি তাঁরা গুরুতর প্রতারণা ও জালিয়াতি করেছেন, যা ফৌজদারি আইন অনুযায়ী দণ্ডনীয়।

ব্যাংকের এমডিকে এসব কথা জানিয়ে ব্যাংক কোম্পানি আইনের ৪৬ ধারা অনুযায়ী কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক। ফরাছত আলীর বিরুদ্ধে কেন আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে না এবং দেওয়ান মুজিবর রহমানকে কেন অপসারণ করা হবে না, নোটিশে তা জানতে চাওয়া হয়। ১০ দিনের মধ্যে এর জবাব দিতে বলা হয়। ব্যাংকটির চেয়ারম্যান ও এমডি এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে রিট আবেদন দাখিল করেন। গত ২৮ মার্চ হাইকোর্ট এক আদেশে চেয়ারম্যান ও এমডির কাজে বিঘ্ন ঘটানো যাবে না বলে বাংলাদেশ ব্যাংককে নির্দেশ দেন। গত বুধবার প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে পূর্ণ বেঞ্চ এ রিট বাতিল করে দেন।

Comments

Comments!

 চেয়ারম্যান ও এমডির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া যাবেAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

চেয়ারম্যান ও এমডির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া যাবে

Friday, April 14, 2017 7:54 pm
a1df6d264d39fecd3f83191d91198701-58efcd63b00bd

আমানতকারী ও শেয়ারহোল্ডারদের স্বার্থে এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংকের চেয়ারম্যান ফরাছত আলী ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) দেওয়ান মুজিবর রহমানের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যবস্থা নিতে বাধা নেই।

প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বাধীন চার সদস্যের আপিল বিভাগ গত বুধবার হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে ব্যাংকটির সাবেক এক পরিচালকের করা আবেদন নিষ্পত্তি করে দিয়েছেন। একই সঙ্গে যে প্রতিবেদনের ভিত্তিতে ওই দুজনকে নোটিশ দেওয়া হয়েছিল তারঅনুলিপি ব্যাংকটির কাছে তিন দিনের মধ্যে পাঠাতে বাংলাদেশ ব্যাংককে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এর আগে গত ২০ মার্চ চেয়ারম্যান ও এমডিকে কারণ দর্শাতে পৃথক নোটিশ দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক। এর পরিপ্রেক্ষিতে ওই দুই ব্যক্তি হাইকোর্টে রিট আবেদন করেন। এর ওপর প্রাথমিক শুনানি নিয়ে ২৮ মার্চ হাইকোর্ট রুলসহ অন্তর্বর্তীকালীন আদেশ দেন। এর বিরুদ্ধে ব্যাংকটির উদ্যোক্তা ও সাবেক পরিচালক এ এম তুষার ইকবাল রহমান আপিল বিভাগে আবেদন (সিএমপি) করেন, যা বুধবার শুনানির জন্য ওঠে।

আদালতে চেয়ারম্যান ও এমডির পক্ষে শুনানিতে ছিলেন আইনজীবী রোকন উদ্দিন মাহমুদ ও এ এম আমিন উদ্দিন। সাবেক পরিচালকের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী শেখ ফজলে নূর তাপস ও  আইনজীবী মোহাম্মদ মেহেদী হাসান চৌধুরী।

পরে মেহেদী হাসান চৌধুরী প্রথম আলোকে বলেন, হাইকোর্টের রিট (রুল) খারিজ করে দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংক কারণ দর্শানোর জন্য যে নোটিশ দিয়েছিল, এটা বহাল রইল। ফলে ব্যাংকটির চেয়ারম্যান ও এমডির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের আর কোনো বাধা থাকল না।

গত ২০ মার্চ ব্যাংকটির চেয়ারম্যান ও এমডির কাছে পাঠানো পৃথক নোটিশে বাংলাদেশ ব্যাংক জানায়, আমানতকারীদের স্বার্থে ও জনস্বার্থে এনআরবি কমার্শিয়াল (এনআরবিসি) ব্যাংক চালাতে ব্যর্থ হয়েছে ফরাছত আলীর নেতৃত্বাধীন পরিচালনা পর্ষদ। আর ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) দেওয়ান মুজিবর রহমান ব্যর্থ হয়েছেন ব্যাংকটিতে যথাযথ ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করতে। এমনকি তাঁরা গুরুতর প্রতারণা ও জালিয়াতি করেছেন, যা ফৌজদারি আইন অনুযায়ী দণ্ডনীয়।

ব্যাংকের এমডিকে এসব কথা জানিয়ে ব্যাংক কোম্পানি আইনের ৪৬ ধারা অনুযায়ী কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক। ফরাছত আলীর বিরুদ্ধে কেন আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে না এবং দেওয়ান মুজিবর রহমানকে কেন অপসারণ করা হবে না, নোটিশে তা জানতে চাওয়া হয়। ১০ দিনের মধ্যে এর জবাব দিতে বলা হয়। ব্যাংকটির চেয়ারম্যান ও এমডি এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে রিট আবেদন দাখিল করেন। গত ২৮ মার্চ হাইকোর্ট এক আদেশে চেয়ারম্যান ও এমডির কাজে বিঘ্ন ঘটানো যাবে না বলে বাংলাদেশ ব্যাংককে নির্দেশ দেন। গত বুধবার প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে পূর্ণ বেঞ্চ এ রিট বাতিল করে দেন।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X