বৃহস্পতিবার, ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ভোর ৫:১৭
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Monday, January 16, 2017 9:19 pm
A- A A+ Print

ছাত্রের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক শিক্ষিকার ১০ বছরের জেল

33

মাত্র ১৩ বছর বয়সী এক ছাত্রের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক গড়ে তুলে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়া সেই শিক্ষিকা আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা (২৪)কে ১০ বছরের জেল দিয়েছে আদালত। এ ঘটনাটি যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসের। ওই শিক্ষিকার অনৈতিক সম্পর্ক নিয়ে এর আগেও মিডিয়ায় ব্যাপকভাবে লেখালেখি হয়েছে। অভিযোগ আছে, তিনি তার টিনেজ ওই ছাত্রের সঙ্গে দীর্ঘদিন যাবৎ শারীরিক সম্পর্ক স্থাপন করেছেন। তিনি  টেক্সাসের হিউজটনে অবস্থিত স্টোভাল মিডল স্কুলে শিক্ষকতা করার সময় ওই ছাত্রকে বেছে নেন। তার সঙ্গে দহরম মহরম সম্পর্ক গড়ে তোলেন। এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইন্সটাগ্রামের ইউজারনেম শেয়ার হয়। ঘনিষ্ঠতা আরো বাড়ে। আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা ওই শিক্ষার্থীর বাসায় যাওয়া-আসা শুরু করেন। ব্যস, শিকার হাতের নাগালে পেয়ে যান তিনি। শুরু করেন ন্যক্কারজনক এক অধ্যায়। এক পর্যায়ে তিনি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন। বিষয়টি জানাজানি হয়। শিশুর প্রতিরক্ষাবিষয়ক আইনে ফেঁসে যাবেন এমন ভয়ে গর্ভপাত করান ভেরা। এসব নিয়ে মামলা হয়। হ্যারিস কাউন্ট্রি ডিস্ট্রিক্ট আদালতে আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা বলেন, এক পর্যায়ে ওই ছাত্রের পিতা-মাতার সঙ্গে সাক্ষাৎ হয়ে যায় তার। তিনি নিজেকে এ সময় ওই ছাত্রের গার্লফ্রেন্ড হিসেবে পরিচয় দেন। ওই ছাত্রের পিতা-মাতা বিষয়টি কিভাবে নিয়েছিলেন তা জানা যায় নি। তবে জানা গেছে, ভেরার বাসভবনে রাত কাটিয়েছে ওই ছাত্র। মাঝে মধ্যেই ভেরার বাড়িতে যাতায়াত করতে থাকে সে। এমন আনুগত্য দেখে তাকে নিজেই গাড়ি চালিয়ে বাড়ি দিয়ে আসতেন ভেরা। এ মামলার শুনানি শেষে বিচারক মাইকেল ম্যাকস্প্যাডেন বলেছেন, আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা একজন ক্লাসিক যৌন নিপীড়ক নয়। সে অন্য শিশুদের জন্য বিপদের কারণ হয় নি। কিন্তু তা সত্ত্বেও তাকে শাস্তি ভোগ করতে হবে। অন্যদের জন্য এটা হবে উদাহরণ। তিনি আরো বলেন, শিক্ষিকারা আমাদের সন্তানদের শিক্ষিকা হয়েই থাকুন আমরা এমনটা চাই। তাদের হাত যেন শিক্ষার্থীদের দিকে অগ্রসর না হয়। উল্লেখ্য, আলেকজান্দ্রিয়া ভেরার ১০ বছরের জেল হলেও তিনি ৫ বছর পর প্যারোলে বেরিয়ে আসতে পারবেন।

Comments

Comments!

 ছাত্রের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক শিক্ষিকার ১০ বছরের জেলAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

ছাত্রের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক শিক্ষিকার ১০ বছরের জেল

Monday, January 16, 2017 9:19 pm
33

মাত্র ১৩ বছর বয়সী এক ছাত্রের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক গড়ে তুলে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়া সেই শিক্ষিকা আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা (২৪)কে ১০ বছরের জেল দিয়েছে আদালত। এ ঘটনাটি যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসের। ওই শিক্ষিকার অনৈতিক সম্পর্ক নিয়ে এর আগেও মিডিয়ায় ব্যাপকভাবে লেখালেখি হয়েছে। অভিযোগ আছে, তিনি তার টিনেজ ওই ছাত্রের সঙ্গে দীর্ঘদিন যাবৎ শারীরিক সম্পর্ক স্থাপন করেছেন। তিনি  টেক্সাসের হিউজটনে অবস্থিত স্টোভাল মিডল স্কুলে শিক্ষকতা করার সময় ওই ছাত্রকে বেছে নেন। তার সঙ্গে দহরম মহরম সম্পর্ক গড়ে তোলেন। এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইন্সটাগ্রামের ইউজারনেম শেয়ার হয়। ঘনিষ্ঠতা আরো বাড়ে। আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা ওই শিক্ষার্থীর বাসায় যাওয়া-আসা শুরু করেন। ব্যস, শিকার হাতের নাগালে পেয়ে যান তিনি। শুরু করেন ন্যক্কারজনক এক অধ্যায়। এক পর্যায়ে তিনি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন। বিষয়টি জানাজানি হয়। শিশুর প্রতিরক্ষাবিষয়ক আইনে ফেঁসে যাবেন এমন ভয়ে গর্ভপাত করান ভেরা। এসব নিয়ে মামলা হয়। হ্যারিস কাউন্ট্রি ডিস্ট্রিক্ট আদালতে আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা বলেন, এক পর্যায়ে ওই ছাত্রের পিতা-মাতার সঙ্গে সাক্ষাৎ হয়ে যায় তার। তিনি নিজেকে এ সময় ওই ছাত্রের গার্লফ্রেন্ড হিসেবে পরিচয় দেন। ওই ছাত্রের পিতা-মাতা বিষয়টি কিভাবে নিয়েছিলেন তা জানা যায় নি। তবে জানা গেছে, ভেরার বাসভবনে রাত কাটিয়েছে ওই ছাত্র। মাঝে মধ্যেই ভেরার বাড়িতে যাতায়াত করতে থাকে সে। এমন আনুগত্য দেখে তাকে নিজেই গাড়ি চালিয়ে বাড়ি দিয়ে আসতেন ভেরা। এ মামলার শুনানি শেষে বিচারক মাইকেল ম্যাকস্প্যাডেন বলেছেন, আলেকজান্দ্রিয়া ভেরা একজন ক্লাসিক যৌন নিপীড়ক নয়। সে অন্য শিশুদের জন্য বিপদের কারণ হয় নি। কিন্তু তা সত্ত্বেও তাকে শাস্তি ভোগ করতে হবে। অন্যদের জন্য এটা হবে উদাহরণ। তিনি আরো বলেন, শিক্ষিকারা আমাদের সন্তানদের শিক্ষিকা হয়েই থাকুন আমরা এমনটা চাই। তাদের হাত যেন শিক্ষার্থীদের দিকে অগ্রসর না হয়। উল্লেখ্য, আলেকজান্দ্রিয়া ভেরার ১০ বছরের জেল হলেও তিনি ৫ বছর পর প্যারোলে বেরিয়ে আসতে পারবেন।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X