রবিবার, ১৮ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৬ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ভোর ৫:১০
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Monday, December 5, 2016 9:45 pm
A- A A+ Print

জেলা পরিষদ নির্বাচন : এক-চতুর্থাংশ চেয়ারম্যান বিনাভোটে

election1480832402

আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে এক-চতুর্থাংশ জেলায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থীরা বিনা ভোটে চেয়ারম্যান হতে যাচ্ছেন। ৬১টি জেলা পরিষদের মধ্যে এখন পর্যন্ত ১৫টিতে আওয়ামী লীগের প্রার্থীর কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী নেই। সর্বশেষ আজ রোববার চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ নির্বাচনের চেয়ারম্যান পদের লড়াই থেকে মাঠ ছেড়ে দাঁড়িয়েছেন বাংলাদেশ ন্যাশনাল ফ্রন্টের (বিএনএফ) চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী নারায়ণ রক্ষিত। ফলে সেখানে চেয়ারম্যান পদে এখন একমাত্র আওয়ামী লীগ সমর্থিত এম এ সালাম বৈধ প্রার্থী হিসেবে টিকে আছেন। চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক ও জেলা পরিষদ নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. সামছুল আরেফিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। আগামী ২৮ ডিসেম্বরের এ নির্বাচনে সাধারণ জনগণের ভোটাধিকার নেই, শুধু স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিরাই ভোট দিতে পারবেন। এর আগে ১‌ ডিসেম্বর মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষ দিন ১২ জেলা পরিষদে চেয়ারম্যান পদে একজন করে প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দেন। এ জেলাগুলো হচ্ছে- গাজীপুর, মুন্সীগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, নাটোর, সিরাজগঞ্জ, ঠাকুরগাঁও, জয়পুরহাট, নেত্রকোনা, যশোর, বাগেরহাট, ঝালকাঠি ও ভোলা। আর গত ৩ ডিসেম্বর যাচাই-বাছাইয়ের সময়ে তিন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হলে হবিগঞ্জ জেলা পরিষদে শুধু আওয়ামী লীগ প্রার্থী একাই বৈধ প্রার্থী হিসেবে থাকেন। একই দিন বরগুনার জেলা পরিষদেও এক চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল করা হয়। ফলে সেখানে একমাত্র আওয়ামী লীগ প্রার্থীই এখন বিজয়ের ঘোষণা পাওয়ার অপেক্ষায় আছেন। আজ সর্বশেষ বিনা ভোটে চেয়ারম্যানের তালিকায় যুক্ত হলো চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ। আগামী ২৮ ডিসেম্বর পার্বত্য তিন জেলা (রাঙামাটি, খাগড়াছড়ি ও বান্দরবান) বাদ দিয়ে সারা দেশে ৬১ জেলা পরিষদে চেয়ারম্যান, সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ভোট হবে। আগামী ১১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করা যাবে। বিএনপি ও জাতীয় পার্টি ঘোষণা দিয়ে এ নির্বাচন বর্জন করেছে। বর্তমানে জেলা পরিষদগুলোর দায়িত্বে আছেন একজন করে প্রশাসক। নতুন আইন অনুযায়ী, একজন চেয়ারম্যান, ১৫টি ওয়ার্ডে ১৫ জন সদস্য এবং পাঁচটি সংরক্ষিত মহিলা আসনে পাঁচজন সদস্য নিয়ে জেলা পরিষদ গঠন করা হবে।

Comments

Comments!

 জেলা পরিষদ নির্বাচন : এক-চতুর্থাংশ চেয়ারম্যান বিনাভোটেAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

জেলা পরিষদ নির্বাচন : এক-চতুর্থাংশ চেয়ারম্যান বিনাভোটে

Monday, December 5, 2016 9:45 pm
election1480832402

আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে এক-চতুর্থাংশ জেলায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থীরা বিনা ভোটে চেয়ারম্যান হতে যাচ্ছেন। ৬১টি জেলা পরিষদের মধ্যে এখন পর্যন্ত ১৫টিতে আওয়ামী লীগের প্রার্থীর কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী নেই।

সর্বশেষ আজ রোববার চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ নির্বাচনের চেয়ারম্যান পদের লড়াই থেকে মাঠ ছেড়ে দাঁড়িয়েছেন বাংলাদেশ ন্যাশনাল ফ্রন্টের (বিএনএফ) চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী নারায়ণ রক্ষিত। ফলে সেখানে চেয়ারম্যান পদে এখন একমাত্র আওয়ামী লীগ সমর্থিত এম এ সালাম বৈধ প্রার্থী হিসেবে টিকে আছেন। চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক ও জেলা পরিষদ নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. সামছুল আরেফিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আগামী ২৮ ডিসেম্বরের এ নির্বাচনে সাধারণ জনগণের ভোটাধিকার নেই, শুধু স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিরাই ভোট দিতে পারবেন।

এর আগে ১‌ ডিসেম্বর মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষ দিন ১২ জেলা পরিষদে চেয়ারম্যান পদে একজন করে প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দেন। এ জেলাগুলো হচ্ছে- গাজীপুর, মুন্সীগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, নাটোর, সিরাজগঞ্জ, ঠাকুরগাঁও, জয়পুরহাট, নেত্রকোনা, যশোর, বাগেরহাট, ঝালকাঠি ও ভোলা।

আর গত ৩ ডিসেম্বর যাচাই-বাছাইয়ের সময়ে তিন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হলে হবিগঞ্জ জেলা পরিষদে শুধু আওয়ামী লীগ প্রার্থী একাই বৈধ প্রার্থী হিসেবে থাকেন। একই দিন বরগুনার জেলা পরিষদেও এক চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল করা হয়। ফলে সেখানে একমাত্র আওয়ামী লীগ প্রার্থীই এখন বিজয়ের ঘোষণা পাওয়ার অপেক্ষায় আছেন। আজ সর্বশেষ বিনা ভোটে চেয়ারম্যানের তালিকায় যুক্ত হলো চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ।

আগামী ২৮ ডিসেম্বর পার্বত্য তিন জেলা (রাঙামাটি, খাগড়াছড়ি ও বান্দরবান) বাদ দিয়ে সারা দেশে ৬১ জেলা পরিষদে চেয়ারম্যান, সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ভোট হবে। আগামী ১১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করা যাবে। বিএনপি ও জাতীয় পার্টি ঘোষণা দিয়ে এ নির্বাচন বর্জন করেছে।

বর্তমানে জেলা পরিষদগুলোর দায়িত্বে আছেন একজন করে প্রশাসক। নতুন আইন অনুযায়ী, একজন চেয়ারম্যান, ১৫টি ওয়ার্ডে ১৫ জন সদস্য এবং পাঁচটি সংরক্ষিত মহিলা আসনে পাঁচজন সদস্য নিয়ে জেলা পরিষদ গঠন করা হবে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X