রবিবার, ১৮ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৬ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ১২:৪৬
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Thursday, December 29, 2016 8:02 pm
A- A A+ Print

টাকা অবমূল্যায়নের প্রস্তাব নাকচ অর্থমন্ত্রীর

mal1483014672

তৈরি পোশাকশিল্প মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ গার্মেন্টস ম্যানুফ্যাচারার্স অ্যান্ড এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিজিএমইএ) এর দেওয়া টাকার অবমূল্যায়নের প্রস্তাব নাকচ করে দিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সঙ্গে বিজিএমইএ সভাপতি সিদ্দিকুর রহমানের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল দেখা করে এ প্রস্তাব দিয়েছিল। বৈঠকে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুন, বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর আবু হেনা রাজি উপস্থিত ছিলেন বলে বৈঠক সূত্রে জানা গেছে। সূত্র জানায়, ডলারের সঙ্গে টাকার অবমূল্যায়ন করা হলে রপ্তানি আয় অনেক বেড়ে যাবে। এ যুক্তি দেখিয়ে বিজিএমইএ নেতারা টাকার অবমূল্যায়নের দাবি জানান। এ সময় অর্থমন্ত্রী বলেন, কোনো অবস্থায় এখন টাকার অবমূল্যায়ন করা সম্ভব নয়। বৈঠকে বিজিএমইএ নেতারা তৈরি পোশাকশিল্পে সরকার প্রদত্ব নগদ সহায়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট কোম্পানির অডিট ব্যবস্থা থেকে নিষ্কৃতি দেওয়ার দাবি জানান। বৈঠকে বিজিএমইএ সভাপতি তৈরি পোশাকশিল্পে বিদ্যমান অবস্থা তুলে ধরেন। এ সময় তিনি তৈরি পোশাকশিল্প খাতের ছোট ছোট কিছু প্রতিষ্ঠানের নগদ সহায়তার ১০ কোটি টাকা আটকে থাকার কথা তুলে ধরেন। এ ছাড়া তারা নগদ সহায়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে বিদ্যমান নীতিমালায় দুটি শব্দ প্রতিস্থাপনের দাবি জানান। এর মধ্যে স্বীয় প্রতিষ্ঠানের পরিবর্তে দেশীয় প্রতিষ্ঠান এবং বস্ত্র মূল্যের পরিবর্তে এফওবি মূল্য প্রতিস্থাপনের দাবি জানান। জানা গেছে. নগদ সহায়তার ক্ষেত্রে এ দুটি শব্দের কারণে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানগুলো কম সহায়তা পাচ্ছে। শব্দ দুটি প্রতিস্থাপন হলে নগদ সহায়তার পরিমাণ প্রায় এক শতাংশ বেড়ে যাবে। এ ছাড়া অডিট ব্যবস্থার কারণে নগদ সহায়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে নানা জটিলতা দেখা দেয় বলে অভিযোগ করেছে বিজিএমইএ। সূত্র জানায়, অর্থমন্ত্রী তাদের দাবিগুলো শোনেন। তিনি নগদ সহায়তার নীতিমালা পরিবর্তনের বিষয়ে কোনো মন্তব্য না করলেও নগদ সহায়তার বকেয়া অর্থ পরিশোধের বিষয়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়ার আশ্বাস দেন। চলতি অর্থবছরের বাজেটে রপ্তানি আয়ের ওপর বিভিন্ন খাতে নগদ সহায়তা দেওয়ার জন্য জন্য প্রায় সাড়ে চার হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ রয়েছে।  

Comments

Comments!

 টাকা অবমূল্যায়নের প্রস্তাব নাকচ অর্থমন্ত্রীরAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

টাকা অবমূল্যায়নের প্রস্তাব নাকচ অর্থমন্ত্রীর

Thursday, December 29, 2016 8:02 pm
mal1483014672

তৈরি পোশাকশিল্প মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ গার্মেন্টস ম্যানুফ্যাচারার্স অ্যান্ড এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিজিএমইএ) এর দেওয়া টাকার অবমূল্যায়নের প্রস্তাব নাকচ করে দিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সঙ্গে বিজিএমইএ সভাপতি সিদ্দিকুর রহমানের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল দেখা করে এ প্রস্তাব দিয়েছিল। বৈঠকে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুন, বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর আবু হেনা রাজি উপস্থিত ছিলেন বলে বৈঠক সূত্রে জানা গেছে।

সূত্র জানায়, ডলারের সঙ্গে টাকার অবমূল্যায়ন করা হলে রপ্তানি আয় অনেক বেড়ে যাবে। এ যুক্তি দেখিয়ে বিজিএমইএ নেতারা টাকার অবমূল্যায়নের দাবি জানান। এ সময় অর্থমন্ত্রী বলেন, কোনো অবস্থায় এখন টাকার অবমূল্যায়ন করা সম্ভব নয়।

বৈঠকে বিজিএমইএ নেতারা তৈরি পোশাকশিল্পে সরকার প্রদত্ব নগদ সহায়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট কোম্পানির অডিট ব্যবস্থা থেকে নিষ্কৃতি দেওয়ার দাবি জানান।

বৈঠকে বিজিএমইএ সভাপতি তৈরি পোশাকশিল্পে বিদ্যমান অবস্থা তুলে ধরেন। এ সময় তিনি তৈরি পোশাকশিল্প খাতের ছোট ছোট কিছু প্রতিষ্ঠানের নগদ সহায়তার ১০ কোটি টাকা আটকে থাকার কথা তুলে ধরেন। এ ছাড়া তারা নগদ সহায়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে বিদ্যমান নীতিমালায় দুটি শব্দ প্রতিস্থাপনের দাবি জানান। এর মধ্যে স্বীয় প্রতিষ্ঠানের পরিবর্তে দেশীয় প্রতিষ্ঠান এবং বস্ত্র মূল্যের পরিবর্তে এফওবি মূল্য প্রতিস্থাপনের দাবি জানান।

জানা গেছে. নগদ সহায়তার ক্ষেত্রে এ দুটি শব্দের কারণে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানগুলো কম সহায়তা পাচ্ছে। শব্দ দুটি প্রতিস্থাপন হলে নগদ সহায়তার পরিমাণ প্রায় এক শতাংশ বেড়ে যাবে। এ ছাড়া অডিট ব্যবস্থার কারণে নগদ সহায়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে নানা জটিলতা দেখা দেয় বলে অভিযোগ করেছে বিজিএমইএ।

সূত্র জানায়, অর্থমন্ত্রী তাদের দাবিগুলো শোনেন। তিনি নগদ সহায়তার নীতিমালা পরিবর্তনের বিষয়ে কোনো মন্তব্য না করলেও নগদ সহায়তার বকেয়া অর্থ পরিশোধের বিষয়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়ার আশ্বাস দেন।

চলতি অর্থবছরের বাজেটে রপ্তানি আয়ের ওপর বিভিন্ন খাতে নগদ সহায়তা দেওয়ার জন্য জন্য প্রায় সাড়ে চার হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ রয়েছে।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X