সোমবার, ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৮:১২
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Friday, November 11, 2016 11:25 pm
A- A A+ Print

ঢাকাকে হারিয়ে রাজশাহীর প্রথম জয়

160847_1

নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে ঢাকা ডায়নামাইটসকে হারিয়ে প্রথম জয়ের দেখা পেল রাজশাহী কিংস। সাকিবের ঢাকা ডায়নামাইটসকে ৬ উইকেটে হারিয়েছে রাজশাহী। মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে টস জিতে আগে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন রাজশাহী দলপতি স্যামি। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৩৮ রান সংগ্রহ করে ঢাকা। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫৯ রান করেন মোসাদ্দেক। ব্যাট করতে নেমে দলীয় ১৩ রানে মিরাজের বলে সরাসরি বোল্ড হন সাঙ্গাকারা। তিনি মাত্র ২ রান করেন। এরপর মাহেলা জয়াবর্ধনের সঙ্গে ৩০ রানের জুটি গড়েন মেহেদী মারুফ। তবে সামত প্যাটেলের এক ওভারেই খেলার মোড় ঘুরে যায়। প্যাটেল এক ওভারেই মারুফ ও জয়াবর্ধনেকে ফিরিয়ে দেন প্যাটেল। মারুফ ২৫ এবং মাহেলা ১১ রান করেন। পরের ওভারেই সাকিবকে স্ট্যাম্পিং করে নিজের দ্বিতীয় উইকেট তুলে নেন মিরাজ। সাকিব কোনো রান করতে পারেননি। সাকিব ফিরে গেলে দলের হাল ধরেন রবি বোপারা এবং মোসাদ্দেক। তাদের জুটিতে আসে ৫৪ রান। এরপর বোপারাকে ব্যক্তিগত ২০ রানে সাজঘরে পাঠান আবুল হাসান রাজু। তবে মোসাদ্দেকের অপরাজিত ৫৯ এবং ব্রাভোর ১৩ রানের সুবাদে ১৩৮ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর দাঁড় করায় ঢাকা। ১৩৯ রানের টার্গেটে রাজশাহীর হয়ে ব্যাটিং শুরু করেন রনি তালুকদার এবং মুমিনুল হক। ইনিংসের তৃতীয় ওভারে রান আউট হন মুমিনুল। ১০ বলে ৯ রান করেন তিনি। দলীয় ২৭ রানে প্রথম উইকেটের পতন ঘটে রাজশাহীর। পরের ওভারেই ফেরেন আরেক ওপেনার রনি তালুকদার। সাকিবের করা ইনিংসের দ্বিতীয় বলেই স্ট্যাম্পিংয়ের ফাঁদে পড়েন ১৪ রান করা রনি। এরপর জুটি গড়েন সাব্বির-আকমল। কিন্তু, ৩৮ রানের জুটি ভাঙে ইনিংসের দশম ওভারে। আকমল ব্যক্তিগত ২৭ রানে আবু জায়েদের বলে সাকিবের হাতে ধরা পড়েন। দলীয় ৬৩ রানে তৃতীয় উইকেটের পতন হলেও সাব্বির-সামিত প্যাটেল দলকে জয়ের দিকে টানতে থাকেন। এই জুটি থেকে স্কোরবোর্ডে আরো ৭৩ রান যোগ হয়। সাব্বির ৩৯ বলে ৩১ রান করে বিদায় নেন। আর সামিত প্যাটেল ২৫ বলে ৬টি চার আর একটি ছক্কায় ৪৪ রান করে অপরাজিত থাকেন।

Comments

Comments!

 ঢাকাকে হারিয়ে রাজশাহীর প্রথম জয়AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

ঢাকাকে হারিয়ে রাজশাহীর প্রথম জয়

Friday, November 11, 2016 11:25 pm
160847_1

নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে ঢাকা ডায়নামাইটসকে হারিয়ে প্রথম জয়ের দেখা পেল রাজশাহী কিংস। সাকিবের ঢাকা ডায়নামাইটসকে ৬ উইকেটে হারিয়েছে রাজশাহী।

মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে টস জিতে আগে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন রাজশাহী দলপতি স্যামি।

প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৩৮ রান সংগ্রহ করে ঢাকা। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫৯ রান করেন মোসাদ্দেক।

ব্যাট করতে নেমে দলীয় ১৩ রানে মিরাজের বলে সরাসরি বোল্ড হন সাঙ্গাকারা। তিনি মাত্র ২ রান করেন। এরপর মাহেলা জয়াবর্ধনের সঙ্গে ৩০ রানের জুটি গড়েন মেহেদী মারুফ। তবে সামত প্যাটেলের এক ওভারেই খেলার মোড় ঘুরে যায়। প্যাটেল এক ওভারেই মারুফ ও জয়াবর্ধনেকে ফিরিয়ে দেন প্যাটেল। মারুফ ২৫ এবং মাহেলা ১১ রান করেন।

পরের ওভারেই সাকিবকে স্ট্যাম্পিং করে নিজের দ্বিতীয় উইকেট তুলে নেন মিরাজ। সাকিব কোনো রান করতে পারেননি। সাকিব ফিরে গেলে দলের হাল ধরেন রবি বোপারা এবং মোসাদ্দেক। তাদের জুটিতে আসে ৫৪ রান। এরপর বোপারাকে ব্যক্তিগত ২০ রানে সাজঘরে পাঠান আবুল হাসান রাজু।

তবে মোসাদ্দেকের অপরাজিত ৫৯ এবং ব্রাভোর ১৩ রানের সুবাদে ১৩৮ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর দাঁড় করায় ঢাকা।

১৩৯ রানের টার্গেটে রাজশাহীর হয়ে ব্যাটিং শুরু করেন রনি তালুকদার এবং মুমিনুল হক। ইনিংসের তৃতীয় ওভারে রান আউট হন মুমিনুল। ১০ বলে ৯ রান করেন তিনি। দলীয় ২৭ রানে প্রথম উইকেটের পতন ঘটে রাজশাহীর। পরের ওভারেই ফেরেন আরেক ওপেনার রনি তালুকদার। সাকিবের করা ইনিংসের দ্বিতীয় বলেই স্ট্যাম্পিংয়ের ফাঁদে পড়েন ১৪ রান করা রনি।

এরপর জুটি গড়েন সাব্বির-আকমল। কিন্তু, ৩৮ রানের জুটি ভাঙে ইনিংসের দশম ওভারে। আকমল ব্যক্তিগত ২৭ রানে আবু জায়েদের বলে সাকিবের হাতে ধরা পড়েন। দলীয় ৬৩ রানে তৃতীয় উইকেটের পতন হলেও সাব্বির-সামিত প্যাটেল দলকে জয়ের দিকে টানতে থাকেন। এই জুটি থেকে স্কোরবোর্ডে আরো ৭৩ রান যোগ হয়। সাব্বির ৩৯ বলে ৩১ রান করে বিদায় নেন। আর সামিত প্যাটেল ২৫ বলে ৬টি চার আর একটি ছক্কায় ৪৪ রান করে অপরাজিত থাকেন।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X