সোমবার, ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১২:২৩
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, January 22, 2017 4:46 pm
A- A A+ Print

ত্রিশ বছর পর ‘সংবর্ধিত’ চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া

22

১৯৮৭ সালের ৮ নভেম্বর। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটে সবচেয়ে বড় দিন। এদিন প্রথমবারের মত বিশ্বকাপ জিতেছিল অস্ট্রেলিয়া। ভারত ও পাকিস্তানের যৌথ আয়োজনে তৃতীয় বিশ্বকাপের ট্রফি জিতে অ্যালন বর্ডারের অস্ট্রেলিয়া। এরপর স্বপ্নের সেই বিশ্বকাপের ট্রফি আরও চারবার ঘরে তুলে অসিরা। ত্রিশ বছর পর আইসিসি অস্ট্রেলিয়ার প্রথম বিশ্বকাপ জয়ী দলটিকে ‘সংবর্ধনা’ দিচ্ছে। একে পূর্ণ ‘সংবর্ধনা’ও বলা যাবে না। সেবার ইডেন গার্ডেনসে ইংল্যান্ডকে ৭ রানে হারানোর পর অ্যালন বর্ডার ও তার দলের হাতে শুধুমাত্র ট্রফি তুলে দেওয়া হয়। ক্রিকেটারদের আলাদা করে দেওয়া হয়নি কোনো পদক কিংবা স্মারক পুরস্কার। আজ (রোববার) সেই স্মারক পুরস্কার পেয়েছেন অসি প্রাক্তন ক্রিকেটাররা। রোববার সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার চতুর্থ ওয়ানডেতে ইনিংস বিরতির সময় জমকালো অনুষ্ঠানে অসি ক্রিকেটারদের পদক তুলে দেওয়া হয়। বিশ্বকাপ জয়ী বর্ডার বাহিনীর ১৭ সদস্য ছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দলটির কোচ বব স্পিসন, ম্যানেজার অ্যালন ক্রম্পটন ও ফিজিও অ্যারল এলকট। তাদের পুরস্কার তুলে দেন আইসিসির ডিরেক্টর ডেভিড পিভার, ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) প্রধান নির্বাহী জেমস সাদারল্যান্ড ও নির্বাহী মহাব্যবস্থাপক প্যাটহাওয়ার্ড। অ্যালন বর্ডার বলেন,‘আমি খুবই গর্বিত। ১৯৮৭ সালের খেলোয়াড় ও সহযোগীদের এভাবে সংবর্ধিত করার জন্য। সবার সঙ্গে এতদিন পর দেখা হয়ে ভালো লাগছে। পুরনো দিনগুলোকে আবারও মনে পড়ছে। আমরা হাসছি, আনন্দ করছি পাশাপাশি গর্ব হচ্ছে যে আমরা অস্ট্রেলিয়ার হয়ে কত বড় অর্জন করেছিলাম। সে সময়ে ব্যক্তিগত পদকের কোনো চিন্তা ছিল না। আজ আমরা সেই পদক পেলাম। আমি আইসিসি ও ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’ গত বছরের জুনে আইসিসির বার্ষিক সভায় প্রধান নির্বাহী কমিটির বৈঠকে অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন বিশ্বকাপজয়ী ক্রিকেটারদের পদক দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।  শুধু অস্ট্রেলিয়া না বিশ্বকাপ জয়ী দলের ক্রিকেটাররা যারা এখনও ব্যক্তিগত কোনো পদক পাননি তাদেরকেও পদক দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আইসিসি।

Comments

Comments!

 ত্রিশ বছর পর ‘সংবর্ধিত’ চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়াAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

ত্রিশ বছর পর ‘সংবর্ধিত’ চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া

Sunday, January 22, 2017 4:46 pm
22

১৯৮৭ সালের ৮ নভেম্বর। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটে সবচেয়ে বড় দিন। এদিন প্রথমবারের মত বিশ্বকাপ জিতেছিল অস্ট্রেলিয়া।

ভারত ও পাকিস্তানের যৌথ আয়োজনে তৃতীয় বিশ্বকাপের ট্রফি জিতে অ্যালন বর্ডারের অস্ট্রেলিয়া। এরপর স্বপ্নের সেই বিশ্বকাপের ট্রফি আরও চারবার ঘরে তুলে অসিরা।

ত্রিশ বছর পর আইসিসি অস্ট্রেলিয়ার প্রথম বিশ্বকাপ জয়ী দলটিকে ‘সংবর্ধনা’ দিচ্ছে। একে পূর্ণ ‘সংবর্ধনা’ও বলা যাবে না। সেবার ইডেন গার্ডেনসে ইংল্যান্ডকে ৭ রানে হারানোর পর অ্যালন বর্ডার ও তার দলের হাতে শুধুমাত্র ট্রফি তুলে দেওয়া হয়। ক্রিকেটারদের আলাদা করে দেওয়া হয়নি কোনো পদক কিংবা স্মারক পুরস্কার।

আজ (রোববার) সেই স্মারক পুরস্কার পেয়েছেন অসি প্রাক্তন ক্রিকেটাররা। রোববার সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার চতুর্থ ওয়ানডেতে ইনিংস বিরতির সময় জমকালো অনুষ্ঠানে অসি ক্রিকেটারদের পদক তুলে দেওয়া হয়।

বিশ্বকাপ জয়ী বর্ডার বাহিনীর ১৭ সদস্য ছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দলটির কোচ বব স্পিসন, ম্যানেজার অ্যালন ক্রম্পটন ও ফিজিও অ্যারল এলকট। তাদের পুরস্কার তুলে দেন আইসিসির ডিরেক্টর ডেভিড পিভার, ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) প্রধান নির্বাহী জেমস সাদারল্যান্ড ও নির্বাহী মহাব্যবস্থাপক প্যাটহাওয়ার্ড।

অ্যালন বর্ডার বলেন,‘আমি খুবই গর্বিত। ১৯৮৭ সালের খেলোয়াড় ও সহযোগীদের এভাবে সংবর্ধিত করার জন্য। সবার সঙ্গে এতদিন পর দেখা হয়ে ভালো লাগছে। পুরনো দিনগুলোকে আবারও মনে পড়ছে। আমরা হাসছি, আনন্দ করছি পাশাপাশি গর্ব হচ্ছে যে আমরা অস্ট্রেলিয়ার হয়ে কত বড় অর্জন করেছিলাম। সে সময়ে ব্যক্তিগত পদকের কোনো চিন্তা ছিল না। আজ আমরা সেই পদক পেলাম। আমি আইসিসি ও ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’

গত বছরের জুনে আইসিসির বার্ষিক সভায় প্রধান নির্বাহী কমিটির বৈঠকে অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন বিশ্বকাপজয়ী ক্রিকেটারদের পদক দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।  শুধু অস্ট্রেলিয়া না বিশ্বকাপ জয়ী দলের ক্রিকেটাররা যারা এখনও ব্যক্তিগত কোনো পদক পাননি তাদেরকেও পদক দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আইসিসি।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X