মঙ্গলবার, ২০শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১১:১৬
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, July 30, 2016 10:09 pm
A- A A+ Print

দু-চারটা ঘটনা ঘটতে পারে, ঘাবড়ানোর কিছু নেই : সৈয়দ আশরাফ

8

সাম্প্রতিক জঙ্গি হামলার মতো হয়তো দু-চারটা ঘটনা ঘটতে পারে। তবে এ জন্য বাংলাদেশ রাষ্ট্র হিসেবে ভেঙে পড়বে না। বলেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। শনিবার বিকালে শহীদ মিনারে ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগ আয়োজিত এক যুব সমাবেশে আশরাফ এই মন্তব্য করেন। দেশের বিভিন্ন স্থানে সাম্প্রতিক সন্ত্রাসী ও জঙ্গি হামলার প্রতিবাদে এ সমাবেশ করা হয়। গুলশানের হলি আর্টিজান ও কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ায় জঙ্গি হামলার পর সারা দেশে সচেতনতা তৈরির চেষ্টায় জঙ্গিবিরোধী প্রচারে নামে আওয়ামী লীগ ও সমমনারা। এর অংশ হিসেবেই এই সমাবেশের আয়োজন করে যুবলীগ। জঙ্গি হামলার ঘটনায় ঘাবড়ে না গিয়ে সামাজিকভাবে প্রতিহত করার আহ্বান জানান আওয়ামী লীগের সধারণ সম্পাদক। তিনি বলেন, “ভয়ের কোনো কারণ নেই। আমরা যদি ঐক্যবদ্ধ হই তাহলে বাংলাদেশে জঙ্গি তো দূরের কথা, ‘জ’ শব্দটিও থাকবে না।” আওয়ামী লীগের এই সাধারণ সম্পাদক বলেন, “দু-একটি ঘটনা ঘটলে শহীদ মিনারে বিশাল জনসভা করার প্রয়োজন নেই।” তিনি বলেন, “যারা রাতের অন্ধকারে নিরীহ মানুষকে হত্যা করে, তারা কাপুরুষ, এরা কোনোভাবেই কোনো লড়াইয়ে জিততে পারবে না। বড়জোর কিছু মায়ের ও পিতার কোল খালি হতে পারে।” হলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলার প্রসঙ্গে সৈয়দ আশরাফ বলেন, ‘রেস্টুরেন্টে গিয়ে কুপিয়ে ও গুলি করে মানুষকে হত্যা করলেই জিহাদ হয় না। এখানে জঙ্গিও মারা গেল, যারা খেতে আসলো তারও মারা গেল। এতে লাভটা কার হলো। কয়েকজন বিদেশিকে হত্যা করলেই সারা বিশে^ ইসলাম কায়েম হবে?” যুবলীগ ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি মাঈনুল হোসেন খান নিখিলের সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন যুবলীগের চেয়ারম্যান ওমর ফারুক চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদ, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মোল্লা মো. আবু কাওছার, যুবমহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক অপু উকিল, যুবনেতা শহীদ সেরনিয়াবাত প্রমুখ।

Comments

Comments!

 দু-চারটা ঘটনা ঘটতে পারে, ঘাবড়ানোর কিছু নেই : সৈয়দ আশরাফAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

দু-চারটা ঘটনা ঘটতে পারে, ঘাবড়ানোর কিছু নেই : সৈয়দ আশরাফ

Saturday, July 30, 2016 10:09 pm
8

সাম্প্রতিক জঙ্গি হামলার মতো হয়তো দু-চারটা ঘটনা ঘটতে পারে। তবে এ জন্য বাংলাদেশ রাষ্ট্র হিসেবে ভেঙে পড়বে না। বলেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম।

শনিবার বিকালে শহীদ মিনারে ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগ আয়োজিত এক যুব সমাবেশে আশরাফ এই মন্তব্য করেন। দেশের বিভিন্ন স্থানে সাম্প্রতিক সন্ত্রাসী ও জঙ্গি হামলার প্রতিবাদে এ সমাবেশ করা হয়।

গুলশানের হলি আর্টিজান ও কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ায় জঙ্গি হামলার পর সারা দেশে সচেতনতা তৈরির চেষ্টায় জঙ্গিবিরোধী প্রচারে নামে আওয়ামী লীগ ও সমমনারা। এর অংশ হিসেবেই এই সমাবেশের আয়োজন করে যুবলীগ।

জঙ্গি হামলার ঘটনায় ঘাবড়ে না গিয়ে সামাজিকভাবে প্রতিহত করার আহ্বান জানান আওয়ামী লীগের সধারণ সম্পাদক। তিনি বলেন, “ভয়ের কোনো কারণ নেই। আমরা যদি ঐক্যবদ্ধ হই তাহলে বাংলাদেশে জঙ্গি তো দূরের কথা, ‘জ’ শব্দটিও থাকবে না।”

আওয়ামী লীগের এই সাধারণ সম্পাদক বলেন, “দু-একটি ঘটনা ঘটলে শহীদ মিনারে বিশাল জনসভা করার প্রয়োজন নেই।” তিনি বলেন, “যারা রাতের অন্ধকারে নিরীহ মানুষকে হত্যা করে, তারা কাপুরুষ, এরা কোনোভাবেই কোনো লড়াইয়ে জিততে পারবে না। বড়জোর কিছু মায়ের ও পিতার কোল খালি হতে পারে।”

হলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলার প্রসঙ্গে সৈয়দ আশরাফ বলেন, ‘রেস্টুরেন্টে গিয়ে কুপিয়ে ও গুলি করে মানুষকে হত্যা করলেই জিহাদ হয় না। এখানে জঙ্গিও মারা গেল, যারা খেতে আসলো তারও মারা গেল। এতে লাভটা কার হলো। কয়েকজন বিদেশিকে হত্যা করলেই সারা বিশে^ ইসলাম কায়েম হবে?”

যুবলীগ ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি মাঈনুল হোসেন খান নিখিলের সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন যুবলীগের চেয়ারম্যান ওমর ফারুক চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদ, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মোল্লা মো. আবু কাওছার, যুবমহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক অপু উকিল, যুবনেতা শহীদ সেরনিয়াবাত প্রমুখ।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X