রবিবার, ১৮ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৬ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ২:৪৯
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Friday, November 18, 2016 4:35 pm
A- A A+ Print

নবী-বিজয়ের ব্যাটে চিটাগংয়ের ১৯০

444

ঢাকায় টানা তিন ম্যাচ হারের ধাক্কা চট্টগ্রামেও সামলে উঠতে পারেনি চিটাগং ভাইকিংস। ঘরের মাঠে প্রথম ম্যাচেই ঢাকা ডায়নামাইটসের কাছে হেরে যায় তামিম ইকবালের দল। জয়ে ফেরার লড়াইয়ে আজ চিটাগংয়ের প্রতিপক্ষ রাজশাহী কিংস। আগে ব্যাট করে অবশ্য রাজশাহীর সামনে বড় লক্ষ্যই ছুড়ে দিয়েছে ‘স্বাগতিক’ দল। মোহাম্মদ নবী ও এনামুল হক বিজয়ের ফিফটিতে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৯০ রান করেছে চিটাগং। জয়ের জন্য রাজশাহীকে করতে হবে ১৯১। টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ার সেরা ৮৭ রানে অপরাজিত ছিলেন নবী। তার ৩৭ বলে করা ৮৭ রানের ঝোড়ো ইনিংসে ছিল ৬টি করে চার ও ছক্কার মার। বিজয় করেন ৪০ বলে ৫০ রান। শুক্রবার চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টস জিতে চিটাগংকে ব্যাটিংয়ে পাঠান রাজশাহী কিংস অধিনায়ক ড্যারেন স্যামি। চিটাগং একাদশে ফেরা ডোয়াইন স্মিথ শুরুটা করেন দারুণ। প্রথম ওভারেই ফরহাদ রেজাকে হাঁকান তিনটি চার। এর দুটিই কভারে, একটি মিড-অন দিয়ে। দ্বিতীয় ওভারে আরেক ওপেনার তামিম ইকবালও মেহেদী হাসান মিরাজের দ্বিতীয় বলেই চার মেরেছিলেন। কিন্তু পঞ্চম বলে সুইপ করতে গিয়ে এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়েন (৬ বলে ৫)।  ২ ওভার শেষে চিটাগংয়ের স্কোর ১ উইকেটে ১৭। তামিম ফিরলেও স্মিথ ক্রমেই আরো আক্রমণাত্মক হয়ে উঠছিলেন। মিরাজের পরের ওভারের প্রথম ও শেষ বলে মারেন একটি করে চার ও ছক্কা। পরের ওভারে আবুল হাসান রাজুর দ্বিতীয় বলে চার মেরেছিলেন। কিন্তু পঞ্চম বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন ক্যারিবীয় এই ব্যাটসম্যান। রাজুর লেংথ বলটি বুঝতেই পারেননি স্মিথ (১৯ বলে ৩৪)। ৬ ওভারে শেষে চিটাগংয়ের স্কোর ২ উইকেটে ৪২। এরপর দ্রুত ফিরে যান গ্র্যান্ট এলিয়টও। সামিত প্যাটেলের বলে নুরুল হাসানের হাতে স্টাম্পড হয়ে ফেরেন এই কিউই ব্যাটসম্যান (১০ বলে ৮)। চিটাগংয়ের স্কোর তখন ৩ উইকেটে ৫৮।  স্কোরবোর্ডে আর ১০ রান যোগ হতে ফিরে যান জহুরুল ইসলাম অমিও। প্যাটেলের বলে ফরহাদ রেজাকে ক্যাচ দেওয়ার আগে জহুরুল ৭ বলে করেন মাত্র ২ রান। তবে চতুর্থ উইকেটে মোহাম্মদ নবীকে নিয়ে দলকে এগিয়ে নিতে থাকেন বিজয়। দুজন মিলে ১৪ ওভারে দলের স্কোর ১০০ পার করেন। দুজনের মধ্যে সবচেয়ে বেশি আক্রমণাত্মক ছিলেন নবী। আফগান ব্যাটসম্যান লং অফ, কভার ও ‘কাউ কর্নার’-এর ওপর দিয়ে মারেন দারুণ তিনটি ছক্কা। প্যাটেলকে তার মাথার ওপর দিয়ে মারা বিজয়ের ছক্কাটিও ছিল চমৎকার। ১৮তম ওভারে রাজুর দ্বিতীয় বলে চার ও তৃতীয় বলে ছক্কা হাঁকিয়ে ২৫ বলে ফিফটি পূর্ণ করেন নবী। রাজুর পরের দুই বলেও টানা দুটি চার মারেন এই ডানহাতি। তাতে ১৮ ওভার শেষে চিটাগংয়ের স্কোর দাঁড়ায় ৪ উইকেটে ১৫৭। পরের ওভারে ফরহাদ রেজাকে একটি করে ছক্কা ও চার মেরে ৩৯ বলে ফিফটি পূর্ণ করেন বিজয়ও। তবে পরের বলে প্যাটেলকে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন তিনি। ৪০ বলে ৪ চার ও ২ ছক্কায় বিজয় করেন ৫০ রান। দুজনের জুটিতে আসে ১০৫ রান।  বিজয় ফিরলেও নবী শেষ ওভারে রাজুকে দুটি চার ও একটি ছক্কা হাঁকিয়ে দলের স্কোর চূড়ায় তোলেন।

Comments

Comments!

 নবী-বিজয়ের ব্যাটে চিটাগংয়ের ১৯০AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

নবী-বিজয়ের ব্যাটে চিটাগংয়ের ১৯০

Friday, November 18, 2016 4:35 pm
444

ঢাকায় টানা তিন ম্যাচ হারের ধাক্কা চট্টগ্রামেও সামলে উঠতে পারেনি চিটাগং ভাইকিংস।

ঘরের মাঠে প্রথম ম্যাচেই ঢাকা ডায়নামাইটসের কাছে হেরে যায় তামিম ইকবালের দল। জয়ে ফেরার লড়াইয়ে আজ চিটাগংয়ের প্রতিপক্ষ রাজশাহী কিংস। আগে ব্যাট করে অবশ্য রাজশাহীর সামনে বড় লক্ষ্যই ছুড়ে দিয়েছে ‘স্বাগতিক’ দল।

মোহাম্মদ নবী ও এনামুল হক বিজয়ের ফিফটিতে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৯০ রান করেছে চিটাগং। জয়ের জন্য রাজশাহীকে করতে হবে ১৯১।

টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ার সেরা ৮৭ রানে অপরাজিত ছিলেন নবী। তার ৩৭ বলে করা ৮৭ রানের ঝোড়ো ইনিংসে ছিল ৬টি করে চার ও ছক্কার মার। বিজয় করেন ৪০ বলে ৫০ রান।

শুক্রবার চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টস জিতে চিটাগংকে ব্যাটিংয়ে পাঠান রাজশাহী কিংস অধিনায়ক ড্যারেন স্যামি। চিটাগং একাদশে ফেরা ডোয়াইন স্মিথ শুরুটা করেন দারুণ। প্রথম ওভারেই ফরহাদ রেজাকে হাঁকান তিনটি চার। এর দুটিই কভারে, একটি মিড-অন দিয়ে।

দ্বিতীয় ওভারে আরেক ওপেনার তামিম ইকবালও মেহেদী হাসান মিরাজের দ্বিতীয় বলেই চার মেরেছিলেন। কিন্তু পঞ্চম বলে সুইপ করতে গিয়ে এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়েন (৬ বলে ৫)।  ২ ওভার শেষে চিটাগংয়ের স্কোর ১ উইকেটে ১৭।

তামিম ফিরলেও স্মিথ ক্রমেই আরো আক্রমণাত্মক হয়ে উঠছিলেন। মিরাজের পরের ওভারের প্রথম ও শেষ বলে মারেন একটি করে চার ও ছক্কা। পরের ওভারে আবুল হাসান রাজুর দ্বিতীয় বলে চার মেরেছিলেন। কিন্তু পঞ্চম বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন ক্যারিবীয় এই ব্যাটসম্যান। রাজুর লেংথ বলটি বুঝতেই পারেননি স্মিথ (১৯ বলে ৩৪)। ৬ ওভারে শেষে চিটাগংয়ের স্কোর ২ উইকেটে ৪২।

এরপর দ্রুত ফিরে যান গ্র্যান্ট এলিয়টও। সামিত প্যাটেলের বলে নুরুল হাসানের হাতে স্টাম্পড হয়ে ফেরেন এই কিউই ব্যাটসম্যান (১০ বলে ৮)। চিটাগংয়ের স্কোর তখন ৩ উইকেটে ৫৮।  স্কোরবোর্ডে আর ১০ রান যোগ হতে ফিরে যান জহুরুল ইসলাম অমিও। প্যাটেলের বলে ফরহাদ রেজাকে ক্যাচ দেওয়ার আগে জহুরুল ৭ বলে করেন মাত্র ২ রান।

তবে চতুর্থ উইকেটে মোহাম্মদ নবীকে নিয়ে দলকে এগিয়ে নিতে থাকেন বিজয়। দুজন মিলে ১৪ ওভারে দলের স্কোর ১০০ পার করেন। দুজনের মধ্যে সবচেয়ে বেশি আক্রমণাত্মক ছিলেন নবী। আফগান ব্যাটসম্যান লং অফ, কভার ও ‘কাউ কর্নার’-এর ওপর দিয়ে মারেন দারুণ তিনটি ছক্কা। প্যাটেলকে তার মাথার ওপর দিয়ে মারা বিজয়ের ছক্কাটিও ছিল চমৎকার।

১৮তম ওভারে রাজুর দ্বিতীয় বলে চার ও তৃতীয় বলে ছক্কা হাঁকিয়ে ২৫ বলে ফিফটি পূর্ণ করেন নবী। রাজুর পরের দুই বলেও টানা দুটি চার মারেন এই ডানহাতি। তাতে ১৮ ওভার শেষে চিটাগংয়ের স্কোর দাঁড়ায় ৪ উইকেটে ১৫৭।

পরের ওভারে ফরহাদ রেজাকে একটি করে ছক্কা ও চার মেরে ৩৯ বলে ফিফটি পূর্ণ করেন বিজয়ও। তবে পরের বলে প্যাটেলকে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন তিনি। ৪০ বলে ৪ চার ও ২ ছক্কায় বিজয় করেন ৫০ রান। দুজনের জুটিতে আসে ১০৫ রান।  বিজয় ফিরলেও নবী শেষ ওভারে রাজুকে দুটি চার ও একটি ছক্কা হাঁকিয়ে দলের স্কোর চূড়ায় তোলেন।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X