মঙ্গলবার, ২০শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৫:২৯
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Thursday, September 1, 2016 3:46 pm
A- A A+ Print

নারী কল্যাণমন্ত্রীর যৌন কেলেঙ্কারি

151909_1

দিল্লি: যৌন কেলেঙ্কারিতে জড়িত থাকার অভিযোগে দিল্লির নারী কল্যাণ মন্ত্রীকে সরিয়ে দিয়েছেন সেখানকার মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। বুধবার বেশি রাতে কেজরিওয়াল টুইট করে জানান যে তার কাছে একটি সি ডি এসেছে, যেখানে নারী কল্যাণ মন্ত্রী সন্দীপ কুমারকে দুই নারীর সঙ্গে আপত্তিজনক অবস্থায় দেখা গেছে বলে তাকে জানানো হয়েছে। ওই সি ডি পাওয়ার আধঘণ্টার মধ্যেই সন্দীপ কুমারকে মন্ত্রীসভা থেকে সরিয়ে দেওয়ার কথা ঘোষণা করে আম আদমি পার্টির সরকার। কুমার নারী কল্যাণের সঙ্গে সঙ্গেই শিশু কল্যাণ দপ্তরের দায়িত্বেও ছিলেন। উপ-মুখ্যমন্ত্রী মনীষ সিসোদিয়া জানান, ‘আম আদমি পার্টির মূল নীতিই হল দুর্নীতি, কোনো ধরণের অপরাধ বা নৈতিক চরিত্রে কালি লাগে, এরকম কোনো ঘটনা বরদাস্ত করা হবে না। এর আগেও এক মন্ত্রী এবং পাঞ্জাবের এক নেতার ঘুষ নেওয়ার ঘটনা সামনে এসেছিল, দুজনকেই সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। এইসব বিষয়ে আম আদমি পার্টি জিরো টলারেন্ট।’ মন্ত্রীকে সরিয়ে দিলেও অরবিন্দ কেজরিওয়ালের রাজনৈতিক বিরোধীরা এই ঘটনা নিয়ে কটাক্ষ করতে ছাড়ে নি। বি জে পি নেতা ও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ বলছেন, ‘যে আম আদমি পার্টি রাজনীতিতে শুচিতা নিয়ে দম্ভ করে, তারাই আজ দুর্নীতি, অন্তর্কলহ নিয়ে ব্যতিব্যস্ত।’ দিল্লির রাস্তা থেকে ভিখারিদের সরিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করে গত মাসে ব্যাপক সমালোচিত হয়েছিলেন মন্ত্রীসভা থেকে অপসারিত এই সন্দীপ কুমার। তাকে নিয়ে তিনজন মন্ত্রীকে সরিয়ে দিল দিল্লির অরবিন্দ কেজরিওয়াল নেতৃত্বাধীন সরকার। এর আগে এক মন্ত্রীকে ঘুষ নেওয়ার দায়ে, অন্যজনকে শিক্ষাগত যোগ্যতার জাল সার্টিফিকেট দাখিল করার দায়ে সরতে হয়েছে। দিল্লি মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সন স্বাতী মালিওয়াল এক মন্ত্রীর যৌন কেলেঙ্কারিতে জড়িত হওয়ার খবর পাওয়ার পরে টুইটে মন্তব্য করেছেন, ‘সন্দীপ কুমার যা করেছেন, তা দুর্ভাগ্যজনক। এরকম লোকের মন্ত্রী তো হওয়ারই কথা নয়, নারী কল্যাণ মন্ত্রী তো অনেক দূরের ব্যাপার।’ অভিযুক্ত সন্দীপ কুমারের কোনো বক্তব্য অবশ্য এখনো পাওয়া যায় নি। ঘটনাচক্রে, নারীদের তিনি কতটা সম্মান করেন, সেটা বোঝাতে ১৯ মাস আগে মন্ত্রী হিসাবে শপথ নেওয়ার পরে মি. কুমার প্রকাশ্যে বলেছিলেন ‘আমি প্রতিদিন সকালে আমার স্ত্রীর পায়ে হাত দিয়ে প্রণাম করি।’ সূত্র: বিবিসি
 

Comments

Comments!

 নারী কল্যাণমন্ত্রীর যৌন কেলেঙ্কারিAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

নারী কল্যাণমন্ত্রীর যৌন কেলেঙ্কারি

Thursday, September 1, 2016 3:46 pm
151909_1

দিল্লি: যৌন কেলেঙ্কারিতে জড়িত থাকার অভিযোগে দিল্লির নারী কল্যাণ মন্ত্রীকে সরিয়ে দিয়েছেন সেখানকার মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল।

বুধবার বেশি রাতে কেজরিওয়াল টুইট করে জানান যে তার কাছে একটি সি ডি এসেছে, যেখানে নারী কল্যাণ মন্ত্রী সন্দীপ কুমারকে দুই নারীর সঙ্গে আপত্তিজনক অবস্থায় দেখা গেছে বলে তাকে জানানো হয়েছে।

ওই সি ডি পাওয়ার আধঘণ্টার মধ্যেই সন্দীপ কুমারকে মন্ত্রীসভা থেকে সরিয়ে দেওয়ার কথা ঘোষণা করে আম আদমি পার্টির সরকার।

কুমার নারী কল্যাণের সঙ্গে সঙ্গেই শিশু কল্যাণ দপ্তরের দায়িত্বেও ছিলেন।

উপ-মুখ্যমন্ত্রী মনীষ সিসোদিয়া জানান, ‘আম আদমি পার্টির মূল নীতিই হল দুর্নীতি, কোনো ধরণের অপরাধ বা নৈতিক চরিত্রে কালি লাগে, এরকম কোনো ঘটনা বরদাস্ত করা হবে না। এর আগেও এক মন্ত্রী এবং পাঞ্জাবের এক নেতার ঘুষ নেওয়ার ঘটনা সামনে এসেছিল, দুজনকেই সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। এইসব বিষয়ে আম আদমি পার্টি জিরো টলারেন্ট।’

মন্ত্রীকে সরিয়ে দিলেও অরবিন্দ কেজরিওয়ালের রাজনৈতিক বিরোধীরা এই ঘটনা নিয়ে কটাক্ষ করতে ছাড়ে নি।

বি জে পি নেতা ও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ বলছেন, ‘যে আম আদমি পার্টি রাজনীতিতে শুচিতা নিয়ে দম্ভ করে, তারাই আজ দুর্নীতি, অন্তর্কলহ নিয়ে ব্যতিব্যস্ত।’

দিল্লির রাস্তা থেকে ভিখারিদের সরিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করে গত মাসে ব্যাপক সমালোচিত হয়েছিলেন মন্ত্রীসভা থেকে অপসারিত এই সন্দীপ কুমার।

তাকে নিয়ে তিনজন মন্ত্রীকে সরিয়ে দিল দিল্লির অরবিন্দ কেজরিওয়াল নেতৃত্বাধীন সরকার। এর আগে এক মন্ত্রীকে ঘুষ নেওয়ার দায়ে, অন্যজনকে শিক্ষাগত যোগ্যতার জাল সার্টিফিকেট দাখিল করার দায়ে সরতে হয়েছে।

দিল্লি মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সন স্বাতী মালিওয়াল এক মন্ত্রীর যৌন কেলেঙ্কারিতে জড়িত হওয়ার খবর পাওয়ার পরে টুইটে মন্তব্য করেছেন, ‘সন্দীপ কুমার যা করেছেন, তা দুর্ভাগ্যজনক। এরকম লোকের মন্ত্রী তো হওয়ারই কথা নয়, নারী কল্যাণ মন্ত্রী তো অনেক দূরের ব্যাপার।’

অভিযুক্ত সন্দীপ কুমারের কোনো বক্তব্য অবশ্য এখনো পাওয়া যায় নি।

ঘটনাচক্রে, নারীদের তিনি কতটা সম্মান করেন, সেটা বোঝাতে ১৯ মাস আগে মন্ত্রী হিসাবে শপথ নেওয়ার পরে মি. কুমার প্রকাশ্যে বলেছিলেন ‘আমি প্রতিদিন সকালে আমার স্ত্রীর পায়ে হাত দিয়ে প্রণাম করি।’

সূত্র: বিবিসি

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X