রবিবার, ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১৩ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৫:১৭
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Thursday, December 22, 2016 8:30 am
A- A A+ Print

নিজ বাড়িতে ছুরিকাহত তিন মাস মাঠের বাইরে কেভিতোভা

45684_s5-1

অল্পের জন্য প্রাণে বাঁচলেন মহিলা টেনিসের শীর্ষ তারকা পেত্রা কেভিতোভা। তবে ছুরিকাহত কেভিতোভা খেলা থেকে ছিটকে পড়লেন কম পক্ষে তিন মাসের জন্য। মঙ্গলবার চেক প্রজাতন্ত্রের প্রসতেয়ভ শহরে নিজের অ্যাপটমেন্টে হামলার শিকার হন দুবারের উইম্বলডন চ্যাম্পিয়ন পেতা কেভিতোভা। দৃষ্কৃতকারীর ছুরির আঘাতে তার বাঁ-হাতে অনেকটা কেটে যায়। পরে দীর্ঘ চার ঘণ্টাব্যাপী অস্ত্রোপচার চলে কেভিতোভার চোটগ্রস্ত হাতে। বুধবার এক বিবৃতিতে কেভিতোভা বলেন, আমাকে সহমর্মিতা জানিয়ে অনেক বার্তা পেলাম। সবাইকে ধন্যবাদ। আপনারা হয়তো শুনেছেন, আমার আপার্টমেন্টে এক লোক ছুরি হাতে আমাকে হামলা করেছিল। আত্মরক্ষার্থে আমি হাত তুলে তাকে ফেরাতে গিয়েছিলাম। ছুরির আঘাতে আমার বাঁ-হাতে অনেকগুলো ক্ষত হয়েছে। তবে সৌভাগ্যক্রমে আমি বেঁচে গেছি। মহিলা একক টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের একাদশতম খেলোয়াড় কেভিতোভা ক্যারিয়ারে নিয়েছেন ১৯টি শিরোপার স্বাদ।  বাঁ-হাতি খেলোয়াড় পেত্রা কোভিতোভা মর্যাদাকর গ্র্যান্ডস্লাম উইম্বলডন শিরোপা কুড়ান ২০১১ ও ২০১৪ সালে। তবে হামলার ঘটনায় এবারের অস্ট্রেলিয়ান ওপেন আসরে খেলা হচ্ছে না এ টেনিস সুন্দরীর। বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম আসর অস্ট্রেলিয়ার ওপেনের পর্দা উঠবে আগামী ১৬ই জানুয়ারি। গতকাল কেভিতোভার ম্যানেজার কেটি স্পেলম্যান বলেন, কেভিতোভার হাতে ব্যান্ডেজ থাকবে টানা দুই মাস। আর আগামী তিনমাসে বাঁ-হাতে কোনো ওজন উত্তোলন করতে তাকে নিষেধ করেছেন ডাক্তাররা। চেক প্রজাতন্ত্রের পুলিশ জানিয়েছে, হামলাকারীর বয়স আনুমানিক ৩৫ বছর। তবে ঘটনার পরপর পালিয়ে যায় সে। মঙ্গলবার স্বদেশি তারকা লুসি সাফারোভার সঙ্গে এক চ্যারিটি ম্যাচ খেলার কথা ছিল কেভিতোভার। মহিলা টেনিসের অন্যতম শীর্ষ খেলোয়াড় সাফারোভা বলেন, এটা ভয়ঙ্কর। এমন ঘটনা আমাদের সবাইকেই নাড়িয়ে দিয়েছে। আমাদের যে কারও সঙ্গে এমন ঘটতে পারতো। এটা সত্যিই ভয়ানক। দুষৃ্কতকারীর ছুরির আঘাতে এর আগে ক্যারিয়ার বিনষ্ট হতে দেখা যায় সাবেক যুগোস্লাভ তারকা মনিকা সেলেসের। ১৯৯৩ সালে জার্মানির হামবুর্গ আসরের খেলা শেষে কোর্টের পাশে হামলার শিকার হন ৯ বারের গ্র্যান্ডস্লাম শিরোপাজয়ী খেলোয়াড় মনিকার সেলেস। কাঁধে ছুরিকাঘাত নিয়ে দীর্ঘদিন কোর্টের বাইরে কাটে তার। পরে সুস্থ হয়ে কোর্টে ফিরলেও আর স্বরূপে দেখা যায়নি সেলেসকে। ১৯৯০ থেকে ক্যারিয়ারের শুরুর তিন বছরে মনিকা সেলেস কুড়ান পৃথক ৮টি গ্র্যান্ডস্লাম শিরোপা। উন্মুক্ত যুগে টিনএজ কোনো খেলোয়াড়ের সর্বাধিক গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা জয়ের রেকর্ড এটি।

Comments

Comments!

 নিজ বাড়িতে ছুরিকাহত তিন মাস মাঠের বাইরে কেভিতোভাAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

নিজ বাড়িতে ছুরিকাহত তিন মাস মাঠের বাইরে কেভিতোভা

Thursday, December 22, 2016 8:30 am
45684_s5-1

অল্পের জন্য প্রাণে বাঁচলেন মহিলা টেনিসের শীর্ষ তারকা পেত্রা কেভিতোভা। তবে ছুরিকাহত কেভিতোভা খেলা থেকে ছিটকে পড়লেন কম পক্ষে তিন মাসের জন্য। মঙ্গলবার চেক প্রজাতন্ত্রের প্রসতেয়ভ শহরে নিজের অ্যাপটমেন্টে হামলার শিকার হন দুবারের উইম্বলডন চ্যাম্পিয়ন পেতা কেভিতোভা। দৃষ্কৃতকারীর ছুরির আঘাতে তার বাঁ-হাতে অনেকটা কেটে যায়। পরে দীর্ঘ চার ঘণ্টাব্যাপী অস্ত্রোপচার চলে কেভিতোভার চোটগ্রস্ত হাতে। বুধবার এক বিবৃতিতে কেভিতোভা বলেন, আমাকে সহমর্মিতা জানিয়ে অনেক বার্তা পেলাম। সবাইকে ধন্যবাদ। আপনারা হয়তো শুনেছেন, আমার আপার্টমেন্টে এক লোক ছুরি হাতে আমাকে হামলা করেছিল। আত্মরক্ষার্থে আমি হাত তুলে তাকে ফেরাতে গিয়েছিলাম। ছুরির আঘাতে আমার বাঁ-হাতে অনেকগুলো ক্ষত হয়েছে। তবে সৌভাগ্যক্রমে আমি বেঁচে গেছি। মহিলা একক টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের একাদশতম খেলোয়াড় কেভিতোভা ক্যারিয়ারে নিয়েছেন ১৯টি শিরোপার স্বাদ।  বাঁ-হাতি খেলোয়াড় পেত্রা কোভিতোভা মর্যাদাকর গ্র্যান্ডস্লাম উইম্বলডন শিরোপা কুড়ান ২০১১ ও ২০১৪ সালে। তবে হামলার ঘটনায় এবারের অস্ট্রেলিয়ান ওপেন আসরে খেলা হচ্ছে না এ টেনিস সুন্দরীর। বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম আসর অস্ট্রেলিয়ার ওপেনের পর্দা উঠবে আগামী ১৬ই জানুয়ারি। গতকাল কেভিতোভার ম্যানেজার কেটি স্পেলম্যান বলেন, কেভিতোভার হাতে ব্যান্ডেজ থাকবে টানা দুই মাস। আর আগামী তিনমাসে বাঁ-হাতে কোনো ওজন উত্তোলন করতে তাকে নিষেধ করেছেন ডাক্তাররা। চেক প্রজাতন্ত্রের পুলিশ জানিয়েছে, হামলাকারীর বয়স আনুমানিক ৩৫ বছর। তবে ঘটনার পরপর পালিয়ে যায় সে।
মঙ্গলবার স্বদেশি তারকা লুসি সাফারোভার সঙ্গে এক চ্যারিটি ম্যাচ খেলার কথা ছিল কেভিতোভার। মহিলা টেনিসের অন্যতম শীর্ষ খেলোয়াড় সাফারোভা বলেন, এটা ভয়ঙ্কর। এমন ঘটনা আমাদের সবাইকেই নাড়িয়ে দিয়েছে। আমাদের যে কারও সঙ্গে এমন ঘটতে পারতো। এটা সত্যিই ভয়ানক। দুষৃ্কতকারীর ছুরির আঘাতে এর আগে ক্যারিয়ার বিনষ্ট হতে দেখা যায় সাবেক যুগোস্লাভ তারকা মনিকা সেলেসের। ১৯৯৩ সালে জার্মানির হামবুর্গ আসরের খেলা শেষে কোর্টের পাশে হামলার শিকার হন ৯ বারের গ্র্যান্ডস্লাম শিরোপাজয়ী খেলোয়াড় মনিকার সেলেস। কাঁধে ছুরিকাঘাত নিয়ে দীর্ঘদিন কোর্টের বাইরে কাটে তার। পরে সুস্থ হয়ে কোর্টে ফিরলেও আর স্বরূপে দেখা যায়নি সেলেসকে। ১৯৯০ থেকে ক্যারিয়ারের শুরুর তিন বছরে মনিকা সেলেস কুড়ান পৃথক ৮টি গ্র্যান্ডস্লাম শিরোপা। উন্মুক্ত যুগে টিনএজ কোনো খেলোয়াড়ের সর্বাধিক গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা জয়ের রেকর্ড এটি।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X