শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ২:০৪
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, July 2, 2017 12:19 am
A- A A+ Print

নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন: খালেদা জিয়া

1452766852edb87004a700cf63f040c7-593966aed6b2c

আবার একটি অবাধ নির্বাচনের ব্যবস্থা নিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তিনি বলেন, ‘মারামারি-কাটাকাটি বাদ দিয়ে একটি নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন। যাতে সব দল অংশগ্রহণ করবে, সবাই সমান সুযোগ পাবে। এটি করলে হয়তোবা জনগণ আপনাদের ক্ষমা করতে পারে।’ আজ শনিবার রাতে গুলশানের কার্যালয়ে বিএনপির নতুন সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কর্মসূচির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে খালেদা জিয়া এ সব কথা বলেন। এ সময় তিনি জাতীয় সংসদ নির্বাচনের অন্তত এক সপ্তাহ আগে সেনাবাহিনী মোতায়েনের দাবি জানান। খালেদা জিয়া বলেন, নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে হবে। যাতে মানুষ নির্ভয়ে ভোট কেন্দ্রে যেতে পারে। এর আগেও সোনাবাহিনী এ দায়িত্ব পালন করেছে। কিন্তু এখন তারা সেনাবাহিনী চান না, কারণ চান না মানুষ নির্ভয়ে ভোট দিক। এ সময় তিনি নির্বাচনকালীন সহায়ক সরকারের দাবি পুনর্ব্যক্ত করে বলেন, এই আওয়ামী লীগের সময়ে স্থানীয় সরকার বলেন, কোনো জায়গায় ভোট হয়নি। সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের সাড়ে ৫০০০ কোটি টাকার জমার কথা উল্লেখ করে বিএনপির চেয়ারপারসন ক্ষমতাসীনদের উদ্দেশে বলেন, ‘সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের টাকাগুলো কার। এর নাম-ধামগুলো জানতে চাই। উন্নয়নের নামে কত টাকা পাচার করেছেন, সুইস ব্যাংকে রাখছেন জানা দরকার। এটা দেশের উন্নয়ন নয়, নিজেদের উন্নয়ন।’ আওয়ামী লীগের দিকে ইঙ্গিত করে খালেদা জিয়া বলেন, তারা যেভাবে দুর্নীতি করেছে, ব্যাংকগুলো শেষ করে দিয়েছে। পত্রিকায় দেখলাম, দেশে ৫০ হাজার নতুন কোটিপতি হয়েছে। এঁরা সবাই আওয়ামী লীগের। নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের উচ্চ মূল্যের জন্য সরকারের সমালোচনা করে খালেদা জিয়া বলেন, দ্রব্যমূল্য সর্বকালের রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে। চালের দাম এখনো বাড়ছে। দেশি-বিদেশি কোনো বিনিয়োগ নেই। তাই দেশে কোনো কর্মসংস্থান নেই। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মওদুদ আহমেদ, তরিকুল ইসলাম, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আবদুল মঈন খান ও আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, খোন্দকার মাহবুব হোসেন ও শওকত মাহমুদ প্রমুখ।

Comments

Comments!

 নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন: খালেদা জিয়াAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন: খালেদা জিয়া

Sunday, July 2, 2017 12:19 am
1452766852edb87004a700cf63f040c7-593966aed6b2c

আবার একটি অবাধ নির্বাচনের ব্যবস্থা নিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তিনি বলেন, ‘মারামারি-কাটাকাটি বাদ দিয়ে একটি নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন। যাতে সব দল অংশগ্রহণ করবে, সবাই সমান সুযোগ পাবে। এটি করলে হয়তোবা জনগণ আপনাদের ক্ষমা করতে পারে।’
আজ শনিবার রাতে গুলশানের কার্যালয়ে বিএনপির নতুন সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কর্মসূচির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে খালেদা জিয়া এ সব কথা বলেন। এ সময় তিনি জাতীয় সংসদ নির্বাচনের অন্তত এক সপ্তাহ আগে সেনাবাহিনী মোতায়েনের দাবি জানান।

খালেদা জিয়া বলেন, নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে হবে। যাতে মানুষ নির্ভয়ে ভোট কেন্দ্রে যেতে পারে। এর আগেও সোনাবাহিনী এ দায়িত্ব পালন করেছে। কিন্তু এখন তারা সেনাবাহিনী চান না, কারণ চান না মানুষ নির্ভয়ে ভোট দিক। এ সময় তিনি নির্বাচনকালীন সহায়ক সরকারের দাবি পুনর্ব্যক্ত করে বলেন, এই আওয়ামী লীগের সময়ে স্থানীয় সরকার বলেন, কোনো জায়গায় ভোট হয়নি।

সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের সাড়ে ৫০০০ কোটি টাকার জমার কথা উল্লেখ করে বিএনপির চেয়ারপারসন ক্ষমতাসীনদের উদ্দেশে বলেন, ‘সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের টাকাগুলো কার। এর নাম-ধামগুলো জানতে চাই। উন্নয়নের নামে কত টাকা পাচার করেছেন, সুইস ব্যাংকে রাখছেন জানা দরকার। এটা দেশের উন্নয়ন নয়, নিজেদের উন্নয়ন।’

আওয়ামী লীগের দিকে ইঙ্গিত করে খালেদা জিয়া বলেন, তারা যেভাবে দুর্নীতি করেছে, ব্যাংকগুলো শেষ করে দিয়েছে। পত্রিকায় দেখলাম, দেশে ৫০ হাজার নতুন কোটিপতি হয়েছে। এঁরা সবাই আওয়ামী লীগের।

নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের উচ্চ মূল্যের জন্য সরকারের সমালোচনা করে খালেদা জিয়া বলেন, দ্রব্যমূল্য সর্বকালের রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে। চালের দাম এখনো বাড়ছে। দেশি-বিদেশি কোনো বিনিয়োগ নেই। তাই দেশে কোনো কর্মসংস্থান নেই।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মওদুদ আহমেদ, তরিকুল ইসলাম, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আবদুল মঈন খান ও আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, খোন্দকার মাহবুব হোসেন ও শওকত মাহমুদ প্রমুখ।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X