শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৫:৫৯
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, September 11, 2016 12:48 am
A- A A+ Print

‘নিহত জঙ্গি আত্মহত্যা করেছেন, চেষ্টা করেছেন ২ নারীও’

chanowar-sm20160911003824

রাজধানীর আজিমপুরে নিহত জঙ্গি আবদুল করিম ছুরি দিয়ে গলা কেটে আত্মহত্যা করেছেন। এমনকি আটক তিন নারীর মধ্যে গুলিবিদ্ধ একজন ছাড়া বাকি দু’জনও আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) এবং কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটের প্রধান ছানোয়ার হোসেন। শনিবার (১০ সেপ্টেম্বর) রাতে আজিমপুরের বিজিবি গেট সংলগ্ন জঙ্গি আস্তানায় অভিযান শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা জানান। এর আগে, সন্ধ্যা থেকে রাত সোয়া ৯টা পর্যন্ত অভিযান চলে। অভিযানের পর আস্তানায় পাওয়া যায় জঙ্গি করিমের মরদেহ। আহতাবস্থায় উদ্ধার করা হয় তিনজন নারীকে। তাদের ভর্তি করা হয়েছে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে। ছানোয়ার হোসেন বলেন, গুলশান হামলার মাস্টারমাইন্ড তামিম চৌধুরী নারায়ণগঞ্জে নিহত হওয়ার ঘটনার পর আমাদের কাছে তথ্য ছিল, বেশ কয়েকজন জঙ্গি পুরান ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় আত্মগোপনে আছে। এ তথ্যের ভিত্তিতে আমরা কাজ শুরু করি। তারই ধারাবাহিকতায় মিরপুরের রূপনগরে অভিযানে মেজর (অব.) জাহিদ নিহত হয়। “ওই অভিযানের কয়েকদিন আগেই জাহিদের স্ত্রীসহ কয়েকজন রূপনগরের বাসা ছেড়ে চলে আসে। গত ১ সেপ্টেম্বর তারা ওঠে আজিমপুরের এই বাসায়। সূত্রের খবরে সন্ধ্যার দিকে পুলিশ এই বাসায় অভিযানে আসে। এসময় ‍বাসার নিচে একজনকে বাড়ির মালিক কোথায় থাকেন জিজ্ঞেস করা হলে তিনি দোতলার কথা বলেন। তার কথা মতো পুলিশ দোতলায় গিয়ে দরজায় কড়া নাড়লে একজন নারী দরজা খোলেন।” ছানোয়ার হোসেন বলেন, পুলিশ তারা বাসার মালিক কিনা জানতে চাইলে বুঝে ফেলে। এরপর গ্রেনেড ও মরিচের গুঁড়া নিয়ে হামলা চালায় পুলিশের ওপর। এতে আমাদের পাঁচ সদস্য আহত হন। তখন কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের আরেকটি ইউনিট ওই বাসার নিচে চলে আসে। তারা এসে বাড়ির কলাপসিবল গেট আটকে দেয় যেন জঙ্গিরা পালিয়ে যেতে না পারে। এরমধ্যে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের অ্যান্ডভান্সড টিম স্পটের ‍কাছাকাছি এলে গুলিবিদ্ধ নারী কলাপসিবল গেট খুলে পুলিশের ওপর সশস্ত্র হামলা চালায়। তখন পুলিশও পাল্টা গুলি ছুঁড়লে সে নারী গুলিবিদ্ধ হয়। ডিএমপির এ কর্মকর্তা জানান, নিহত আবদুল করিম হলেন গুলশান হামলার মাস্টারমাইন্ড তামিম চৌধুরীর ডান হাত। তিনি হলি আর্টিজান বেকারিতে হামলাকারীদের বাসা ভাড়া করে দিয়েছিলেন। অভিযানের পর ওই বাসার ভেতরের একরুম থেকে ৩টি পিস্তল এবং আরেক রুম থেকে ১টি পিস্তল ও কাগজে মোড়ানো ৫০ রাউন্ড গুলি জব্দ করা হয়েছে বলেও জানান ছানোয়ার হোসেন।

Comments

Comments!

 ‘নিহত জঙ্গি আত্মহত্যা করেছেন, চেষ্টা করেছেন ২ নারীও’AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

‘নিহত জঙ্গি আত্মহত্যা করেছেন, চেষ্টা করেছেন ২ নারীও’

Sunday, September 11, 2016 12:48 am
chanowar-sm20160911003824

রাজধানীর আজিমপুরে নিহত জঙ্গি আবদুল করিম ছুরি দিয়ে গলা কেটে আত্মহত্যা করেছেন। এমনকি আটক তিন নারীর মধ্যে গুলিবিদ্ধ একজন ছাড়া বাকি দু’জনও আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) এবং কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটের প্রধান ছানোয়ার হোসেন।

শনিবার (১০ সেপ্টেম্বর) রাতে আজিমপুরের বিজিবি গেট সংলগ্ন জঙ্গি আস্তানায় অভিযান শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা জানান। এর আগে, সন্ধ্যা থেকে রাত সোয়া ৯টা পর্যন্ত অভিযান চলে। অভিযানের পর আস্তানায় পাওয়া যায় জঙ্গি করিমের মরদেহ। আহতাবস্থায় উদ্ধার করা হয় তিনজন নারীকে। তাদের ভর্তি করা হয়েছে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে।

ছানোয়ার হোসেন বলেন, গুলশান হামলার মাস্টারমাইন্ড তামিম চৌধুরী নারায়ণগঞ্জে নিহত হওয়ার ঘটনার পর আমাদের কাছে তথ্য ছিল, বেশ কয়েকজন জঙ্গি পুরান ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় আত্মগোপনে আছে। এ তথ্যের ভিত্তিতে আমরা কাজ শুরু করি। তারই ধারাবাহিকতায় মিরপুরের রূপনগরে অভিযানে মেজর (অব.) জাহিদ নিহত হয়।

“ওই অভিযানের কয়েকদিন আগেই জাহিদের স্ত্রীসহ কয়েকজন রূপনগরের বাসা ছেড়ে চলে আসে। গত ১ সেপ্টেম্বর তারা ওঠে আজিমপুরের এই বাসায়। সূত্রের খবরে সন্ধ্যার দিকে পুলিশ এই বাসায় অভিযানে আসে। এসময় ‍বাসার নিচে একজনকে বাড়ির মালিক কোথায় থাকেন জিজ্ঞেস করা হলে তিনি দোতলার কথা বলেন। তার কথা মতো পুলিশ দোতলায় গিয়ে দরজায় কড়া নাড়লে একজন নারী দরজা খোলেন।”

ছানোয়ার হোসেন বলেন, পুলিশ তারা বাসার মালিক কিনা জানতে চাইলে বুঝে ফেলে। এরপর গ্রেনেড ও মরিচের গুঁড়া নিয়ে হামলা চালায় পুলিশের ওপর। এতে আমাদের পাঁচ সদস্য আহত হন। তখন কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের আরেকটি ইউনিট ওই বাসার নিচে চলে আসে। তারা এসে বাড়ির কলাপসিবল গেট আটকে দেয় যেন জঙ্গিরা পালিয়ে যেতে না পারে। এরমধ্যে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের অ্যান্ডভান্সড টিম স্পটের ‍কাছাকাছি এলে গুলিবিদ্ধ নারী কলাপসিবল গেট খুলে পুলিশের ওপর সশস্ত্র হামলা চালায়। তখন পুলিশও পাল্টা গুলি ছুঁড়লে সে নারী গুলিবিদ্ধ হয়।

ডিএমপির এ কর্মকর্তা জানান, নিহত আবদুল করিম হলেন গুলশান হামলার মাস্টারমাইন্ড তামিম চৌধুরীর ডান হাত। তিনি হলি আর্টিজান বেকারিতে হামলাকারীদের বাসা ভাড়া করে দিয়েছিলেন।

অভিযানের পর ওই বাসার ভেতরের একরুম থেকে ৩টি পিস্তল এবং আরেক রুম থেকে ১টি পিস্তল ও কাগজে মোড়ানো ৫০ রাউন্ড গুলি জব্দ করা হয়েছে বলেও জানান ছানোয়ার হোসেন।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X