মঙ্গলবার, ২০শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১১:৩৩
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, November 13, 2016 12:57 pm
A- A A+ Print

নুহাশপল্লীতে মানুষের ঢল

0-0-0-0

জন্মদিনে হুমায়ূন আহমেদকে শ্রদ্ধা জানাতে, তার কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণে নুহাশপল্লীতে মানুষের ঢল নেমেছে। নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে গাজীপুরের নুহাশপল্লীতে আজ রোববার পালিত হচ্ছে জনপ্রিয় এই লেখকের ৬৮তম জন্মবার্ষিকী।   এ উপলক্ষে শনিবার রাতে নুহাশপল্লীতে মোমবাতি প্রজ্বালন করা হয়। আজ ভোরে হুমায়ূন আহমেদের স্ত্রী মেহের আফরোজ শাওন ছেলে নিষাদ ও নিনিতকে নিয়ে নুহাশপল্লীতে আসেন। সকাল সোয়া ৯টার দিকে শাওন ছেলে নিষাদ ও নিনিতকে নিয়ে হুমায়ূন আহমেদের কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণ, ফাতিহা পাঠ করেন ও মোনাজাতে অংশ নেন। পরে হোয়াইট হাউসের সামনে কাটা হয় জন্মদিনের কেক। এসব অনুষ্ঠানে নুহাশপল্লীর কর্মচারীরাও অংশ নেন।   সকাল ১০টার দিকে হুমায়ূন আহমেদের ভাই জাফর ইকবাল, কার্টুনিস্ট আহসান হাবীব এবং তিন বোন সুফিয়া হায়দার, মমতাজ শহীদ, রোকসানা আহমেদসহ তাদের পরিবারের সদস্যরা নুহাশপল্লীতে আসেন এবং কবর জিয়ারত করেন।   Humayun হুমায়ূন আহমেদের জন্মদিনে কেক কাটছেন স্ত্রী মেহের আফরোজ শাওন, ছেলে নিষাদ ও নিনিত   এদিকে সকাল থেকেই হুমায়ূন আহমেদের ভক্তরা নুহাশপল্লীতে আসছেন। তাদের অনেকেই প্রিয় লেখকের কবরে ফুল দেন এবং নিশ্চুপ দাঁড়িয়ে থেকে তার আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন। আবার অনেকে ঘুরে ঘুরে দেখছেন নুহাশপল্লী।   উল্লেখ্য, লেখক হুমায়ূন আহমেদ ১৯৪৮ সালের ১৩ নভেম্বর নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলার কুতুবপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে ২০১২ সালের ১৯ জুলাই ৬৪ বছর বয়সে আমেরিকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। পরে ২৪ জুলাই গাজীপুরের হোতাপাড়া এলাকায় নুহাশপল্লীর লিচুগাছ তলায় হুমায়ূন আহমেদের মরদেহ দাফন করা হয়।   Humayun হুমায়ূন আহমেদের কবর জিয়ারত শেষে মোনাজাতে অংশ নেন ভাই জাফর ইকবাল, আহসান হাবীব ও তিন বোন   কেন্দুয়া : নেত্রকোনা থেকে রাইজিংবিডির প্রতিনিধি ইকবাল হাসান জানান, হুমায়ূন আহমেদের ৬৮তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আজ তার গ্রামের বাড়ি নেত্রকোনার কেন্দুয়ার কুতুবপুরে প্রতিষ্ঠিত শহীদ স্মৃতি বিদ্যাপীঠের উদ্যোগে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।   বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক আসাদুজ্জামান জানান, দিবসটি উদযাপন উপলক্ষে আজ দুপুরে হুমায়ূন আহমেদের প্রতিকৃতিতে মাল্যদান, কোরআন খতম, বর্ণাঢ্য র‌্যালি, শহীদ স্মৃতি বিদ্যাপীঠে আলোচনা সভা, চলচ্চিত্র প্রদর্শন ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।  

Comments

Comments!

 নুহাশপল্লীতে মানুষের ঢলAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

নুহাশপল্লীতে মানুষের ঢল

Sunday, November 13, 2016 12:57 pm
0-0-0-0

জন্মদিনে হুমায়ূন আহমেদকে শ্রদ্ধা জানাতে, তার কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণে নুহাশপল্লীতে মানুষের ঢল নেমেছে। নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে গাজীপুরের নুহাশপল্লীতে আজ রোববার পালিত হচ্ছে জনপ্রিয় এই লেখকের ৬৮তম জন্মবার্ষিকী।

 

এ উপলক্ষে শনিবার রাতে নুহাশপল্লীতে মোমবাতি প্রজ্বালন করা হয়। আজ ভোরে হুমায়ূন আহমেদের স্ত্রী মেহের আফরোজ শাওন ছেলে নিষাদ ও নিনিতকে নিয়ে নুহাশপল্লীতে আসেন। সকাল সোয়া ৯টার দিকে শাওন ছেলে নিষাদ ও নিনিতকে নিয়ে হুমায়ূন আহমেদের কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণ, ফাতিহা পাঠ করেন ও মোনাজাতে অংশ নেন। পরে হোয়াইট হাউসের সামনে কাটা হয় জন্মদিনের কেক। এসব অনুষ্ঠানে নুহাশপল্লীর কর্মচারীরাও অংশ নেন।

 

সকাল ১০টার দিকে হুমায়ূন আহমেদের ভাই জাফর ইকবাল, কার্টুনিস্ট আহসান হাবীব এবং তিন বোন সুফিয়া হায়দার, মমতাজ শহীদ, রোকসানা আহমেদসহ তাদের পরিবারের সদস্যরা নুহাশপল্লীতে আসেন এবং কবর জিয়ারত করেন।

 

Humayun

হুমায়ূন আহমেদের জন্মদিনে কেক কাটছেন স্ত্রী মেহের আফরোজ শাওন, ছেলে নিষাদ ও নিনিত

 

এদিকে সকাল থেকেই হুমায়ূন আহমেদের ভক্তরা নুহাশপল্লীতে আসছেন। তাদের অনেকেই প্রিয় লেখকের কবরে ফুল দেন এবং নিশ্চুপ দাঁড়িয়ে থেকে তার আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন। আবার অনেকে ঘুরে ঘুরে দেখছেন নুহাশপল্লী।

 

উল্লেখ্য, লেখক হুমায়ূন আহমেদ ১৯৪৮ সালের ১৩ নভেম্বর নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলার কুতুবপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে ২০১২ সালের ১৯ জুলাই ৬৪ বছর বয়সে আমেরিকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। পরে ২৪ জুলাই গাজীপুরের হোতাপাড়া এলাকায় নুহাশপল্লীর লিচুগাছ তলায় হুমায়ূন আহমেদের মরদেহ দাফন করা হয়।

 

Humayun

হুমায়ূন আহমেদের কবর জিয়ারত শেষে মোনাজাতে অংশ নেন ভাই জাফর ইকবাল, আহসান হাবীব ও তিন বোন

 

কেন্দুয়া : নেত্রকোনা থেকে রাইজিংবিডির প্রতিনিধি ইকবাল হাসান জানান, হুমায়ূন আহমেদের ৬৮তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আজ তার গ্রামের বাড়ি নেত্রকোনার কেন্দুয়ার কুতুবপুরে প্রতিষ্ঠিত শহীদ স্মৃতি বিদ্যাপীঠের উদ্যোগে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

 

বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক আসাদুজ্জামান জানান, দিবসটি উদযাপন উপলক্ষে আজ দুপুরে হুমায়ূন আহমেদের প্রতিকৃতিতে মাল্যদান, কোরআন খতম, বর্ণাঢ্য র‌্যালি, শহীদ স্মৃতি বিদ্যাপীঠে আলোচনা সভা, চলচ্চিত্র প্রদর্শন ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X