শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ১:৫০
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, September 3, 2017 11:26 pm
A- A A+ Print

পছন্দের মঞ্চে ইতিহাস গড়ার হাতছানি

3

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়াম জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের খুব কাছের। ক্রিকেটাররা ব্যক্তিগতভাবে এ মাঠকে খুব পছন্দ করেন। বিশেষ কারণ তো অবশ্যই আছে। তবে দলগত সাফল্য পাওয়া যায় বলে সাগরপাড়ের এ মাঠ ক্রিকেটারদের কাছে পয়মন্ত। রঙিন পোশাকে এখানে বাংলাদেশের রেকর্ড বেশ ভালো। তবে সাদা পোশাকে এখনো সেরা সাফল্য পাওয়া হয়নি। যদিও বাংলাদেশ ২০১৪ সালে জিম্বাবুয়েকে একবার হারিয়েছিল এখানে। তাছাড়া ২০১৩ সালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে একবার ড্র করেছিল মুশফিকের দল, যেটা ছিল জয়ের সামিল। সবচেয়ে বড় কথা এ মাঠে বাংলাদেশের টেস্ট ক্রিকেটের বাঁকবদল হয়েছিল। গত বছর অক্টোবরে ইংল্যান্ডকে এ মাঠেই নাকানিচুবানি খাইয়েছিল বাংলাদেশ। যদিও রোমাঞ্চকর টেস্টে জয় পেয়েছিল ইংল্যান্ড। কিন্তু ওই ম্যাচ দিয়ে বিশ্ব ক্রিকেটকে জানিয়ে দেয় রঙিন পোশাকের পাশাপাশি টেস্ট অঙ্গন কাঁপাতে আসছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশ পেরেছেও। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পরের টেস্টে জয়, শ্রীলঙ্কায় নিজেদের শততম টেস্টে জয় এবং ঢাকায় অস্ট্রেলিয়া বধ; সবকিছুর অনুপ্রেরণা গত বছরের চট্টগ্রাম টেস্ট। তাই তো অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টের আগে মুশফিকুর রহিম স্মরণ করিয়ে দিলেন সেই টেস্টর কথা। তিনি বলেন, ‘আমরা তো ইংল্যান্ডের বিপক্ষেও ফ্ল্যাট উইকেট বানিয়ে সিরিজ ড্রয়ের জন্য খেলতে পারতাম। কিন্তু আমরা সেটা করিনি। আমাদের স্ট্রেন্থ অনুযায়ী সেই অ্যাডভান্টেজ নিয়ে চেষ্টা করেছি ভালো ফলের জন্য।’ স্বাগতিক হওয়ার সুবিধা কাজে লাগিয়ে বাংলাদেশ ইংরেজ সাম্রাজ্যের পতন ঘটিয়েছিল স্পিন ট্র্যাক বানিয়ে। সেই ফাঁদে এবার অস্ট্রেলিয়াকেও বধ করেছে বাংলাদেশ। এবার টেস্ট সিরিজ জয়ের পালা। রকেট বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে সোমবার চট্টগ্রামে মাঠে নামছে দুই দল। মুশফিকের দল এবার মাঠে নামবে প্রথমবারের মতো বড় দলের বিপক্ষে সিরিজে এগিয়ে থেকে। অবশ্য বড় দলগুলোর বিপক্ষে সিরিজ জয়ের রেকর্ড নেই বাংলাদেশের। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দুবার, ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে একবার টেস্ট সিরিজ জিতেছে বাংলাদেশ। এবার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজ জিততে পারলে সাফল্যের মুকুটে যুক্ত হবে নতুন পালক। পছন্দের মঞ্চে বাংলাদেশ পেয়েছে পছন্দের উইকেট। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মুশফিকদের চাহিদামতো উইকেট দিয়েছিলেন চট্টগ্রামের কিউরেটর জাহিদ রেজা বাবু। এবারও প্রায় একই উইকেট দিচ্ছেন জাহিদ রেজা। মুশফিকুর রহিম রোববার উইকেট দেখে নিজের সন্তুষ্টির কথাও জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘উইকেট চট্টগ্রামে যেরকম, ঠিক সেরকম এবারও। বৃষ্টির জন্য মাঠকর্মীরা কাজ করতে পারছে না। তারপরও আমরা যেভাবে বলেছি সেভাবেই উইকেট বানানো হয়েছে। আমরা উইকেট নিয়ে খুশি।’ উইকেট স্পিন সহায়ক হয়েছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না। ভাবনা একাদশ নিয়ে। যতটুকু জানা গেছে বাংলাদেশ আট বিশেষজ্ঞ ব্যাটসম্যান নিয়ে মাঠে নামতে যাচ্ছে। দুই পেসারের পরিবর্তে এক পেসার দেখা যাবে এ টেস্টে। একাদশ নিয়ে মুশফিক বলেছেন, ‘একাদশে খুব বেশি পরিবর্তন নাও হতে পারে। হলেও আমাদের ব্যালেন্স খুব ভালো হবে। তবে খুব পরিবর্তনের সম্ভাবনা কম।’ উইকেট, একাদশ সবই পছন্দমতো পাবেন মুশফিক। মাঠের কাজটা যে শতভাগ করতে হবে তা শেষবেলায় মনে করিয়ে দিতে ভুল করেননি দলপতি। না হলে ইতিহাস গড়ার সুবর্ণ সুযোগটা হাত থেকে ফসকে যাবে খুব সহজেই। কারণ মুশফিকের মতে, ‘অস্ট্রেলিয়া ডেঞ্জারাস’।

Comments

Comments!

 পছন্দের মঞ্চে ইতিহাস গড়ার হাতছানিAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

পছন্দের মঞ্চে ইতিহাস গড়ার হাতছানি

Sunday, September 3, 2017 11:26 pm
3

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়াম জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের খুব কাছের। ক্রিকেটাররা ব্যক্তিগতভাবে এ মাঠকে খুব পছন্দ করেন। বিশেষ কারণ তো অবশ্যই আছে। তবে দলগত সাফল্য পাওয়া যায় বলে সাগরপাড়ের এ মাঠ ক্রিকেটারদের কাছে পয়মন্ত।

রঙিন পোশাকে এখানে বাংলাদেশের রেকর্ড বেশ ভালো। তবে সাদা পোশাকে এখনো সেরা সাফল্য পাওয়া হয়নি। যদিও বাংলাদেশ ২০১৪ সালে জিম্বাবুয়েকে একবার হারিয়েছিল এখানে। তাছাড়া ২০১৩ সালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে একবার ড্র করেছিল মুশফিকের দল, যেটা ছিল জয়ের সামিল। সবচেয়ে বড় কথা এ মাঠে বাংলাদেশের টেস্ট ক্রিকেটের বাঁকবদল হয়েছিল। গত বছর অক্টোবরে ইংল্যান্ডকে এ মাঠেই নাকানিচুবানি খাইয়েছিল বাংলাদেশ। যদিও রোমাঞ্চকর টেস্টে জয় পেয়েছিল ইংল্যান্ড। কিন্তু ওই ম্যাচ দিয়ে বিশ্ব ক্রিকেটকে জানিয়ে দেয় রঙিন পোশাকের পাশাপাশি টেস্ট অঙ্গন কাঁপাতে আসছে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশ পেরেছেও। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পরের টেস্টে জয়, শ্রীলঙ্কায় নিজেদের শততম টেস্টে জয় এবং ঢাকায় অস্ট্রেলিয়া বধ; সবকিছুর অনুপ্রেরণা গত বছরের চট্টগ্রাম টেস্ট। তাই তো অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টের আগে মুশফিকুর রহিম স্মরণ করিয়ে দিলেন সেই টেস্টর কথা। তিনি বলেন, ‘আমরা তো ইংল্যান্ডের বিপক্ষেও ফ্ল্যাট উইকেট বানিয়ে সিরিজ ড্রয়ের জন্য খেলতে পারতাম। কিন্তু আমরা সেটা করিনি। আমাদের স্ট্রেন্থ অনুযায়ী সেই অ্যাডভান্টেজ নিয়ে চেষ্টা করেছি ভালো ফলের জন্য।’

স্বাগতিক হওয়ার সুবিধা কাজে লাগিয়ে বাংলাদেশ ইংরেজ সাম্রাজ্যের পতন ঘটিয়েছিল স্পিন ট্র্যাক বানিয়ে। সেই ফাঁদে এবার অস্ট্রেলিয়াকেও বধ করেছে বাংলাদেশ। এবার টেস্ট সিরিজ জয়ের পালা।

রকেট বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে সোমবার চট্টগ্রামে মাঠে নামছে দুই দল। মুশফিকের দল এবার মাঠে নামবে প্রথমবারের মতো বড় দলের বিপক্ষে সিরিজে এগিয়ে থেকে। অবশ্য বড় দলগুলোর বিপক্ষে সিরিজ জয়ের রেকর্ড নেই বাংলাদেশের। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দুবার, ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে একবার টেস্ট সিরিজ জিতেছে বাংলাদেশ। এবার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজ জিততে পারলে সাফল্যের মুকুটে যুক্ত হবে নতুন পালক।

পছন্দের মঞ্চে বাংলাদেশ পেয়েছে পছন্দের উইকেট। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মুশফিকদের চাহিদামতো উইকেট দিয়েছিলেন চট্টগ্রামের কিউরেটর জাহিদ রেজা বাবু। এবারও প্রায় একই উইকেট দিচ্ছেন জাহিদ রেজা। মুশফিকুর রহিম রোববার উইকেট দেখে নিজের সন্তুষ্টির কথাও জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘উইকেট চট্টগ্রামে যেরকম, ঠিক সেরকম এবারও। বৃষ্টির জন্য মাঠকর্মীরা কাজ করতে পারছে না। তারপরও আমরা যেভাবে বলেছি সেভাবেই উইকেট বানানো হয়েছে। আমরা উইকেট নিয়ে খুশি।’

উইকেট স্পিন সহায়ক হয়েছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না। ভাবনা একাদশ নিয়ে। যতটুকু জানা গেছে বাংলাদেশ আট বিশেষজ্ঞ ব্যাটসম্যান নিয়ে মাঠে নামতে যাচ্ছে। দুই পেসারের পরিবর্তে এক পেসার দেখা যাবে এ টেস্টে। একাদশ নিয়ে মুশফিক বলেছেন, ‘একাদশে খুব বেশি পরিবর্তন নাও হতে পারে। হলেও আমাদের ব্যালেন্স খুব ভালো হবে। তবে খুব পরিবর্তনের সম্ভাবনা কম।’

উইকেট, একাদশ সবই পছন্দমতো পাবেন মুশফিক। মাঠের কাজটা যে শতভাগ করতে হবে তা শেষবেলায় মনে করিয়ে দিতে ভুল করেননি দলপতি। না হলে ইতিহাস গড়ার সুবর্ণ সুযোগটা হাত থেকে ফসকে যাবে খুব সহজেই। কারণ মুশফিকের মতে, ‘অস্ট্রেলিয়া ডেঞ্জারাস’।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X