বুধবার, ২১শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৯ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৩:৩৮
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, November 12, 2016 4:28 pm
A- A A+ Print

পর্নো দেখার সময় ধরা পড়লেন মন্ত্রী!

77777

ভারতের কর্ণাটক রাজ্যে একটি অনুষ্ঠানে বসে মোবাইল ফোনে পর্নো দেখার সময় ধরা পড়েছেন রাজ্য সরকারের প্রাথমিক ও উচ্চশিক্ষা-বিষয়ক মন্ত্রী তানভির সাইত। গত বৃহস্পতিবার কর্ণাটকের রায়চূড়ে টিপু জয়ন্তীর একটি রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে গিয়ে মঞ্চে বসেই মোবাইল​ ফোনে পর্নো দেখেন ওই মন্ত্রী। এ ঘটনায় বিজেপি ওই মন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেছে। এ ছাড়া রাজনৈতিক দলসহ অনেকেই নিন্দা জ্ঞাপন করেছেন। দ্য হিন্দুস্তান টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকা টেলিভিশন চ্যানেল কান্নাডা ও টিভি ৯-এ মন্ত্রীর পর্নো দেখার বিষয়টি দেখানো হয়েছে। সেখানে দেখা গেছে, মন্ত্রী এক এক করে অর্ধনগ্ন নারীর ছবি দেখছেন। তবে মন্ত্রী তানভির সাইত এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। তিনি দাবি করেন, মোবাইলে তিনি মায়সোরে টিপু জয়ন্তী অনুষ্ঠানের ছবি দেখার চেষ্টা করছিলেন। ঠিক এই সময়ে কেউ একজন তাঁর হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে ওই ছবিগুলো পাঠিয়েছেন। রাজ্য বিজেপির সভাপতি বি এস ইয়েদ্দ্যুরাপ্পা এক টুইট বার্তায় বলেছেন, পর্নো দেখার অভিযোগে অবিলম্বে তানভির সাইতকে বরখাস্ত করা উচিত। কর্ণাটক প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সভাপতি জি পরমেশ্বর বলেন, এ ব্যাপারে তিনি জানতেন না। এর আগে ২০১২ সালে বিধানসভায় বসে পর্নো দেখার সময় ধরা পড়েছিলেন কর্ণাটক বিজেপির দুই মন্ত্রী লক্ষ্মণ সাভাদি ও সিসি পাতিল। তাঁদের এই পর্নো ক্লিপ সরবরাহ করেছিলেন আরেক মন্ত্রী কৃষ্ণ পালেমার। অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাঁর তিনজনই পদ থেকে ইস্তফা দিতে বাধ্য হয়েছিলেন। এ ছাড়া ২০১৫ সালে ওডিশায় বিধানসভায় বসে পর্নো দেখার অভিযোগে বরখাস্ত করা হয় কংগ্রেস বিধায়ক নবকিশোর দাসকে।

Comments

Comments!

 পর্নো দেখার সময় ধরা পড়লেন মন্ত্রী!AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

পর্নো দেখার সময় ধরা পড়লেন মন্ত্রী!

Saturday, November 12, 2016 4:28 pm
77777

ভারতের কর্ণাটক রাজ্যে একটি অনুষ্ঠানে বসে মোবাইল ফোনে পর্নো দেখার সময় ধরা পড়েছেন রাজ্য সরকারের প্রাথমিক ও উচ্চশিক্ষা-বিষয়ক মন্ত্রী তানভির সাইত।

গত বৃহস্পতিবার কর্ণাটকের রায়চূড়ে টিপু জয়ন্তীর একটি রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে গিয়ে মঞ্চে বসেই মোবাইল​ ফোনে পর্নো দেখেন ওই মন্ত্রী। এ ঘটনায় বিজেপি ওই মন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেছে। এ ছাড়া রাজনৈতিক দলসহ অনেকেই নিন্দা জ্ঞাপন করেছেন।

দ্য হিন্দুস্তান টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকা টেলিভিশন চ্যানেল কান্নাডা ও টিভি ৯-এ মন্ত্রীর পর্নো দেখার বিষয়টি দেখানো হয়েছে। সেখানে দেখা গেছে, মন্ত্রী এক এক করে অর্ধনগ্ন নারীর ছবি দেখছেন।

তবে মন্ত্রী তানভির সাইত এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। তিনি দাবি করেন, মোবাইলে তিনি মায়সোরে টিপু জয়ন্তী অনুষ্ঠানের ছবি দেখার চেষ্টা করছিলেন। ঠিক এই সময়ে কেউ একজন তাঁর হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে ওই ছবিগুলো পাঠিয়েছেন।

রাজ্য বিজেপির সভাপতি বি এস ইয়েদ্দ্যুরাপ্পা এক টুইট বার্তায় বলেছেন, পর্নো দেখার অভিযোগে অবিলম্বে তানভির সাইতকে বরখাস্ত করা উচিত।

কর্ণাটক প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সভাপতি জি পরমেশ্বর বলেন, এ ব্যাপারে তিনি জানতেন না।

এর আগে ২০১২ সালে বিধানসভায় বসে পর্নো দেখার সময় ধরা পড়েছিলেন কর্ণাটক বিজেপির দুই মন্ত্রী লক্ষ্মণ সাভাদি ও সিসি পাতিল। তাঁদের এই পর্নো ক্লিপ সরবরাহ করেছিলেন আরেক মন্ত্রী কৃষ্ণ পালেমার। অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাঁর তিনজনই পদ থেকে ইস্তফা দিতে বাধ্য হয়েছিলেন। এ ছাড়া ২০১৫ সালে ওডিশায় বিধানসভায় বসে পর্নো দেখার অভিযোগে বরখাস্ত করা হয় কংগ্রেস বিধায়ক নবকিশোর দাসকে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X