রবিবার, ১৮ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৬ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৫:০১
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, July 22, 2017 10:24 pm
A- A A+ Print

পাইকারী বাজারে বেড়েছে মোটা চালের দাম

13

ঢাকা: রাজধানীর পাইকারি বাজারে দেশি মোটা ও সরু চালের দাম অপরিবর্তিত থাকলেও এক সপ্তাহের ব্যবধানে কিছুটা বেড়েছে আমদানি করা মোটা চালের দাম। বিক্রেতারা বলছেন, সরকার খোলাবাজারে চাল বিক্রি করলে পাইকারি বাজারে সবধরনের চালের দাম কমবে। এদিকে সপ্তাহ ব্যবধানে অনেকটাই কমেছে চিনি এবং সব ধরনের মসুর ডালের দাম। এছাড়া আমদানি করা পেয়াজের দাম কমলেও অনেকটাই বেড়েছে আদা ও দেশি পেঁয়াজের দাম। রাজধানীর মোহাম্মদপুর চালের আড়তগুলোতে ভরা মৌসুমে দিনাজপুর, নওগাঁ, চাপাইনবাবগঞ্জ, কুষ্টিয়াসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের চাল আসছে। পাইকারি বাজারে মান ভেদে প্রতিকেজি মিনিকেট চাল বিক্রি হচ্ছে ৫০ থেকে ৫৫ টাকা, নাজিরশাইল ৫৫ থেকে ৬৩ টাকা এবঙ আটাশ ৪৪ থেকে ৪৬ টাকা কেজি। সম্প্রতি বাজারে মোটা চালের দাম অস্বাভাবিক হারে বেড়ে যাওয়ার পর সরকারের নীতি সহায়তায় আমদানির ফলে চালের দাম কিছুটা কমে আসছিল কিন্তু গত সাত দিনের ব্যবধানে তা আবার বৃদ্ধি পেয়েছে। এক সপ্তাহের ব্যবধানে ৫ টাকা কমে বাজারে দেশি মসুর ডাল বিক্রি হচ্ছে-প্রতিকেজি ৮৮ টাকায়, আমদানি করা মসুর ৫৩ থেকে ৫৫ টাকা। মুগডালের কেজি মানভেদে ৯৮ থেকে ১০৫ টাকা। এছাড়া প্রতিকেজি চিনি বিক্রি হচ্ছে ৫৩ টাকায়, প্রতিকেজি খোলা সয়বিন ৮৪ টাকায় এবং প্রতিকেজি পামঅয়েল ৭৩ টাকায়। স্থিতিশীল আছে বোতলজাত ভোজ্যতেলের দাম। এদিকে এক সপ্তাহের ব্যবধানে দেশি পেঁয়াজের দাম ৩ থেকে ৪ টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে ২৬ কেজি দরে। এছাড়া আমদানি করা পেঁয়াজ প্রতিকেজি দাম ১৭ থেকে ২০ টাকা এবঙ আদার দাম ১৫ টাকা বেড়ে প্রতিকেজি বিক্রি হচ্ছে মানভেদে ৭৫ থেকে ৮০ টাকায়। এক সপ্তাহের ব্যবধানে পাইকারি বাজারে অপরিবর্তিত আছে আটা ও ময়দার দাম। প্রতিকেজি আটা বিক্রি হচ্ছে ২২ টাকা এবং ময়দা ২৯ টাকা।
 

Comments

Comments!

 পাইকারী বাজারে বেড়েছে মোটা চালের দামAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

পাইকারী বাজারে বেড়েছে মোটা চালের দাম

Saturday, July 22, 2017 10:24 pm
13

ঢাকা: রাজধানীর পাইকারি বাজারে দেশি মোটা ও সরু চালের দাম অপরিবর্তিত থাকলেও এক সপ্তাহের ব্যবধানে কিছুটা বেড়েছে আমদানি করা মোটা চালের দাম। বিক্রেতারা বলছেন, সরকার খোলাবাজারে চাল বিক্রি করলে পাইকারি বাজারে সবধরনের চালের দাম কমবে। এদিকে সপ্তাহ ব্যবধানে অনেকটাই কমেছে চিনি এবং সব ধরনের মসুর ডালের দাম। এছাড়া আমদানি করা পেয়াজের দাম কমলেও অনেকটাই বেড়েছে আদা ও দেশি পেঁয়াজের দাম।

রাজধানীর মোহাম্মদপুর চালের আড়তগুলোতে ভরা মৌসুমে দিনাজপুর, নওগাঁ, চাপাইনবাবগঞ্জ, কুষ্টিয়াসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের চাল আসছে। পাইকারি বাজারে মান ভেদে প্রতিকেজি মিনিকেট চাল বিক্রি হচ্ছে ৫০ থেকে ৫৫ টাকা, নাজিরশাইল ৫৫ থেকে ৬৩ টাকা এবঙ আটাশ ৪৪ থেকে ৪৬ টাকা কেজি।

সম্প্রতি বাজারে মোটা চালের দাম অস্বাভাবিক হারে বেড়ে যাওয়ার পর সরকারের নীতি সহায়তায় আমদানির ফলে চালের দাম কিছুটা কমে আসছিল কিন্তু গত সাত দিনের ব্যবধানে তা আবার বৃদ্ধি পেয়েছে।

এক সপ্তাহের ব্যবধানে ৫ টাকা কমে বাজারে দেশি মসুর ডাল বিক্রি হচ্ছে-প্রতিকেজি ৮৮ টাকায়, আমদানি করা মসুর ৫৩ থেকে ৫৫ টাকা। মুগডালের কেজি মানভেদে ৯৮ থেকে ১০৫ টাকা।

এছাড়া প্রতিকেজি চিনি বিক্রি হচ্ছে ৫৩ টাকায়, প্রতিকেজি খোলা সয়বিন ৮৪ টাকায় এবং প্রতিকেজি পামঅয়েল ৭৩ টাকায়। স্থিতিশীল আছে বোতলজাত ভোজ্যতেলের দাম।

এদিকে এক সপ্তাহের ব্যবধানে দেশি পেঁয়াজের দাম ৩ থেকে ৪ টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে ২৬ কেজি দরে।

এছাড়া আমদানি করা পেঁয়াজ প্রতিকেজি দাম ১৭ থেকে ২০ টাকা এবঙ আদার দাম ১৫ টাকা বেড়ে প্রতিকেজি বিক্রি হচ্ছে মানভেদে ৭৫ থেকে ৮০ টাকায়। এক সপ্তাহের ব্যবধানে পাইকারি বাজারে অপরিবর্তিত আছে আটা ও ময়দার দাম। প্রতিকেজি আটা বিক্রি হচ্ছে ২২ টাকা এবং ময়দা ২৯ টাকা।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X