শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৪:২৩
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, December 18, 2016 1:11 am
A- A A+ Print

পাকিস্তানের চোখে ‘৪২০’

y

পাহাড় ডিঙাতে হবে। পাকিস্তান কি পারবে? অতীত সাক্ষী মানলে ব্রিসবেন টেস্টে হার এড়ানো সম্ভব নয় মিসবাহ-উল হকের দলের। জিততে হলে ৪৯০ রান করতে হবে। যার অর্থ জিততে হবে রেকর্ড গড়ে। আর ম্যাচ বাঁচাতে হলেও গ্যাবায় প্রথম দল হিসেবে চতুর্থ ইনিংসে সবচেয়ে বেশি ওভার খেলার রেকর্ড গড়তে হবে তাদের। দ্বিতীয় ইনিংসে ২ উইকেটে ৭০ তুলে তৃতীয় দিন শেষ করেছে পাকিস্তান। জয়ের জন্য গুণে গুণে ৪২০ রান দরকার তাদের। পাকিস্তানের জন্য অপেক্ষা করছে ১৮০ ওভারও! কোনটি বেশি কঠিন—আরও ৪২০ রান তোলা, নাকি দুটি দিন পার করে দেওয়া? পাকিস্তান যে তবু ম্যাচটা চতুর্থ দিনে নিয়ে ​পারল, সেটাও তো ‘বড় কৃতিত্বে’র। কিছুটা অস্ট্রেলিয়ারও। ৭ রানে ৮ উইকেট হারানো পাকিস্তানের প্রথম ইনিংস এক শর নিচে থেমে যাওয়ার শঙ্কা জেগেছিল। সরফরাজ খানের বীরত্বে তা হয়নি। অপরাজিত ৫৯ রান করে দলকে এনে দেন ১৪২ রান। ফলোঅনে পড়ে পাকিস্তান। তবে ২৮৭ রানের লিড থাকার পরও ফলোঅন না করিয়ে নিজেরাই ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। দ্বিতীয় ইনিংসে ওয়ানডের গতিতে রান তোলে অস্ট্রেলিয়া। ৩৯ ওভারে ৫ উইকেটে ২০২ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করে। ফিফটি করেন উসমান খাজা, জন্মভূমি পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম খেলছেন যিনি। আর প্রথম ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান স্মিথ পেয়ে যান ফিফটিও। এই নিয়ে সপ্তমবারের মতো একই টেস্টে সেঞ্চুরি ও ফিফটি করার কীর্তি গড়েন অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক। ৪০০-এর বেশি রান তাড়া করে টেস্ট জেতার রেকর্ড খুব বেশি নেই, মাত্র চারটি। সর্বোচ্চ রান তাড়া করে টেস্ট জয়ের রেকর্ডটি ওয়েস্ট ইন্ডিজের। ২০০৩ সালে সেন্ট জোন্সে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে জিততে চতুর্থ ইনিংসে ৭ উইকেটে ৪১৮ রান করেছিল তারা। আর পাকিস্তানকে করতে হবে পাঁচ শর কাছাকাছি রান। আপাতদৃষ্টিতে অসম্ভব এই কাজটি পাকিস্তানকে করতে হবে আবার ডে-নাইট টেস্টে। আগের দিন আলোর নিচেই ধসে পড়েছিল তাদের প্রথম ইনিংস। তবে প্রথম ইনিংসের মতো ধস আর এবার নামেনি। দিনের খেলা শেষ হওয়ার আগে ২ উইকেট হারিয়ে ৭০ রান তুলেছে তারা। ১৯ বলে কোনো রান না করে উইকেটে আছেন ইউনুস খান। আজহার আলীও সাবধানে পা ফেলছেন। ৪১ রান তুলতে বল খেলেছেন ১০৪টি। ইউনুস-আজহাররা সাধ্য মতো চেষ্টা করছেন। তবে তাদের কাজটি কত কঠিন তা পরিষ্কার হবে তা গ্যাবার একটি পরিসংখ্যানে তাকালে স্পষ্ট হবে। গ্যাবাতে চতুর্থ ইনিংসে এর আগে ১৫০ ওভারের বেশি ব্যাট করতে পারেনি কোনো দল। আর অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে চতুর্থ ইনিংসে পাকিস্তানের সর্বোচ্চ ১৩৭.৫ ওভার খেলার নজির আছে। সেটাও সেই ১৯৯০ সালের জানুয়ারিতে। মেলবোর্নের সেই টেস্টে চতুর্থ ইনিংসে ৩৩৬ রান করেও ৯২ রানে হেরেছিল পাকিস্তান। কালকেও শেষ হয়ে যেতে পারে টেস্ট। সূত্র: ক্রিকইনফো সংক্ষিপ্ত স্কোর: অস্ট্রেলিয়া: ৪২৯ ও ৩৯ ওভারে ২০২ / ৫ ডিক্লে. (ওয়ার্নার ১২, রেনশ ৬, খাজা ৭৪, স্মিথ ৬৩, হ্যান্ডসকম্ব ৩৫ *, ম্যাডিসন ৪, ওয়েড ১ *; রাহাত ২ / ৪০, আমির ১ / ৩৭, ইয়াসির ১ / ৪৫)। পাকিস্তান ১ম ইনিংস: ৫৫ ওভারে ১৪২ (সরফরাজ ৫৯ *, আমির ২১, রাহাত ৪; বার্ড ৩ / ২৩, হ্যাজলউড ৩ / ২২, স্টার্ক ৩ / ৬৩) ও ৩৩ ওভারে ৭০ / ২ (আসলাম ১৫, আজহার ৪১ *, বাবর ১৪, ইউনুস ০ *; লায়ন ১ / ১৩, স্টার্ক ১ / ২৮)। * তৃতীয় দিন শেষে

Comments

Comments!

 পাকিস্তানের চোখে ‘৪২০’AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

পাকিস্তানের চোখে ‘৪২০’

Sunday, December 18, 2016 1:11 am
y

পাহাড় ডিঙাতে হবে। পাকিস্তান কি পারবে? অতীত সাক্ষী মানলে ব্রিসবেন টেস্টে হার এড়ানো সম্ভব নয় মিসবাহ-উল হকের দলের। জিততে হলে ৪৯০ রান করতে হবে। যার অর্থ জিততে হবে রেকর্ড গড়ে। আর ম্যাচ বাঁচাতে হলেও গ্যাবায় প্রথম দল হিসেবে চতুর্থ ইনিংসে সবচেয়ে বেশি ওভার খেলার রেকর্ড গড়তে হবে তাদের। দ্বিতীয় ইনিংসে ২ উইকেটে ৭০ তুলে তৃতীয় দিন শেষ করেছে পাকিস্তান। জয়ের জন্য গুণে গুণে ৪২০ রান দরকার তাদের। পাকিস্তানের জন্য অপেক্ষা করছে ১৮০ ওভারও! কোনটি বেশি কঠিন—আরও ৪২০ রান তোলা, নাকি দুটি দিন পার করে দেওয়া?

পাকিস্তান যে তবু ম্যাচটা চতুর্থ দিনে নিয়ে ​পারল, সেটাও তো ‘বড় কৃতিত্বে’র। কিছুটা অস্ট্রেলিয়ারও। ৭ রানে ৮ উইকেট হারানো পাকিস্তানের প্রথম ইনিংস এক শর নিচে থেমে যাওয়ার শঙ্কা জেগেছিল। সরফরাজ খানের বীরত্বে তা হয়নি। অপরাজিত ৫৯ রান করে দলকে এনে দেন ১৪২ রান। ফলোঅনে পড়ে পাকিস্তান। তবে ২৮৭ রানের লিড থাকার পরও ফলোঅন না করিয়ে নিজেরাই ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া।
দ্বিতীয় ইনিংসে ওয়ানডের গতিতে রান তোলে অস্ট্রেলিয়া। ৩৯ ওভারে ৫ উইকেটে ২০২ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করে। ফিফটি করেন উসমান খাজা, জন্মভূমি পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম খেলছেন যিনি। আর প্রথম ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান স্মিথ পেয়ে যান ফিফটিও। এই নিয়ে সপ্তমবারের মতো একই টেস্টে সেঞ্চুরি ও ফিফটি করার কীর্তি গড়েন অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক।
৪০০-এর বেশি রান তাড়া করে টেস্ট জেতার রেকর্ড খুব বেশি নেই, মাত্র চারটি। সর্বোচ্চ রান তাড়া করে টেস্ট জয়ের রেকর্ডটি ওয়েস্ট ইন্ডিজের। ২০০৩ সালে সেন্ট জোন্সে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে জিততে চতুর্থ ইনিংসে ৭ উইকেটে ৪১৮ রান করেছিল তারা। আর পাকিস্তানকে করতে হবে পাঁচ শর কাছাকাছি রান।
আপাতদৃষ্টিতে অসম্ভব এই কাজটি পাকিস্তানকে করতে হবে আবার ডে-নাইট টেস্টে। আগের দিন আলোর নিচেই ধসে পড়েছিল তাদের প্রথম ইনিংস। তবে প্রথম ইনিংসের মতো ধস আর এবার নামেনি। দিনের খেলা শেষ হওয়ার আগে ২ উইকেট হারিয়ে ৭০ রান তুলেছে তারা। ১৯ বলে কোনো রান না করে উইকেটে আছেন ইউনুস খান। আজহার আলীও সাবধানে পা ফেলছেন। ৪১ রান তুলতে বল খেলেছেন ১০৪টি।
ইউনুস-আজহাররা সাধ্য মতো চেষ্টা করছেন। তবে তাদের কাজটি কত কঠিন তা পরিষ্কার হবে তা গ্যাবার একটি পরিসংখ্যানে তাকালে স্পষ্ট হবে। গ্যাবাতে চতুর্থ ইনিংসে এর আগে ১৫০ ওভারের বেশি ব্যাট করতে পারেনি কোনো দল। আর অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে চতুর্থ ইনিংসে পাকিস্তানের সর্বোচ্চ ১৩৭.৫ ওভার খেলার নজির আছে। সেটাও সেই ১৯৯০ সালের জানুয়ারিতে। মেলবোর্নের সেই টেস্টে চতুর্থ ইনিংসে ৩৩৬ রান করেও ৯২ রানে হেরেছিল পাকিস্তান। কালকেও শেষ হয়ে যেতে পারে টেস্ট। সূত্র: ক্রিকইনফো

সংক্ষিপ্ত স্কোর:
অস্ট্রেলিয়া: ৪২৯ ও ৩৯ ওভারে ২০২ / ৫ ডিক্লে. (ওয়ার্নার ১২, রেনশ ৬, খাজা ৭৪, স্মিথ ৬৩, হ্যান্ডসকম্ব ৩৫ *, ম্যাডিসন ৪, ওয়েড ১ *; রাহাত ২ / ৪০, আমির ১ / ৩৭, ইয়াসির ১ / ৪৫)।
পাকিস্তান ১ম ইনিংস: ৫৫ ওভারে ১৪২ (সরফরাজ ৫৯ *, আমির ২১, রাহাত ৪; বার্ড ৩ / ২৩, হ্যাজলউড ৩ / ২২, স্টার্ক ৩ / ৬৩) ও ৩৩ ওভারে ৭০ / ২ (আসলাম ১৫, আজহার ৪১ *, বাবর ১৪, ইউনুস ০ *; লায়ন ১ / ১৩, স্টার্ক ১ / ২৮)।
* তৃতীয় দিন শেষে

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X