রবিবার, ১৮ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৬ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৩:০৪
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Friday, June 16, 2017 4:44 am | আপডেটঃ June 16, 2017 4:46 AM
A- A A+ Print

পারলেন না সৌম্য–সাব্বির, টুর্নামেন্টের চার ম্যাচে সৌম্যের রান ২৮, ৩, ৩ ও ০

=

নতুন মঞ্চে নতুন ইতিহাসের হাতছানি ছিল বাংলাদেশের সামনে। নিজেদের যোগ্যতাবলে প্রথমবার চ্যাম্পিয়নস ট্রফি ক্রিকেটে খেলতে গিয়েই সেমিফাইনাল। এই বাধাটা টপকাতে পারলেই ফাইনাল। কিন্তু বাংলাদেশ প্রথমে ব্যাট করে তুলতে পারল ২৬৪ রান। বেশ চ্যালেঞ্জিং স্কোর। তারপরও রান তাড়ায় দুর্ধর্ষ ভারতের সামনে এই রানটা কি যথেষ্ট? এজবাস্টনের সহজ উইকেট সেটি কিন্তু ভাবতে দেয়নি। কিন্তু ভারতের বিপক্ষে ২৬৫ রানের লক্ষ্য দিয়ে কেন থামবে বাংলাদেশ? চ্যাম্পিয়নস ট্রফিজুড়েই ব্যাটিংয়ে যে রকম আলো ছিল, বিপর্যয়ে কারও না কারও প্রতিরোধের দেয়াল তোলার সামর্থ্য দেখা গেল, সেসব কোথায়? তামিম, মুশফিক, মাহমুদউল্লাহ, সাকিব কিছু না কিছু দিয়েছেন। কাল সৌম্য ও সাব্বিরের কাছ থেকে কিছু পাওনা ছিল বাংলাদেশের। না, কালও পারেননি সৌম্য-সাব্বির। টুর্নামেন্টের চার ম্যাচে সৌম্যের রান ২৮, ৩, ৩ ও ০। আয়ারল্যান্ড থেকে দুটি ফিফটি নিয়ে এসেও ইংল্যান্ডে কেমন নড়বড়ে হয়ে গেল তাঁর ব্যাটিং। সৌম্যের মতো এই প্রজন্মের আর যাঁর ব্যাটে নির্ভরতা খোঁজা হয়, সেই সাব্বিরও হতাশার একটা টুর্নামেন্টই কাটাচ্ছেন ইংল্যান্ডে। চার ম্যাচে রান ২৪, ৮, ৮ ও ১৯। সৌম্য প্রথম ওভারেই বলে ব্যাট লাগিয়ে নিজের স্টাম্প ভাঙলেন। তিন নম্বরে নিজের যোগ্যতা প্রমাণের আরেকটি সুযোগ হেলায় হারালেন সাব্বিরও। তাঁর শুরুটা যথারীতি আক্রমণাত্মক। ২১ বলে ১৯ রানের ১৬-ই বাউন্ডারি থেকে। কিন্তু প্রথম ওভারেই সৌম্য আউট হয়ে যাওয়ার পর এত তাড়াহুড়োর বোধ হয় দরকার ছিল না। সৌম্য দ্রুত আউট হয়ে যাওয়ায় সাব্বিরের ভূমিকা বলতে গেলে ওপেনারেরই ছিল। তখন দরকার ছিল তামিম ইকবালের সঙ্গে বড় একটা জুটি গড়া। তাড়াহুড়ো করতে গিয়ে সাব্বির সেটা পারলেন না। কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে সাব্বিরকে তিন নম্বরে থিতু করতে চাইছেন। কিন্তু থিতু হতে পারছেন না সাব্বির। ২০১৬ সালের অক্টোবর থেকে কাল পর্যন্ত ১৪ ওয়ানডেতে তিন নম্বরে নেমে ফিফটি পেয়েছেন মাত্র তিনটি, সর্বোচ্চ ইনিংস ৬৫ রানের। সাব্বিরের ব্যাটিংয়ের প্রধান বৈশিষ্ট্য দ্রুত রান তোলার চেষ্টা। সেটা বেশির ভাগ সময় শট খেলেই করতে চান এই ব্যাটসম্যান। এমন ব্যাটিংয়ে রানের গতি হয়তো কিছু সময়ের জন্য বাড়ানো যায়, কিন্তু তিন নম্বর ব্যাটসম্যানের কাছে যেটা প্রত্যাশা, সেই বড় ইনিংস বেশির ভাগ সময়ই থেকে যায় অদেখা। খুচরো রান নিয়ে স্ট্রাইক বদলাতে তেমন পারেন না। এর চেয়ে ছয়-সাতেই যে এই ব্যাটিংটা বেশি কার্যকর, তা সাব্বিরই দেখিয়েছেন আগে। তবে সাব্বিরের জায়গা তিনেই কি না, তা নিয়ে বোধ হয় ভাবতে শুরু করেছেন কোচ হাথুরুসিংহে।

Comments

Comments!

 পারলেন না সৌম্য–সাব্বির, টুর্নামেন্টের চার ম্যাচে সৌম্যের রান ২৮, ৩, ৩ ও ০AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

পারলেন না সৌম্য–সাব্বির, টুর্নামেন্টের চার ম্যাচে সৌম্যের রান ২৮, ৩, ৩ ও ০

Friday, June 16, 2017 4:44 am | আপডেটঃ June 16, 2017 4:46 AM
=

নতুন মঞ্চে নতুন ইতিহাসের হাতছানি ছিল বাংলাদেশের সামনে। নিজেদের যোগ্যতাবলে প্রথমবার চ্যাম্পিয়নস ট্রফি ক্রিকেটে খেলতে গিয়েই সেমিফাইনাল। এই বাধাটা টপকাতে পারলেই ফাইনাল। কিন্তু বাংলাদেশ প্রথমে ব্যাট করে তুলতে পারল ২৬৪ রান। বেশ চ্যালেঞ্জিং স্কোর। তারপরও রান তাড়ায় দুর্ধর্ষ ভারতের সামনে এই রানটা কি যথেষ্ট? এজবাস্টনের সহজ উইকেট সেটি কিন্তু ভাবতে দেয়নি।
কিন্তু ভারতের বিপক্ষে ২৬৫ রানের লক্ষ্য দিয়ে কেন থামবে বাংলাদেশ? চ্যাম্পিয়নস ট্রফিজুড়েই ব্যাটিংয়ে যে রকম আলো ছিল, বিপর্যয়ে কারও না কারও প্রতিরোধের দেয়াল তোলার সামর্থ্য দেখা গেল, সেসব কোথায়? তামিম, মুশফিক, মাহমুদউল্লাহ, সাকিব কিছু না কিছু দিয়েছেন। কাল সৌম্য ও সাব্বিরের কাছ থেকে কিছু পাওনা ছিল বাংলাদেশের।
না, কালও পারেননি সৌম্য-সাব্বির। টুর্নামেন্টের চার ম্যাচে সৌম্যের রান ২৮, ৩, ৩ ও ০। আয়ারল্যান্ড থেকে দুটি ফিফটি নিয়ে এসেও ইংল্যান্ডে কেমন নড়বড়ে হয়ে গেল তাঁর ব্যাটিং। সৌম্যের মতো এই প্রজন্মের আর যাঁর ব্যাটে নির্ভরতা খোঁজা হয়, সেই সাব্বিরও হতাশার একটা টুর্নামেন্টই কাটাচ্ছেন ইংল্যান্ডে। চার ম্যাচে রান ২৪, ৮, ৮ ও ১৯।
সৌম্য প্রথম ওভারেই বলে ব্যাট লাগিয়ে নিজের স্টাম্প ভাঙলেন। তিন নম্বরে নিজের যোগ্যতা প্রমাণের আরেকটি সুযোগ হেলায় হারালেন সাব্বিরও। তাঁর শুরুটা যথারীতি আক্রমণাত্মক। ২১ বলে ১৯ রানের ১৬-ই বাউন্ডারি থেকে। কিন্তু প্রথম ওভারেই সৌম্য আউট হয়ে যাওয়ার পর এত তাড়াহুড়োর বোধ হয় দরকার ছিল না। সৌম্য দ্রুত আউট হয়ে যাওয়ায় সাব্বিরের ভূমিকা বলতে গেলে ওপেনারেরই ছিল। তখন দরকার ছিল তামিম ইকবালের সঙ্গে বড় একটা জুটি গড়া। তাড়াহুড়ো করতে গিয়ে সাব্বির সেটা পারলেন না।
কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে সাব্বিরকে তিন নম্বরে থিতু করতে চাইছেন। কিন্তু থিতু হতে পারছেন না সাব্বির। ২০১৬ সালের অক্টোবর থেকে কাল পর্যন্ত ১৪ ওয়ানডেতে তিন নম্বরে নেমে ফিফটি পেয়েছেন মাত্র তিনটি, সর্বোচ্চ ইনিংস ৬৫ রানের। সাব্বিরের ব্যাটিংয়ের প্রধান বৈশিষ্ট্য দ্রুত রান তোলার চেষ্টা। সেটা বেশির ভাগ সময় শট খেলেই করতে চান এই ব্যাটসম্যান। এমন ব্যাটিংয়ে রানের গতি হয়তো কিছু সময়ের জন্য বাড়ানো যায়, কিন্তু তিন নম্বর ব্যাটসম্যানের কাছে যেটা প্রত্যাশা, সেই বড় ইনিংস বেশির ভাগ সময়ই থেকে যায় অদেখা। খুচরো রান নিয়ে স্ট্রাইক বদলাতে তেমন পারেন না। এর চেয়ে ছয়-সাতেই যে এই ব্যাটিংটা বেশি কার্যকর, তা সাব্বিরই দেখিয়েছেন আগে। তবে সাব্বিরের জায়গা তিনেই কি না, তা নিয়ে বোধ হয় ভাবতে শুরু করেছেন কোচ হাথুরুসিংহে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X