সোমবার, ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ১১:৩৬
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Tuesday, January 24, 2017 9:27 pm
A- A A+ Print

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে কুরআনের যে দুই আয়াত শোনানো হল

45

যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণের পর আয়োজিত জাতীয় প্রার্থনা সভায় ডোনাল্ড ট্রাম্প পবিত্র কুরআনের দুটি আয়াত শুনেছেন। সূরা হুজরাত ও আর-রূমের আয়াত দুটির মাধ্যমে মানুষের সৃষ্টি, তাদের ভাষা ও জাতীয়তার বৈচিত্র এবং তাকওয়ার (আল্লাহ) স্মরণ করিয়ে দেয়া হয়েছে। স্থানীয় সময় শনিবার ওয়াশিংটনে ট্রাম্পের ক্ষমতাগ্রহণ উপলক্ষে আয়োজিত জাতীয় প্রার্থনা সভায় ইমাম মোহাম্মদ মাগিদ এ আয়াত দুটি তেলাওয়াত করেন। 'ন্যাশনাল ক্যাথেড্রাল' নামের এ প্রার্থনা সভায় সব ধর্মের ২৬জন নেতার অন্যতম ছিলেন ওয়াশিংটনের 'অল ডালাস এরিয়া মুসলিম সোসাইটির' নির্বাহী পরিচালক ইমাম মাগিদ। সুদানি বংশোদ্ভূত এ ইমাম প্রথমে সূরা হুজরাতের ১৩ নম্বর আয়াতের আরবী কেরাত পড়ে শোনান। পরে তিনি এ আয়াতের ইংরেজি অনুবাদও পড়েন। এ আয়াতে বলা হয়ছে, 'হে মানব জাতি, আমি তোমাদেরকে এক পুরুষ ও এক নারী থেকে সৃষ্টি করেছি এবং তোমাদেরকে বিভিন্ন জাতি ও গোত্রে বিভক্ত করেছি, যাতে তোমরা পরস্পরের পরিচিতি হতে পারো। নিশ্চয় আল্লাহর কাছে সেই ব্যক্তি সর্বাধিক সম্মানিত যে সর্বাধিক মুত্তাকি (আল্লাহভীরু)। নিশ্চয় আল্লাহ সব জানেন এবং সবকিছুর খবর রাখেন। এরপর ইমাম মাগিদ সূরা আর-রুমের ২২ নম্বর আয়াতের কেরাত ও অনুবাদ পড়ে শোনান। এ আয়াতে বলা হয়েছে, আল্লাহর নিদর্শনগুলোর অন্যতম হলো আসমান ও পৃথিবীর সৃষ্টি এবং তোমাদের ভাষা ও বর্ণের বৈচিত্র। নিশ্চয় এতে তাদের জন্যে নিদর্শনাবলী রয়েছে, যারা জ্ঞানী। উল্লেখ্য, গত শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের ৪৫তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। এ সময় দেয়া বক্তৃতায় ট্রাম্প 'সবার আগে আমেরিকা' নীতি ঘোষণা করেন। ট্রাম্পের এ নীতির মাধ্যমে জাতি-বর্ণ বৈচিত্রের দেশ আমেরিকা শেতাঙ্গদের একচেটিয়ে দাপট তৈরির ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। এছাড়া তার একপেশে নীতিকে বিশ্ব ব্যবস্থার জন্য হুমকি মনে করা হচ্ছে। এমন সন্ধিক্ষণে ট্রাম্পকে বৈচিত্র বিষয়ক কুরআনের দুটি আয়াত শোনালেন ইমাম মাগিদ। এর মাধ্যমে মার্কিন প্রেসিডেন্টকে কৌশলী বার্তা দেয়া হলো বলে মনে করা হচ্ছে।

Comments

Comments!

 প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে কুরআনের যে দুই আয়াত শোনানো হলAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে কুরআনের যে দুই আয়াত শোনানো হল

Tuesday, January 24, 2017 9:27 pm
45

যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণের পর আয়োজিত জাতীয় প্রার্থনা সভায় ডোনাল্ড ট্রাম্প পবিত্র কুরআনের দুটি আয়াত শুনেছেন।

সূরা হুজরাত ও আর-রূমের আয়াত দুটির মাধ্যমে মানুষের সৃষ্টি, তাদের ভাষা ও জাতীয়তার বৈচিত্র এবং তাকওয়ার (আল্লাহ) স্মরণ করিয়ে দেয়া হয়েছে।

স্থানীয় সময় শনিবার ওয়াশিংটনে ট্রাম্পের ক্ষমতাগ্রহণ উপলক্ষে আয়োজিত জাতীয় প্রার্থনা সভায় ইমাম মোহাম্মদ মাগিদ এ আয়াত দুটি তেলাওয়াত করেন।

‘ন্যাশনাল ক্যাথেড্রাল’ নামের এ প্রার্থনা সভায় সব ধর্মের ২৬জন নেতার অন্যতম ছিলেন ওয়াশিংটনের ‘অল ডালাস এরিয়া মুসলিম সোসাইটির’ নির্বাহী পরিচালক ইমাম মাগিদ।

সুদানি বংশোদ্ভূত এ ইমাম প্রথমে সূরা হুজরাতের ১৩ নম্বর আয়াতের আরবী কেরাত পড়ে শোনান। পরে তিনি এ আয়াতের ইংরেজি অনুবাদও পড়েন।

এ আয়াতে বলা হয়ছে, ‘হে মানব জাতি, আমি তোমাদেরকে এক পুরুষ ও এক নারী থেকে সৃষ্টি করেছি এবং তোমাদেরকে বিভিন্ন জাতি ও গোত্রে বিভক্ত করেছি, যাতে তোমরা পরস্পরের পরিচিতি হতে পারো। নিশ্চয় আল্লাহর কাছে সেই ব্যক্তি সর্বাধিক সম্মানিত যে সর্বাধিক মুত্তাকি (আল্লাহভীরু)। নিশ্চয় আল্লাহ সব জানেন এবং সবকিছুর খবর রাখেন।

এরপর ইমাম মাগিদ সূরা আর-রুমের ২২ নম্বর আয়াতের কেরাত ও অনুবাদ পড়ে শোনান।
এ আয়াতে বলা হয়েছে, আল্লাহর নিদর্শনগুলোর অন্যতম হলো আসমান ও পৃথিবীর সৃষ্টি এবং তোমাদের ভাষা ও বর্ণের বৈচিত্র। নিশ্চয় এতে তাদের জন্যে নিদর্শনাবলী রয়েছে, যারা জ্ঞানী।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের ৪৫তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। এ সময় দেয়া বক্তৃতায় ট্রাম্প ‘সবার আগে আমেরিকা’ নীতি ঘোষণা করেন।

ট্রাম্পের এ নীতির মাধ্যমে জাতি-বর্ণ বৈচিত্রের দেশ আমেরিকা শেতাঙ্গদের একচেটিয়ে দাপট তৈরির ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। এছাড়া তার একপেশে নীতিকে বিশ্ব ব্যবস্থার জন্য হুমকি মনে করা হচ্ছে।

এমন সন্ধিক্ষণে ট্রাম্পকে বৈচিত্র বিষয়ক কুরআনের দুটি আয়াত শোনালেন ইমাম মাগিদ। এর মাধ্যমে মার্কিন প্রেসিডেন্টকে কৌশলী বার্তা দেয়া হলো বলে মনে করা হচ্ছে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X