বুধবার, ২২শে নভেম্বর, ২০১৭ ইং, ৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৩:২৪
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Tuesday, November 14, 2017 7:50 pm
A- A A+ Print

বছরে মোবাইল সেট আমদানিতে বিদেশে যাচ্ছে ৮ হাজার কোটি টাকা: তারানা

1510666854

ঢাকা: ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট তারানা হালিম সংসদকে জানিয়েছেন, দেশের বাজার মোবাইল হ্যান্ডসেট ব্যবসার অনুকূল থাকায় প্রতিবছর ৩ কোটি হ্যান্ডসেট আমদানি করতে হচ্ছে। এতে ৮ হাজার কোটি টাকার বৈদেশিক মুদ্রা বিদেশে চলে যাচ্ছে। মঙ্গলবার টেবিলে উপস্থাপিত সরকার দলীয় সংসদ সদস্য বজলুল হক হারুনের লিখিত প্রশ্নের জবাবে তিনি এ তথ্য জানান। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অধিবেশনে এ সংক্রান্ত প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী জানান, বর্তমানে দেশে মোবাইল গ্রাহক সংখ্যা ১৩ কোটি ৫৯ লাখ ৮২ হাজার এবং দিন দিন গ্রাহক সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। বর্তমানে দেশে মোবাইল ফোনের হ্যান্ডসেটের বাজার প্রায় ৮ হাজার কোটি টাকার। এই চাহিদা পূরণ করতে বিপুল পরিমাণ মোবাইল সেট আমদানি করতে হয়। যার ফলে প্রায় ৮ হাজার কোটি টাকার সমপরিমাণ মূল্যবান বৈদেশিক মুদ্রা বিদেশে চলে যাচ্ছে। তারানা হালিম বলেন, বিপুল পরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা সাশ্রয়, দেশে সুদক্ষ কারিগরী জ্ঞানসম্পন্ন জনবল সৃষ্টি, এখাতে কাঙ্খিত বৈদেশিক বিনিয়োগ আকর্ষণ, দেশে নতুন কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি, অবৈধ আমদানি বন্ধ এবং দেশি বিনিয়োগকারীদের জন্য সময়োপযোগী বিনিয়োগের নতুন কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টিতে স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোনসেট সংযোজন ও উৎপাদনের জন্য যন্ত্রপাতি আমদানীর ক্ষেত্রে এক শতাংশ আমদানি শুল্ক নির্ধারণ করে গত ১ জুন প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। প্রজ্ঞাপনে এসকেডি পদ্ধতিতে স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট সংযোজন ও উৎপাদনের জন্য যন্ত্রপাতি আমদানির ক্ষেত্রে ১০ শতাংশ এবং সিকেডি পদ্ধতিতে মোবাইল ফোন আমদানির ক্ষেত্রে এক শতাংশ আমদানি শুল্ক প্রযোজ্য হবে। ফলে অচিরেই আমদানির পরিবর্তে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট বিদেশে রফতানি করে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করার সুযোগ সৃষ্টি হবে। প্রতিমন্ত্রী জানান, ইতোমধ্যে ওয়াল্টন স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট সংযোজন, উৎপাদন, বাজারজাতকরণের অনুমতির জন্য অনুমতির আবেদন করেছে। আবেদনে তারা জানিয়েছে, বছরে ৫০ লাখ মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট স্থানীয়ভাবে সংযোজন ও উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে। এছাড়া ‘সিম্ফুনি’ ও ‘ওকাপিয়া’ ব্র্যান্ডের হ্যান্ডসেট আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানসমূহও স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট সংযোজন, উৎপাদন ও বাজারজাতকরণের ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। সকল ডাকঘরে ইএমটিএস সার্ভিস চালু হবে আওয়ামী লীগ দলীয় সংসদ সদস্য হাবিবুর রহমানের প্রশ্নের জবাবে ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম জানান, বর্তমানে ২ হাজার ৭৫০টি পোস্ট অফিসে ইএমটিএস (মোবাইলের মাধ্যমে টাকা প্রেরণ) সেবা চালু আছে। পর্যায়ক্রমে সকল ডাকঘরে এই সেবা সম্প্রসারণ করা হবে। এছাড়া এজেন্টের মাধ্যমে ২৬ হাজার আউটলেট ইএমটিএস (মোবাইলের মাধ্যমে টাকা প্রেরণ) সার্ভিস চালু করা হয়েছে। সরকারি দলের সদস্য মমতাজ বেগমের আরেক প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, নিরাপদে দেশের ভেতরে এক স্থান হতে অন্য স্থানে টাকা পরিবহনের লক্ষ্যে ‘পোস্টাল ক্যাশ কার্ড’ নামে একটি নতুন সার্ভিস প্রবর্তন করা হয়েছে। সারাদেশে এ পর্যন্ত এক হাজার ৩৭৪টি পোস্টাল ক্যাশকার্ড সার্ভিস পিওএস মেশিনের মাধ্যমে চালু আছে।

Comments

Comments!

 বছরে মোবাইল সেট আমদানিতে বিদেশে যাচ্ছে ৮ হাজার কোটি টাকা: তারানাAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

বছরে মোবাইল সেট আমদানিতে বিদেশে যাচ্ছে ৮ হাজার কোটি টাকা: তারানা

Tuesday, November 14, 2017 7:50 pm
1510666854

ঢাকা: ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট তারানা হালিম সংসদকে জানিয়েছেন, দেশের বাজার মোবাইল হ্যান্ডসেট ব্যবসার অনুকূল থাকায় প্রতিবছর ৩ কোটি হ্যান্ডসেট আমদানি করতে হচ্ছে। এতে ৮ হাজার কোটি টাকার বৈদেশিক মুদ্রা বিদেশে চলে যাচ্ছে।

মঙ্গলবার টেবিলে উপস্থাপিত সরকার দলীয় সংসদ সদস্য বজলুল হক হারুনের লিখিত প্রশ্নের জবাবে তিনি এ তথ্য জানান।

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অধিবেশনে এ সংক্রান্ত প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী জানান, বর্তমানে দেশে মোবাইল গ্রাহক সংখ্যা ১৩ কোটি ৫৯ লাখ ৮২ হাজার এবং দিন দিন গ্রাহক সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে।
বর্তমানে দেশে মোবাইল ফোনের হ্যান্ডসেটের বাজার প্রায় ৮ হাজার কোটি টাকার। এই চাহিদা পূরণ করতে বিপুল পরিমাণ মোবাইল সেট আমদানি করতে হয়। যার ফলে প্রায় ৮ হাজার কোটি টাকার সমপরিমাণ মূল্যবান বৈদেশিক মুদ্রা বিদেশে চলে যাচ্ছে।

তারানা হালিম বলেন, বিপুল পরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা সাশ্রয়, দেশে সুদক্ষ কারিগরী জ্ঞানসম্পন্ন জনবল সৃষ্টি, এখাতে কাঙ্খিত বৈদেশিক বিনিয়োগ আকর্ষণ, দেশে নতুন কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি, অবৈধ আমদানি বন্ধ এবং দেশি বিনিয়োগকারীদের জন্য সময়োপযোগী বিনিয়োগের নতুন কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টিতে স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোনসেট সংযোজন ও উৎপাদনের জন্য যন্ত্রপাতি আমদানীর ক্ষেত্রে এক শতাংশ আমদানি শুল্ক নির্ধারণ করে গত ১ জুন প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

প্রজ্ঞাপনে এসকেডি পদ্ধতিতে স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট সংযোজন ও উৎপাদনের জন্য যন্ত্রপাতি আমদানির ক্ষেত্রে ১০ শতাংশ এবং সিকেডি পদ্ধতিতে মোবাইল ফোন আমদানির ক্ষেত্রে এক শতাংশ আমদানি শুল্ক প্রযোজ্য হবে। ফলে অচিরেই আমদানির পরিবর্তে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট বিদেশে রফতানি করে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করার সুযোগ সৃষ্টি হবে।

প্রতিমন্ত্রী জানান, ইতোমধ্যে ওয়াল্টন স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট সংযোজন, উৎপাদন, বাজারজাতকরণের অনুমতির জন্য অনুমতির আবেদন করেছে। আবেদনে তারা জানিয়েছে, বছরে ৫০ লাখ মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট স্থানীয়ভাবে সংযোজন ও উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে। এছাড়া ‘সিম্ফুনি’ ও ‘ওকাপিয়া’ ব্র্যান্ডের হ্যান্ডসেট আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানসমূহও স্থানীয়ভাবে মোবাইল ফোন হ্যান্ডসেট সংযোজন, উৎপাদন ও বাজারজাতকরণের ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেছে।

সকল ডাকঘরে ইএমটিএস সার্ভিস চালু হবে
আওয়ামী লীগ দলীয় সংসদ সদস্য হাবিবুর রহমানের প্রশ্নের জবাবে ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম জানান, বর্তমানে ২ হাজার ৭৫০টি পোস্ট অফিসে ইএমটিএস (মোবাইলের মাধ্যমে টাকা প্রেরণ) সেবা চালু আছে। পর্যায়ক্রমে সকল ডাকঘরে এই সেবা সম্প্রসারণ করা হবে। এছাড়া এজেন্টের মাধ্যমে ২৬ হাজার আউটলেট ইএমটিএস (মোবাইলের মাধ্যমে টাকা প্রেরণ) সার্ভিস চালু করা হয়েছে।

সরকারি দলের সদস্য মমতাজ বেগমের আরেক প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, নিরাপদে দেশের ভেতরে এক স্থান হতে অন্য স্থানে টাকা পরিবহনের লক্ষ্যে ‘পোস্টাল ক্যাশ কার্ড’ নামে একটি নতুন সার্ভিস প্রবর্তন করা হয়েছে। সারাদেশে এ পর্যন্ত এক হাজার ৩৭৪টি পোস্টাল ক্যাশকার্ড সার্ভিস পিওএস মেশিনের মাধ্যমে চালু আছে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X