শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৬:৩৬
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Monday, November 14, 2016 9:21 pm
A- A A+ Print

বহুজাতিক কোম্পানির তালিকাভুক্তিতে উদ্যোগ নিচ্ছে সরকার

download-3

বহুজাতিক কোম্পানিকে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত করতে উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। এজন্য পুঁজিবাজার সংশ্লিষ্টদের কাছ থেকে লিখিত প্রস্তাব চেয়েছে অর্থমন্ত্রণালয়। গতকাল অর্থমন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব কামরুন নাহারের সভাপতিত্বে স্টেকহোল্ডার সঙ্গে অনুষ্ঠিত বৈঠকে সরকারের পক্ষ থেকে এ লিখিত প্রস্তাব চাওয়া হয়েছে। জানা গেছে, পুঁজিবাজারের গভীরতা বাড়াতে অর্থমন্ত্রণালয় স্টেকহোল্ডারদের মতামতকে গুরুত্ব দিয়েছে। একইসঙ্গে যত দ্রুত সম্ভব বিদেশী কোম্পানিগুলোকে তালিকাভুক্তিতে আগ্রহের কথাও জানিয়েছে। বৈঠক সূত্রে জানা গেছে, উভয় স্টক একচেঞ্জ, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড একচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি), পাবলিক লিস্টেড কোম্পানির প্রতিনিধি এবং অন্যান্য নিয়ন্ত্রক সংস্থার প্রতিনিধিরা বাজারে দ্রুত বহুজাতিক কোম্পানিকে তালিকাভুক্তির তাগিদ দেন। তবে তাদের পক্ষ থেকে সুনিদির্ষ্ট কোন মন্তব্য পাওয়া যায়নি। সে কারণে কিভাবে কোম্পানিগুলোকে বাজারে আগ্রহী করা যায়, সেটিও গুরুত্ব দিচ্ছে সরকার। বৈঠকে বাংলাদেশ ব্যাংক, অর্থ বিভাগ, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি বিভাগ, শিল্প, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি), জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবি আর), অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা), বাংলাদেশ রফতানি প্রক্রিয়াকরণ এলাকা কর্তৃপক্ষ (বেপজা), বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ, ডাক ও টেলিযোগাযোগ এবং বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। জানা গেছে, দেশে সাড়ে ৩শ’র বেশি নিবন্ধিত বিদেশি কোম্পানি বিভিন্ন ধরনের ব্যবসা করছে। ওষুধ, টেলিযোগাযোগ, জ্বালানি, প্রসাধন সামগ্রী, শিশু খাদ্যসহ পণ্যবাজারের একটি বড় অংশ এসব কোম্পানির দখলে। বছর গেলে বড় মুনাফাও করে প্রতিষ্ঠানগুলো। তবে গত সাত বছরে কোনো বহুজাতিক কোম্পানি পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়নি। এজন্য বিভিন্ন উদ্যোগ নেওয়া হলেও তেমন কাজে আসেনি। এদিকে, ২০০৯ সালে গ্রামীণফোনের পর আর কোনো বিদেশি কোম্পানি পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়নি। বর্তমানে সাড়ে ৩’শ নিবন্ধিত প্রতিষ্ঠান থাকলেও পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আছে মাত্র ১২টি।  

Comments

Comments!

 বহুজাতিক কোম্পানির তালিকাভুক্তিতে উদ্যোগ নিচ্ছে সরকারAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

বহুজাতিক কোম্পানির তালিকাভুক্তিতে উদ্যোগ নিচ্ছে সরকার

Monday, November 14, 2016 9:21 pm
download-3

বহুজাতিক কোম্পানিকে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত করতে উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। এজন্য পুঁজিবাজার সংশ্লিষ্টদের কাছ থেকে লিখিত প্রস্তাব চেয়েছে অর্থমন্ত্রণালয়। গতকাল অর্থমন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব কামরুন নাহারের সভাপতিত্বে স্টেকহোল্ডার সঙ্গে অনুষ্ঠিত বৈঠকে সরকারের পক্ষ থেকে এ লিখিত প্রস্তাব চাওয়া হয়েছে।

জানা গেছে, পুঁজিবাজারের গভীরতা বাড়াতে অর্থমন্ত্রণালয় স্টেকহোল্ডারদের মতামতকে গুরুত্ব দিয়েছে। একইসঙ্গে যত দ্রুত সম্ভব বিদেশী কোম্পানিগুলোকে তালিকাভুক্তিতে আগ্রহের কথাও জানিয়েছে।

বৈঠক সূত্রে জানা গেছে, উভয় স্টক একচেঞ্জ, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড একচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি), পাবলিক লিস্টেড কোম্পানির প্রতিনিধি এবং অন্যান্য নিয়ন্ত্রক সংস্থার প্রতিনিধিরা বাজারে দ্রুত বহুজাতিক কোম্পানিকে তালিকাভুক্তির তাগিদ দেন। তবে তাদের পক্ষ থেকে সুনিদির্ষ্ট কোন মন্তব্য পাওয়া যায়নি। সে কারণে কিভাবে কোম্পানিগুলোকে বাজারে আগ্রহী করা যায়, সেটিও গুরুত্ব দিচ্ছে সরকার।

বৈঠকে বাংলাদেশ ব্যাংক, অর্থ বিভাগ, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি বিভাগ, শিল্প, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি), জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবি আর), অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা), বাংলাদেশ রফতানি প্রক্রিয়াকরণ এলাকা কর্তৃপক্ষ (বেপজা), বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ, ডাক ও টেলিযোগাযোগ এবং বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

জানা গেছে, দেশে সাড়ে ৩শ’র বেশি নিবন্ধিত বিদেশি কোম্পানি বিভিন্ন ধরনের ব্যবসা করছে। ওষুধ, টেলিযোগাযোগ, জ্বালানি, প্রসাধন সামগ্রী, শিশু খাদ্যসহ পণ্যবাজারের একটি বড় অংশ এসব কোম্পানির দখলে। বছর গেলে বড় মুনাফাও করে প্রতিষ্ঠানগুলো। তবে গত সাত বছরে কোনো বহুজাতিক কোম্পানি পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়নি। এজন্য বিভিন্ন উদ্যোগ নেওয়া হলেও তেমন কাজে আসেনি।
এদিকে, ২০০৯ সালে গ্রামীণফোনের পর আর কোনো বিদেশি কোম্পানি পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়নি। বর্তমানে সাড়ে ৩’শ নিবন্ধিত প্রতিষ্ঠান থাকলেও পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আছে মাত্র ১২টি।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X