বৃহস্পতিবার, ২৪শে আগস্ট, ২০১৭ ইং, ৯ই ভাদ্র, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ১২:৩৬
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Friday, April 21, 2017 8:51 am
A- A A+ Print

বাটলার-রানার ব্যাটিং তাণ্ডবে বৃথা গেল আমলার সেঞ্চুরি

3

লাসিথ মালিঙ্গাকে বেধড়ক পিটিয়ে টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নেন হাশিম আমলা। তার ৬০ বলে খেলা অপরাজিত ১০৪ রানে ভর করে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিপক্ষে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১৯৮ রান। স্কোরবোর্ডে ১৯৮ রান স্বস্তি দিচ্ছিল গ্লেন ম্যাক্সওয়েল ও পাঞ্জাবের সমর্থকদের। কিন্তু দিনশেষে স্বস্তি থাকেনি। জস বাটলার ও নিতিশ রানার ব্যাটিং তাণ্ডবে ২৭ বল ও ৮ উইকেট হাতে রেখেই জয় তুলে নিয়েছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ফলে বৃথা গেল আমলার সেঞ্চুরি। বৃহস্পতিবার ইন্দোরের হলকার স্টেডিয়ামে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে প্রথম ১০ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে ৬৯ রান তোলে পাঞ্জাব। পরের ১০ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে তোলে ১২৯ রান! তাতে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৯৮ রানের সংগ্রহ পায় প্রীতি জিনতার দল। ব্যাট হাতে হাশিম আমলা ৬০ বলে ৮ চার ও ৬ ছক্কায় অপরাজিত ১০৪ রান করেন। ১৮ বলে ৪টি চার ও ৩ ছক্কায় ৪০ রান করে আউট হন ম্যাক্সওয়েল। ২৬ রান করেন শন মার্শ। বল হাতে মুম্বাইর মিশেল ম্যাক্লেনাঘান ২টি উইকেট নেন। জাসপ্রিত বুমরাহ ও ক্রুনাল পান্ডিয়া ১টি করে উইকেট নেন। ১৯৯ রানের জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে পার্থিব প্যাটেল ও জস বাটলার উদ্বোধনী জুটিতে ৮১ রান তোলেন। এই রানের মাথায় মার্কাস স্টয়েনিসের বলে পার্থিব প্যাটেল ১৮ বলে ৪ চার ও ২ ছক্কায় ৩৭ রান করে আউট হন। দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে বাটলার ও নিতিশ রানা ৮৫ রান তোলেন। দলীয় ১৬৬ রানের মাথায় মোহিত শর্মার বলে আউট হন বাটলার। যাওয়ার আগে ৩৭ বলে ৭টি চার ও ৫টি ছক্কায় ৭৭ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলে যান। বাটলার আউট হলেও নিতিশ রানা তার তাণ্ডব অব্যাহত রাখেন। তার সঙ্গে হার্দিক পান্ডিয়াও সমান তালে রান তোলেন। তাতে ১৫.৩ ওভারে ২ উইকেট হারিয়েই জয়ের বন্দরে নোঙর করে মুম্বাই। নিতিশ রানা ৩৪ বলে ৭টি ছক্কায় ৬২ রানে অপরাজিত থাকেন। তার সঙ্গে ৪ বলে ২ চার ও ১ ছক্কায় ১৫ রানে অপরাজিত থাকেন পান্ডিয়া। ম্যাচসেরা নির্বাচিত হন জস বাটলার।

Comments

Comments!

 বাটলার-রানার ব্যাটিং তাণ্ডবে বৃথা গেল আমলার সেঞ্চুরিAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

বাটলার-রানার ব্যাটিং তাণ্ডবে বৃথা গেল আমলার সেঞ্চুরি

Friday, April 21, 2017 8:51 am
3

লাসিথ মালিঙ্গাকে বেধড়ক পিটিয়ে টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নেন হাশিম আমলা। তার ৬০ বলে খেলা অপরাজিত ১০৪ রানে ভর করে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিপক্ষে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১৯৮ রান।

স্কোরবোর্ডে ১৯৮ রান স্বস্তি দিচ্ছিল গ্লেন ম্যাক্সওয়েল ও পাঞ্জাবের সমর্থকদের। কিন্তু দিনশেষে স্বস্তি থাকেনি। জস বাটলার ও নিতিশ রানার ব্যাটিং তাণ্ডবে ২৭ বল ও ৮ উইকেট হাতে রেখেই জয় তুলে নিয়েছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ফলে বৃথা গেল আমলার সেঞ্চুরি।

বৃহস্পতিবার ইন্দোরের হলকার স্টেডিয়ামে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে প্রথম ১০ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে ৬৯ রান তোলে পাঞ্জাব। পরের ১০ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে তোলে ১২৯ রান! তাতে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৯৮ রানের সংগ্রহ পায় প্রীতি জিনতার দল।

ব্যাট হাতে হাশিম আমলা ৬০ বলে ৮ চার ও ৬ ছক্কায় অপরাজিত ১০৪ রান করেন। ১৮ বলে ৪টি চার ও ৩ ছক্কায় ৪০ রান করে আউট হন ম্যাক্সওয়েল। ২৬ রান করেন শন মার্শ। বল হাতে মুম্বাইর মিশেল ম্যাক্লেনাঘান ২টি উইকেট নেন। জাসপ্রিত বুমরাহ ও ক্রুনাল পান্ডিয়া ১টি করে উইকেট নেন।

১৯৯ রানের জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে পার্থিব প্যাটেল ও জস বাটলার উদ্বোধনী জুটিতে ৮১ রান তোলেন। এই রানের মাথায় মার্কাস স্টয়েনিসের বলে পার্থিব প্যাটেল ১৮ বলে ৪ চার ও ২ ছক্কায় ৩৭ রান করে আউট হন। দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে বাটলার ও নিতিশ রানা ৮৫ রান তোলেন। দলীয় ১৬৬ রানের মাথায় মোহিত শর্মার বলে আউট হন বাটলার। যাওয়ার আগে ৩৭ বলে ৭টি চার ও ৫টি ছক্কায় ৭৭ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলে যান।

বাটলার আউট হলেও নিতিশ রানা তার তাণ্ডব অব্যাহত রাখেন। তার সঙ্গে হার্দিক পান্ডিয়াও সমান তালে রান তোলেন। তাতে ১৫.৩ ওভারে ২ উইকেট হারিয়েই জয়ের বন্দরে নোঙর করে মুম্বাই। নিতিশ রানা ৩৪ বলে ৭টি ছক্কায় ৬২ রানে অপরাজিত থাকেন। তার সঙ্গে ৪ বলে ২ চার ও ১ ছক্কায় ১৫ রানে অপরাজিত থাকেন পান্ডিয়া।

ম্যাচসেরা নির্বাচিত হন জস বাটলার।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X