রবিবার, ১৮ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৬ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৭:৩৭
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Friday, December 9, 2016 11:56 am
A- A A+ Print

ব্যাংকের রিজার্ভ চুরিতে পাঁচ কর্মকর্তার অবহেলা ছিল : রয়টার্সের প্রতিবেদন

163620_1

নিউ ইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংকে সঞ্চিত বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের পাঁচ কর্মকর্তার দায়িত্বে অবহেলা ও অসতর্কতার প্রমাণ পেয়েছে তদন্ত কমিটি। গত ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভের ৮ কোটি ১০ লাখ ডলার চুরির ঘটনা ঘটে। পরে এ ঘটনায় বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. মোহাম্মদ ফরাসউদ্দিনের নেতৃত্বে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। ওই কমিটি গত মে মাসে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিলেও তা প্রকাশ করেনি সরকার। কয়েক দফায় অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত প্রতিবেদন প্রকাশের ঘোষণা দিলেও শেষ পর্যন্ত তার আর প্রকাশ করা হয়নি।
তদন্ত কমিটির প্রধান ফরাসউদ্দিনকে উদ্ধৃত করে বৃহস্পতিবার বার্তাসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, রিজার্ভ চুরির ঘটনায় বাংলাদেশ ব্যাংকের নিম্ন ও মধ্য পর্যায়ের পাঁচ কর্মকর্তাদের অবহেলা পাওয়া গেলেও তারা এই অপরাধে সরাসরি জড়িত ছিলেন না। নিজ কার্যালয়ে এক সাক্ষাৎকারে ফরাসউদ্দিন বলেন, তাদের অবহেলা, অসতর্কতা ও পরোক্ষ সহযোগিতা ছিল। কমিটি এই সিদ্ধান্তে পৌঁছায় যে, এই চুরির পেছনে ছিল বাইরের কেউ। তবে তিনি ওই কর্মকর্তাদের নাম-পরিচয় প্রকাশ করেননি। নাম প্রকাশ না করার শর্তে বাংলাদেশ ব্যাংকের এক কর্মকর্তা  বলেছেন, এ ঘটনায় তদন্ত প্রতিবেদন জনসম্মুখে প্রকাশের আগ পর্যন্ত কোনো কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। তবে এ বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্র শুভঙ্কর শাহ কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। অবশ্য তদন্ত প্রতিবেদন জনসম্মুখে প্রকাশের পক্ষে  যুক্তি তুলে ধরে ফরাসউদ্দিন রয়টার্সকে বলেছেন, সরকার যদি এটা প্রকাশ করে তাহলে বাংলাদেশ ব্যাংকের অবস্থান আরো শক্তিশালী হবে। আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সম্প্রতি এই প্রতিবেদন ফিলিপিন্স সরকারকে দেয়ার কথা বলেছেন। গত ফেব্রুয়ারিতে সুইফট সিস্টেমে ভুয়া পরিশোধ অর্ডার পাঠিয়ে নিউইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভে রক্ষিত বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রায় ১০ কোটি ডলার সরিয়ে নেয় হ্যাকাররা। এর মধ্যে ৮ কোটি ১০ লাখ ফিলিপিন্সের রিজল কর্মশিয়াল ব্যাংকিং কর্পোরেশন- আরসিবিসির একটি শাখা হয়ে জুয়ার বাজারে চলে যায়। পরে ফিলিপিন্সের কেন্দ্রীয় ব্যাংক এজন্য রিজল ব্যাংককে ২০ কোটি ডলার জরিমানা করে। জরিমানার অর্থ পরিশোধ করলেও বাংলাদেশের অর্থ ফেরত দিতে কিংবা দায় নিতে নারাজ আরসিবিসি।
 

Comments

Comments!

 ব্যাংকের রিজার্ভ চুরিতে পাঁচ কর্মকর্তার অবহেলা ছিল : রয়টার্সের প্রতিবেদনAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

ব্যাংকের রিজার্ভ চুরিতে পাঁচ কর্মকর্তার অবহেলা ছিল : রয়টার্সের প্রতিবেদন

Friday, December 9, 2016 11:56 am
163620_1

নিউ ইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংকে সঞ্চিত বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের পাঁচ কর্মকর্তার দায়িত্বে অবহেলা ও অসতর্কতার প্রমাণ পেয়েছে তদন্ত কমিটি।

গত ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভের ৮ কোটি ১০ লাখ ডলার চুরির ঘটনা ঘটে। পরে এ ঘটনায় বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. মোহাম্মদ ফরাসউদ্দিনের নেতৃত্বে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।

ওই কমিটি গত মে মাসে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিলেও তা প্রকাশ করেনি সরকার। কয়েক দফায় অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত প্রতিবেদন প্রকাশের ঘোষণা দিলেও শেষ পর্যন্ত তার আর প্রকাশ করা হয়নি।

তদন্ত কমিটির প্রধান ফরাসউদ্দিনকে উদ্ধৃত করে বৃহস্পতিবার বার্তাসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, রিজার্ভ চুরির ঘটনায় বাংলাদেশ ব্যাংকের নিম্ন ও মধ্য পর্যায়ের পাঁচ কর্মকর্তাদের অবহেলা পাওয়া গেলেও তারা এই অপরাধে সরাসরি জড়িত ছিলেন না।

নিজ কার্যালয়ে এক সাক্ষাৎকারে ফরাসউদ্দিন বলেন, তাদের অবহেলা, অসতর্কতা ও পরোক্ষ সহযোগিতা ছিল। কমিটি এই সিদ্ধান্তে পৌঁছায় যে, এই চুরির পেছনে ছিল বাইরের কেউ।

তবে তিনি ওই কর্মকর্তাদের নাম-পরিচয় প্রকাশ করেননি।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে বাংলাদেশ ব্যাংকের এক কর্মকর্তা  বলেছেন, এ ঘটনায় তদন্ত প্রতিবেদন জনসম্মুখে প্রকাশের আগ পর্যন্ত কোনো কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়নি।

তবে এ বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্র শুভঙ্কর শাহ কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

অবশ্য তদন্ত প্রতিবেদন জনসম্মুখে প্রকাশের পক্ষে  যুক্তি তুলে ধরে ফরাসউদ্দিন রয়টার্সকে বলেছেন, সরকার যদি এটা প্রকাশ করে তাহলে বাংলাদেশ ব্যাংকের অবস্থান আরো শক্তিশালী হবে।

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সম্প্রতি এই প্রতিবেদন ফিলিপিন্স সরকারকে দেয়ার কথা বলেছেন।

গত ফেব্রুয়ারিতে সুইফট সিস্টেমে ভুয়া পরিশোধ অর্ডার পাঠিয়ে নিউইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভে রক্ষিত বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রায় ১০ কোটি ডলার সরিয়ে নেয় হ্যাকাররা।

এর মধ্যে ৮ কোটি ১০ লাখ ফিলিপিন্সের রিজল কর্মশিয়াল ব্যাংকিং কর্পোরেশন- আরসিবিসির একটি শাখা হয়ে জুয়ার বাজারে চলে যায়।

পরে ফিলিপিন্সের কেন্দ্রীয় ব্যাংক এজন্য রিজল ব্যাংককে ২০ কোটি ডলার জরিমানা করে। জরিমানার অর্থ পরিশোধ করলেও বাংলাদেশের অর্থ ফেরত দিতে কিংবা দায় নিতে নারাজ আরসিবিসি।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X