শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৬:৩৭
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, July 2, 2017 5:52 pm
A- A A+ Print

মুসলিম নিধন প্রতিরোধে ব্যর্থতা ক্ষমার অযোগ্য: মাহমুদুর রহমান

20170702_125712

আমার দেশ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমান বলেছেন, এই সরকার দিল্লির আশীর্বাদপুষ্ট। কিন্তু বিরোধীদল এমনকি ইসলামপন্থী দলগুলোও ভারতের মুসলিম নিধনের বিষয়ে চুপ রয়েছে। তারাও দিল্লির আশীর্বাদ পেয়ে ক্ষমতায় যেতে চায়। মুসলিম নিধন প্রতিরোধে এই ব্যর্থতা ক্ষমার অযোগ্য। রোববার দুপুরে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে 'গো রক্ষা আন্দোলনের নামে মুসলিম হত্যার প্রতিবাদে' আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। মাহমুদুর রহমান বলেন, ভারতের বিজেপি সরকারের নেতৃত্বে গো রক্ষা আন্দোলনের নামে মুসিলমদের ওপর নির্যাতন করা হচ্ছে। নির্যাতন থেকে রেহাই পায়নি ১৫ বছরের কিশোর জুনায়েদ। তিনি বলেন, ২০০২ সালে গুজরাটে দাঙ্গার নেতৃত্ব দিয়ে মুসলিমদের নিধন করেছিল মোদি। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর পুরো দেশের মুসলমানদের নিধন করছেন। মাহমুদুর রহমান বলেন, আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নিজেও গরুর মাংস খান। কয়েকদিন আগে মোদি মার্কিন সফরে গিয়ে ট্রাম্পের সঙ্গে উষ্ণ আলিঙ্গনে আবদ্ধ হন। তিনিও জানেন যে, ট্রাম্প গরুর মাংস খান। কিন্তু দেশে ফিরেই মোদি মুসলমান নিধনে লিপ্ত হয়েছেন। অথচ গরুর মাংস রফতানিতে বিশ্বে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে ভারত। সেই রাষ্ট্রে গরুর মাংস খাওয়ার ও পরিবহনের অভিযোগে নির্যাতন মেনে নেয়া যায় না। তিনি বলেন, দেশের কোনো মহল থেকে এর প্রতিবাদ করা হয়নি। বাংলাদেশের ওলামা ও ইমামরা ফিলিস্তিনসহ বিভিন্ন দেশে মুসলিম নিধনের বিষয়ে কথা বললেও কাশ্মিরে মুসলিম নিধনের বিষয়ে কোনো কথা বলেন না। এ থেকে পরিষ্কার যে তারাও দিল্লির কাছে মাথা নত করেছে। এমনকি মানবাধিকার কর্মীরাও মুসলিম নিধনের বিষয়ে কথা বলছেন না। বাংলাদেশের মুসলিম হত্যা করছে বিএসএফ। দেশের আইন শৃঙ্খলাবাহিনীর হেফাজতেও অনেক মুসলিম হত্যা হচ্ছে। তিনি আরও বলেন, ভারতে যেসব শুভবুদ্ধির মানুষ জেগে উঠেছেন তাদের সঙ্গে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আন্দোলন করলে দিল্লি এবং ঢাকার ফ্যাসিবাদী সরকারকে হঠানো সম্ভব। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট কলাম লেখক ফরহাদ মজহার, সাংবাদিক নেতা রুহুল আমীন গাজী, কবি আব্দুল হাই শিকদার, এম আব্দুল্লাহ ও সৈয়দ আবদাল আহমেদ প্রমুখ।

Comments

Comments!

 মুসলিম নিধন প্রতিরোধে ব্যর্থতা ক্ষমার অযোগ্য: মাহমুদুর রহমানAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

মুসলিম নিধন প্রতিরোধে ব্যর্থতা ক্ষমার অযোগ্য: মাহমুদুর রহমান

Sunday, July 2, 2017 5:52 pm
20170702_125712

আমার দেশ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমান বলেছেন, এই সরকার দিল্লির আশীর্বাদপুষ্ট। কিন্তু বিরোধীদল এমনকি ইসলামপন্থী দলগুলোও ভারতের মুসলিম নিধনের বিষয়ে চুপ রয়েছে। তারাও দিল্লির আশীর্বাদ পেয়ে ক্ষমতায় যেতে চায়। মুসলিম নিধন প্রতিরোধে এই ব্যর্থতা ক্ষমার অযোগ্য।

রোববার দুপুরে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে ‘গো রক্ষা আন্দোলনের নামে মুসলিম হত্যার প্রতিবাদে’ আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

মাহমুদুর রহমান বলেন, ভারতের বিজেপি সরকারের নেতৃত্বে গো রক্ষা আন্দোলনের নামে মুসিলমদের ওপর নির্যাতন করা হচ্ছে। নির্যাতন থেকে রেহাই পায়নি ১৫ বছরের কিশোর জুনায়েদ।

তিনি বলেন, ২০০২ সালে গুজরাটে দাঙ্গার নেতৃত্ব দিয়ে মুসলিমদের নিধন করেছিল মোদি। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর পুরো দেশের মুসলমানদের নিধন করছেন।

মাহমুদুর রহমান বলেন, আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নিজেও গরুর মাংস খান। কয়েকদিন আগে মোদি মার্কিন সফরে গিয়ে ট্রাম্পের সঙ্গে উষ্ণ আলিঙ্গনে আবদ্ধ হন। তিনিও জানেন যে, ট্রাম্প গরুর মাংস খান। কিন্তু দেশে ফিরেই মোদি মুসলমান নিধনে লিপ্ত হয়েছেন। অথচ গরুর মাংস রফতানিতে বিশ্বে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে ভারত। সেই রাষ্ট্রে গরুর মাংস খাওয়ার ও পরিবহনের অভিযোগে নির্যাতন মেনে নেয়া যায় না।

তিনি বলেন, দেশের কোনো মহল থেকে এর প্রতিবাদ করা হয়নি। বাংলাদেশের ওলামা ও ইমামরা ফিলিস্তিনসহ বিভিন্ন দেশে মুসলিম নিধনের বিষয়ে কথা বললেও কাশ্মিরে মুসলিম নিধনের বিষয়ে কোনো কথা বলেন না। এ থেকে পরিষ্কার যে তারাও দিল্লির কাছে মাথা নত করেছে। এমনকি মানবাধিকার কর্মীরাও মুসলিম নিধনের বিষয়ে কথা বলছেন না। বাংলাদেশের মুসলিম হত্যা করছে বিএসএফ। দেশের আইন শৃঙ্খলাবাহিনীর হেফাজতেও অনেক মুসলিম হত্যা হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, ভারতে যেসব শুভবুদ্ধির মানুষ জেগে উঠেছেন তাদের সঙ্গে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আন্দোলন করলে দিল্লি এবং ঢাকার ফ্যাসিবাদী সরকারকে হঠানো সম্ভব।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট কলাম লেখক ফরহাদ মজহার, সাংবাদিক নেতা রুহুল আমীন গাজী, কবি আব্দুল হাই শিকদার, এম আব্দুল্লাহ ও সৈয়দ আবদাল আহমেদ প্রমুখ।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X