সোমবার, ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ১:৪১
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Tuesday, September 26, 2017 9:51 pm
A- A A+ Print

মৃত্যু ঝুঁকিতে ১৪,০০০ রোহিঙ্গা শিশু, মানবিক বিপর্যয়ের আশঙ্কা ইউনিসেফের

182074_1

ঢাকা: বাংলাদেশে পালিয়ে আসা হাজার হাজার রোহিঙ্গা শরণার্থীদের জন্য জীবন-রক্ষাকারী সহায়তা একটি কৌশলগত এবং সুশৃঙ্খল পদ্ধতিতে প্রদান করা না হলে অপুষ্টি, কলেরা ও হামের মত রোগ মৃত্যুর হাতছানি দিচ্ছে বলে সতর্ক করেছে ইউনিসেফ অস্ট্রেলিয়া। মঙ্গলবার সংস্থাটির নিজস্ব ওয়েবসাইটের এক প্রতিবেদন এ কথা বলা হয়েছে। এতে বলা হয়, হতাশা-চালিত দাঙ্গা ও বর্ধিত মাত্রার যৌন নিপীড়ন এবং লিঙ্গ ভিত্তিক সহিংসতার এই সঙ্কট একটি বিপর্যয় হয়ে দেখা দিতে পারে। বাংলাদেশের কক্সবাজার থেকে ফিরে ইউনিসেফের অস্ট্রেলিয়ান সিনিয়র পলিসি অ্যাডভাইজার অলিভার হোয়াইট বলেন, ‘এই প্রয়োজনটি স্বাভাবিকভাবেই বিশাল। সেখানে ১৪,৪২০ জন শিশুকে গুরুতর ও তীব্র অপুষ্টির শিকার হিসাবে শ্রেণিবদ্ধ করা হয়েছে। তাদের জন্য এই মুহূর্তে জরুরি সহায়তা প্রয়োজন।’ তিনি জানান, আশ্রয় নেয়া শিশুদের মধ্য ১ লাখ ৫৪ হাজারেরও বেশি শিশুর বয়স ৫ বছরের নিচে এবং প্রায় ৫৫ হাজার নারী গর্ভবতী। গর্ভবতী ও দুগ্ধপ্রদানকারী এসব নারীদের সঠিক চিকিৎসা ও অপুষ্টি প্রতিরোধ করা প্রয়োজন। তিনি বলেন, ‘৩ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থীর জন্য পুষ্টি সহায়তা প্রয়োজন। এটি একটি হতাশাজনক অবস্থা; যা অবিলম্বে পূরণ করা না হলে তা কষ্টের মাত্রাকে দ্রুতগতিতে চরমপর্যায়ে নিয়ে যাবে এবং রোগের সম্ভাব্য হুমকি এবং সম্ভাব্য বিশৃঙ্খলা একত্রিত হলে পরিস্থিতিকে নিয়ন্ত্রণের বাইরে নিয়ে যেতে পারে।’ হোয়াইট বলেন, পরিস্থিতি অত্যন্ত জটিল। মাত্র এক মাসে ২ লাখ ৪০ হাজার শিশুসহ অভূতপূর্ব সংখ্যক লোক এসেছে। তারা সহিংস সামাজিক-রাজনৈতিক সঙ্কটের কারণে পালিয়ে এক দেশ থেকে অন্য দেশে এসেছে। একটি প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় দেশটি (বাংলাদেশ) ইতোমধ্যেই তার সম্পদ ব্যবস্থাপনার জন্য সংগ্রাম করছে এবং এটা মৌসুমী ঋতু। একই সময়ে বিপুল সংখ্যাক শরণার্থীদের আগমনের ঢল সাহায্য বিতরণের বিশাল কৌশলগত চ্যালেঞ্জ উপস্থাপন করেছে।
 

Comments

Comments!

 মৃত্যু ঝুঁকিতে ১৪,০০০ রোহিঙ্গা শিশু, মানবিক বিপর্যয়ের আশঙ্কা ইউনিসেফেরAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

মৃত্যু ঝুঁকিতে ১৪,০০০ রোহিঙ্গা শিশু, মানবিক বিপর্যয়ের আশঙ্কা ইউনিসেফের

Tuesday, September 26, 2017 9:51 pm
182074_1

ঢাকা: বাংলাদেশে পালিয়ে আসা হাজার হাজার রোহিঙ্গা শরণার্থীদের জন্য জীবন-রক্ষাকারী সহায়তা একটি কৌশলগত এবং সুশৃঙ্খল পদ্ধতিতে প্রদান করা না হলে অপুষ্টি, কলেরা ও হামের মত রোগ মৃত্যুর হাতছানি দিচ্ছে বলে সতর্ক করেছে ইউনিসেফ অস্ট্রেলিয়া।

মঙ্গলবার সংস্থাটির নিজস্ব ওয়েবসাইটের এক প্রতিবেদন এ কথা বলা হয়েছে।

এতে বলা হয়, হতাশা-চালিত দাঙ্গা ও বর্ধিত মাত্রার যৌন নিপীড়ন এবং লিঙ্গ ভিত্তিক সহিংসতার এই সঙ্কট একটি বিপর্যয় হয়ে দেখা দিতে পারে।

বাংলাদেশের কক্সবাজার থেকে ফিরে ইউনিসেফের অস্ট্রেলিয়ান সিনিয়র পলিসি অ্যাডভাইজার অলিভার হোয়াইট বলেন, ‘এই প্রয়োজনটি স্বাভাবিকভাবেই বিশাল। সেখানে ১৪,৪২০ জন শিশুকে গুরুতর ও তীব্র অপুষ্টির শিকার হিসাবে শ্রেণিবদ্ধ করা হয়েছে। তাদের জন্য এই মুহূর্তে জরুরি সহায়তা প্রয়োজন।’

তিনি জানান, আশ্রয় নেয়া শিশুদের মধ্য ১ লাখ ৫৪ হাজারেরও বেশি শিশুর বয়স ৫ বছরের নিচে এবং প্রায় ৫৫ হাজার নারী গর্ভবতী। গর্ভবতী ও দুগ্ধপ্রদানকারী এসব নারীদের সঠিক চিকিৎসা ও অপুষ্টি প্রতিরোধ করা প্রয়োজন।

তিনি বলেন, ‘৩ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থীর জন্য পুষ্টি সহায়তা প্রয়োজন। এটি একটি হতাশাজনক অবস্থা; যা অবিলম্বে পূরণ করা না হলে তা কষ্টের মাত্রাকে দ্রুতগতিতে চরমপর্যায়ে নিয়ে যাবে এবং রোগের সম্ভাব্য হুমকি এবং সম্ভাব্য বিশৃঙ্খলা একত্রিত হলে পরিস্থিতিকে নিয়ন্ত্রণের বাইরে নিয়ে যেতে পারে।’

হোয়াইট বলেন, পরিস্থিতি অত্যন্ত জটিল। মাত্র এক মাসে ২ লাখ ৪০ হাজার শিশুসহ অভূতপূর্ব সংখ্যক লোক এসেছে। তারা সহিংস সামাজিক-রাজনৈতিক সঙ্কটের কারণে পালিয়ে এক দেশ থেকে অন্য দেশে এসেছে। একটি প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় দেশটি (বাংলাদেশ) ইতোমধ্যেই তার সম্পদ ব্যবস্থাপনার জন্য সংগ্রাম করছে এবং এটা মৌসুমী ঋতু। একই সময়ে বিপুল সংখ্যাক শরণার্থীদের আগমনের ঢল সাহায্য বিতরণের বিশাল কৌশলগত চ্যালেঞ্জ উপস্থাপন করেছে।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X