সোমবার, ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১৪ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১:৩০
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Monday, May 22, 2017 2:20 pm
A- A A+ Print

মেয়েটিকে কামড়ে টেনে নিয়ে গেল সিল মাছ!

5

কেউ একজন ডক থেকে সিল মাছটির (সি লায়ন) দিকে খাবারের টুকরো ছুড়ে দিল। সেটা নিতেই ডকের কাছাকাছি এসেছিল মাছটি। ডকের কাছে হাঁটু গেড়ে বসে থাকা ছোট মেয়েটির কাছাকাছি ভেসে উঠেছিল খাবার নিতে। তা দেখে মেয়েটিসহ দর্শকেরা হাসছিলেন। বিষয়টি মনে হয় পছন্দ হয়নি সিল মাছটির। মুহূর্তের মধ্যে ফিরে এসে মেয়েটির সাদা জামা কামড়ে ধরে এক ঝটকায় তাকে পানিতে টেনে নিয়ে যায়। তবে প্রাণে বেঁচে গেছে মেয়েটি। এক ব্যক্তি দ্রুত পানিতে লাফিয়ে পড়ে মেয়েটিকে রক্ষা করেন। সৌভাগ্যক্রমে মেয়েটি বা উদ্ধারকর্তা কারও কোনো ক্ষতি হয়নি। এ ঘটনা ঘটেছে কানাডার বন্দরনগরী ভ্যানকুবারের স্টিভেস্টন ফিশারম্যান জেটিতে। পুরো দৃশ্যটি ক্যামেরাবন্দী করেন মাইকেল ফুজিয়ারা নামের এক ব্যক্তি। গত শনিবার ভিডিওটি তিনি ইউটিউবে পোস্ট করেন। গতকাল রোববার বিকেলের মধ্যেই ভিডিওটি দেখা হয়েছে ১৫ লাখ বার। কানাডার সিবিসি নিউজকে মাইকেল বলেন, তিনি ওই ডকে নিয়মিত যান। তবে এ রকম তিনি কখনোই দেখেননি। এদিকে লোকজনকে প্রাণীদের এমন কাছাকাছি যাওয়ার সমালোচনা করেছেন ইউনিভার্সিটি অব ব্রিটিশ কলাম্বিয়ার সামুদ্রিক স্তন্যপায়ী প্রাণী গবেষণা ইউনিটের পরিচালক অ্যান্ড্রু টিটস। তিনি বলেন, ‘ভিডিওটি দেখে আমার প্রথমেই মনে হয়েছে, কিছু লোক এত নির্বোধ! তারা কীভাবে যথাযথ সম্মানের সঙ্গে প্রাণীদের সঙ্গে আচরণ করবে, তা জানে না। এই প্রাণীগুলো যে সার্কাসের কলাকৌশল প্রদর্শক নয় বা মানুষের সঙ্গে আচরণের প্রশিক্ষিত নয়, তা মানুষগুলো ভুলে যায়।’ তিনি বলেন, মনে হয় সিল মাছটি মেয়েটির সাদা জামাকে খাবার মনে করেছিল। এ ধরনের প্রাণীগুলো সাধারণত বিপজ্জনক হয় না। সূত্র: এনডিটিভি

Comments

Comments!

 মেয়েটিকে কামড়ে টেনে নিয়ে গেল সিল মাছ!AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

মেয়েটিকে কামড়ে টেনে নিয়ে গেল সিল মাছ!

Monday, May 22, 2017 2:20 pm
5

কেউ একজন ডক থেকে সিল মাছটির (সি লায়ন) দিকে খাবারের টুকরো ছুড়ে দিল। সেটা নিতেই ডকের কাছাকাছি এসেছিল মাছটি। ডকের কাছে হাঁটু গেড়ে বসে থাকা ছোট মেয়েটির কাছাকাছি ভেসে উঠেছিল খাবার নিতে। তা দেখে মেয়েটিসহ দর্শকেরা হাসছিলেন। বিষয়টি মনে হয় পছন্দ হয়নি সিল মাছটির। মুহূর্তের মধ্যে ফিরে এসে মেয়েটির সাদা জামা কামড়ে ধরে এক ঝটকায় তাকে পানিতে টেনে নিয়ে যায়।

তবে প্রাণে বেঁচে গেছে মেয়েটি। এক ব্যক্তি দ্রুত পানিতে লাফিয়ে পড়ে মেয়েটিকে রক্ষা করেন। সৌভাগ্যক্রমে মেয়েটি বা উদ্ধারকর্তা কারও কোনো ক্ষতি হয়নি।

এ ঘটনা ঘটেছে কানাডার বন্দরনগরী ভ্যানকুবারের স্টিভেস্টন ফিশারম্যান জেটিতে। পুরো দৃশ্যটি ক্যামেরাবন্দী করেন মাইকেল ফুজিয়ারা নামের এক ব্যক্তি। গত শনিবার ভিডিওটি তিনি ইউটিউবে পোস্ট করেন। গতকাল রোববার বিকেলের মধ্যেই ভিডিওটি দেখা হয়েছে ১৫ লাখ বার।

কানাডার সিবিসি নিউজকে মাইকেল বলেন, তিনি ওই ডকে নিয়মিত যান। তবে এ রকম তিনি কখনোই দেখেননি।

এদিকে লোকজনকে প্রাণীদের এমন কাছাকাছি যাওয়ার সমালোচনা করেছেন ইউনিভার্সিটি অব ব্রিটিশ কলাম্বিয়ার সামুদ্রিক স্তন্যপায়ী প্রাণী গবেষণা ইউনিটের পরিচালক অ্যান্ড্রু টিটস। তিনি বলেন, ‘ভিডিওটি দেখে আমার প্রথমেই মনে হয়েছে, কিছু লোক এত নির্বোধ! তারা কীভাবে যথাযথ সম্মানের সঙ্গে প্রাণীদের সঙ্গে আচরণ করবে, তা জানে না। এই প্রাণীগুলো যে সার্কাসের কলাকৌশল প্রদর্শক নয় বা মানুষের সঙ্গে আচরণের প্রশিক্ষিত নয়, তা মানুষগুলো ভুলে যায়।’ তিনি বলেন, মনে হয় সিল মাছটি মেয়েটির সাদা জামাকে খাবার মনে করেছিল। এ ধরনের প্রাণীগুলো সাধারণত বিপজ্জনক হয় না।

সূত্র: এনডিটিভি

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X