শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৮:৫১
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Monday, September 18, 2017 5:40 pm
A- A A+ Print

যে কেউ গিয়ে শরণার্থীদের ত্রাণ দিতে পারবে না: আইজিপি

1505726760

ঢাকা: রহিঙ্গাদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ প্রসঙ্গে পুলিশ মহাপরিদর্শক  (আইজিপি) একেএম শহীদুল হক বলেছেন, “আমরা এখানে (শরণার্থী শিবিরে) জঙ্গিবাদ ছড়িয়ে দিতে দেব না। ত্রাণ দিতে হলে সেখানকার জেলা প্রশাসককে জানিয়ে দিতে হয়। যে কেউ গিয়ে ত্রাণ দিতে পারবে না।” মিয়ানমারে নির্যাতনের মুখে পালিয়ে এসে বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে ছড়িয়ে পড়া ২০০ এর বেশি রোহিঙ্গাকে আটক করে কক্সবাজারের শরণার্থী ক্যাম্পে পাঠানো হয়েছে বলেও জানিয়েছেন আইজিপি। সোমবার দুপুরে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে পুলিশ সদর দপ্তরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে একথা বলেন তিনি। আইজিপি শহিদুল হক বলেন, “রোহিঙ্গারা যাতে দেশের বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে না পড়ে, সেজন্য পুলিশ-র্যাবসহ অন্যান্য বাহিনী চেকপোস্ট স্থাপন করেছে। এ পর্যন্ত দুইশর বেশি রোহিঙ্গাকে এসব চেকপোস্ট থেকে আটক করে আবার ক্যাম্পে ফেরত পাঠানো হয়।” মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে নতুন করে সেনা অভিযানের মুখে প্রাণ বাঁচাতে গত তিন সপ্তাহে প্রায় চার লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছেন। দেশটিতে নাগরিকত্বের অধিকার বঞ্চিত চার লাখের বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থী আগে থেকেই কক্সবাজারে রয়েছে। নতুন আসা রোহিঙ্গাদের অনেকেই পরিবারসহ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে পড়ছে। একদেশের নাগরিকদের এভাবে অন্যদেশে ঢুকে বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়া পড়া অবৈধ জানিয়ে আইজিপি শহীদুল বলেন, “অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে তাদের গ্রেফতার করা উচিত ছিল। কিন্তু মানবিক দিক বিবেচনা করে তাদের আবার ক্যাম্পে ফেরত পাঠিয়েছি।” কোনো প্রতারক চক্রের মাধ্যমে যাতে রোহিঙ্গারা দেশের ভেতরে প্রবেশ করতে না পারে সেবিষয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সতর্ক রয়েছে বলেও জানান পুলিশ প্রধান। দুর্গাপূজা ও আশুরা উপলক্ষে নিরাপত্তা ও শৃঙ্খলা মাথায় রেখে পুলিশ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়েছে উল্লেখ করে আইজিপি বলেন, “দুই সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে আমরা বৈঠক করেছি। কোনো ধরনের ভুল বোঝাবুঝি যেন না হয়, সেজন্য দুই সম্প্রদায়ের নেতাদেরকে নিজেদের মধ্যে সমন্বয় করতে বলা হয়েছে।” এবার তাজিয়া মিছিলের নিশানার লাঠি ১২ ফুটের বেশি হতে পারবে না। এছাড়া ব্যাগ, পোটলা, ছুরি, কাঁচি এসব মিছিলে নিয়ে যাওয়া যাবে না। যে কেউ মিছিল নিয়ে হোসনি দালান এলাকায় ঢুকতে পারবে না বলেও জানান পুলিশের মহাপরিদর্শক।

Comments

Comments!

 যে কেউ গিয়ে শরণার্থীদের ত্রাণ দিতে পারবে না: আইজিপিAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

যে কেউ গিয়ে শরণার্থীদের ত্রাণ দিতে পারবে না: আইজিপি

Monday, September 18, 2017 5:40 pm
1505726760

ঢাকা: রহিঙ্গাদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ প্রসঙ্গে পুলিশ মহাপরিদর্শক  (আইজিপি) একেএম শহীদুল হক বলেছেন, “আমরা এখানে (শরণার্থী শিবিরে) জঙ্গিবাদ ছড়িয়ে দিতে দেব না। ত্রাণ দিতে হলে সেখানকার জেলা প্রশাসককে জানিয়ে দিতে হয়। যে কেউ গিয়ে ত্রাণ দিতে পারবে না।”

মিয়ানমারে নির্যাতনের মুখে পালিয়ে এসে বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে ছড়িয়ে পড়া ২০০ এর বেশি রোহিঙ্গাকে আটক করে কক্সবাজারের শরণার্থী ক্যাম্পে পাঠানো হয়েছে বলেও জানিয়েছেন আইজিপি।

সোমবার দুপুরে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে পুলিশ সদর দপ্তরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে একথা বলেন তিনি।

আইজিপি শহিদুল হক বলেন, “রোহিঙ্গারা যাতে দেশের বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে না পড়ে, সেজন্য পুলিশ-র্যাবসহ অন্যান্য বাহিনী চেকপোস্ট স্থাপন করেছে। এ পর্যন্ত দুইশর বেশি রোহিঙ্গাকে এসব চেকপোস্ট থেকে আটক করে আবার ক্যাম্পে ফেরত পাঠানো হয়।”

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে নতুন করে সেনা অভিযানের মুখে প্রাণ বাঁচাতে গত তিন সপ্তাহে প্রায় চার লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছেন।

দেশটিতে নাগরিকত্বের অধিকার বঞ্চিত চার লাখের বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থী আগে থেকেই কক্সবাজারে রয়েছে। নতুন আসা রোহিঙ্গাদের অনেকেই পরিবারসহ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে পড়ছে।

একদেশের নাগরিকদের এভাবে অন্যদেশে ঢুকে বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়া পড়া অবৈধ জানিয়ে আইজিপি শহীদুল বলেন, “অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে তাদের গ্রেফতার করা উচিত ছিল। কিন্তু মানবিক দিক বিবেচনা করে তাদের আবার ক্যাম্পে ফেরত পাঠিয়েছি।”

কোনো প্রতারক চক্রের মাধ্যমে যাতে রোহিঙ্গারা দেশের ভেতরে প্রবেশ করতে না পারে সেবিষয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সতর্ক রয়েছে বলেও জানান পুলিশ প্রধান।

দুর্গাপূজা ও আশুরা উপলক্ষে নিরাপত্তা ও শৃঙ্খলা মাথায় রেখে পুলিশ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়েছে উল্লেখ করে আইজিপি বলেন, “দুই সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে আমরা বৈঠক করেছি। কোনো ধরনের ভুল বোঝাবুঝি যেন না হয়, সেজন্য দুই সম্প্রদায়ের নেতাদেরকে নিজেদের মধ্যে সমন্বয় করতে বলা হয়েছে।”

এবার তাজিয়া মিছিলের নিশানার লাঠি ১২ ফুটের বেশি হতে পারবে না। এছাড়া ব্যাগ, পোটলা, ছুরি, কাঁচি এসব মিছিলে নিয়ে যাওয়া যাবে না। যে কেউ মিছিল নিয়ে হোসনি দালান এলাকায় ঢুকতে পারবে না বলেও জানান পুলিশের মহাপরিদর্শক।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X