বুধবার, ২২শে নভেম্বর, ২০১৭ ইং, ৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৩:২১
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Thursday, October 19, 2017 12:01 am
A- A A+ Print

রোহিঙ্গারা বিশ্বের সবচেয়ে সংকটাপন্ন মানুষ: আইওএম প্রধান

1508348446

রোহিঙ্গা সংকট প্রসঙ্গে জাতিসংঘের অভিবাসন বিষয়ক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন ফর মাইগ্রেশনের (আইওএম) মহাপরিচালক উইলিয়াম ল্যাসি সুইং বলেছেন, মাত্র এক মাসের মধ্যে অর্ধ-মিলিয়নেরও (৫ লাখ) বেশি শরণার্থী বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে, বিশ্ব এমন দ্রুতগতির শরণার্থী সংকট খুব কমই দেখেছে। রোহিঙ্গা সংকট পরিদর্শনে ৩ দিনের বাংলাদেশ সফরের শেষ দিন বুধবার (১৮ অক্টোবর) কক্সবাজার ঘুরে এক বিবৃতিতে তিনি এ কথা বলেন। মিয়ানমারের রাখাইনে দেশটির সেনাবাহিনীর নৃশংস অভিযানের মুখে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের মানবিক সহায়তা দেওয়াসহ সার্বিক কার্যক্রম সমন্বয় করছে আইওএম। ল্যাসি সুইং রোহিঙ্গা সংকট মোকাবেলায় আইওএমের ত্রাণ সহায়তা কার্যক্রম আরও জোরদার করার আশ্বাস দিয়ে তার বিবৃতিতে বলেন, রাখাইন থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত যে দুর্বিপাক বিরাজমান তা খুবই পীড়াদায়ক। একেবারেই স্বল্প সহায়তা মিললেও ভুগতে হচ্ছে বহু মানুষকে। ২৫ আগস্ট থেকে যে শরণার্থী ঢল বাংলাদেশ অভিমুখে শুরু হয়েছে তাতে ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫ লাখ ৮২ হাজারে। আইওএম প্রধান বলেন, আমি দেখলাম ছোট ছোট বাচ্চাদের নিয়ে, যাদের ক’দিন আগেই জন্ম হয়েছে, মুষুলধারে বৃষ্টিতে ভিজে ভিজে তাদের মায়েরা পালিয়ে আসছেন বাংলাদেশে। অনেক বাচ্চা কেবল তাদের মা-বাবাকেই হারায়নি, তাদের বেঁচে থাকার আশাও হারিয়ে ফেলেছে।  তিনি বলেন, এই নারী ও শিশুদের জন্য আমাদের কিছু করতেই হবে। এরা এখন বিশ্বের সবচেয়ে সংকটাপন্ন মানুষ। আমরা ঠিকভাবে সহায়তা না দিতে পারলে হাজারো মানুষ খাদ্য, আশ্রয়, স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তাহীনতায় ভুগবে। সফরে আইওএম মহাপরিচালক বাংলাদেশ সরকারের শীর্ষ পর্যায়ের নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করেন। তিনি আলোচনায় রোহিঙ্গাদের জন্য জীবনরক্ষাকারী সহায়তার বিষয়ে কথা বলেন।এসব আলোচনার বিষয়ে বিবৃতিতে ল্যাসি সুইং বলেন, রোহিঙ্গাদের জন্য বাংলাদেশ যেভাবে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে, তাতে আমি অভিভূত। স্থানীয় জনগোষ্ঠীও রোহিঙ্গাদের সহায়তায় হাত বাড়িয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। বিবৃতিতে রোহিঙ্গা সংকটের শান্তিপূর্ণ সমাধানে তিনি রাখাইন পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে গঠিত কফি আনানের নেতৃত্বাধীন কমিশনের সুপারিশমালা বাস্তাবয়নের ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

Comments

Comments!

 রোহিঙ্গারা বিশ্বের সবচেয়ে সংকটাপন্ন মানুষ: আইওএম প্রধানAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

রোহিঙ্গারা বিশ্বের সবচেয়ে সংকটাপন্ন মানুষ: আইওএম প্রধান

Thursday, October 19, 2017 12:01 am
1508348446

রোহিঙ্গা সংকট প্রসঙ্গে জাতিসংঘের অভিবাসন বিষয়ক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন ফর মাইগ্রেশনের (আইওএম) মহাপরিচালক উইলিয়াম ল্যাসি সুইং বলেছেন, মাত্র এক মাসের মধ্যে অর্ধ-মিলিয়নেরও (৫ লাখ) বেশি শরণার্থী বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে, বিশ্ব এমন দ্রুতগতির শরণার্থী সংকট খুব কমই দেখেছে।

রোহিঙ্গা সংকট পরিদর্শনে ৩ দিনের বাংলাদেশ সফরের শেষ দিন বুধবার (১৮ অক্টোবর) কক্সবাজার ঘুরে এক বিবৃতিতে তিনি এ কথা বলেন। মিয়ানমারের রাখাইনে দেশটির সেনাবাহিনীর নৃশংস অভিযানের মুখে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের মানবিক সহায়তা দেওয়াসহ সার্বিক কার্যক্রম সমন্বয় করছে আইওএম।

ল্যাসি সুইং রোহিঙ্গা সংকট মোকাবেলায় আইওএমের ত্রাণ সহায়তা কার্যক্রম আরও জোরদার করার আশ্বাস দিয়ে তার বিবৃতিতে বলেন, রাখাইন থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত যে দুর্বিপাক বিরাজমান তা খুবই পীড়াদায়ক। একেবারেই স্বল্প সহায়তা মিললেও ভুগতে হচ্ছে বহু মানুষকে।

২৫ আগস্ট থেকে যে শরণার্থী ঢল বাংলাদেশ অভিমুখে শুরু হয়েছে তাতে ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫ লাখ ৮২ হাজারে। আইওএম প্রধান বলেন, আমি দেখলাম ছোট ছোট বাচ্চাদের নিয়ে, যাদের ক’দিন আগেই জন্ম হয়েছে, মুষুলধারে বৃষ্টিতে ভিজে ভিজে তাদের মায়েরা পালিয়ে আসছেন বাংলাদেশে। অনেক বাচ্চা কেবল তাদের মা-বাবাকেই হারায়নি, তাদের বেঁচে থাকার আশাও হারিয়ে ফেলেছে।  তিনি বলেন, এই নারী ও শিশুদের জন্য আমাদের কিছু করতেই হবে। এরা এখন বিশ্বের সবচেয়ে সংকটাপন্ন মানুষ। আমরা ঠিকভাবে সহায়তা না দিতে পারলে হাজারো মানুষ খাদ্য, আশ্রয়, স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তাহীনতায় ভুগবে। সফরে আইওএম মহাপরিচালক বাংলাদেশ সরকারের শীর্ষ পর্যায়ের নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করেন। তিনি আলোচনায় রোহিঙ্গাদের জন্য জীবনরক্ষাকারী সহায়তার বিষয়ে কথা বলেন।এসব আলোচনার বিষয়ে বিবৃতিতে ল্যাসি সুইং বলেন, রোহিঙ্গাদের জন্য বাংলাদেশ যেভাবে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে, তাতে আমি অভিভূত। স্থানীয় জনগোষ্ঠীও রোহিঙ্গাদের সহায়তায় হাত বাড়িয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে।

বিবৃতিতে রোহিঙ্গা সংকটের শান্তিপূর্ণ সমাধানে তিনি রাখাইন পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে গঠিত কফি আনানের নেতৃত্বাধীন কমিশনের সুপারিশমালা বাস্তাবয়নের ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X