বৃহস্পতিবার, ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, সকাল ৭:০৬
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, October 30, 2016 5:00 pm | আপডেটঃ October 30, 2016 7:44 PM
A- A A+ Print

শক্তিশালী ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল ইতালি

6767

চার দিনের ব্যবধানে আবার কেঁপে উঠল ইতালির মধ্যাঞ্চল। আজ রোববার ভোরে আঘাত হানা এই ভূমিকম্পটির তীব্রতা ৬ দশমিক ৬। যদিও মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা প্রাথমিকভাবে বলেছিল তীব্রতা ৭ দশমিক ১। পরে সংস্থাটি সংশোধন করে।রয়টার্স জানায়, ভূমিকম্পে ভেঙে পড়েছে বহু ভবন ও ঐতিহাসিক গির্জা। তবে এখন পর্যন্ত কোনো প্রাণহানির খবর পাওয়া যায়নি। এএফপির খবরে বলা হয়, গ্রিনিচ মান সময় ৬টা ৪০ মিনিটে ছোট্ট শহর নোরচা থেকে ৬ মাইল উত্তরে ভূমিকম্পটি আঘাত হানে। কিন্তু কেঁপে ওঠে রোম থেকে ভেনিস পর্যন্ত। গত বুধবার রাতেও ইতালির মধ্যাঞ্চলের মাচেরাতা প্রদেশে প্রথম দফায় পাঁচ দশমিক পাঁচ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হানে। তখনই ওই এলাকা ছাড়তে শুরু করেন বাসিন্দারা। দুই ঘণ্টা পর আঘাত হানে ছয় দশমিক এক মাত্রার ভূমিকম্প। এরপরই সেখানকার নোরচা, ক্যাসতেলসানজেলো, প্রেচি ও ভিসো শহরগুলো অনেকটাই পরিত্যক্ত হয়ে পড়ে। কেননা লোকজন ভয়ে রাতে গাড়িতে ঘুমায় বা উপকূলীয় এলাকায় চলে যায়। গত আগস্টে ওই এলাকার কাছেই ভূমিকম্পে প্রায় ৩০০ জন মারা গিয়েছিলেন। পাহাড়ে ঘেরা গ্রাম উসিতার মেয়র মার্কো রিনালদি সাংবাদিকদের বলেন, ‘সবকিছু ধসে পড়েছে। আমি শুধু ধোঁয়ার কুন্ডলী দেখলাম। এ এক দুর্যোগ, এ এক বিপর্যয়।’ তিনি বলেন, ‘আমি গাড়িতে ঘুমাচ্ছিলাম, জেগে দেখলাম নরক নেমে এসেছে।’ ইতালির সিভিল প্রোটেকশন বিভাগ জানায়, ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্ত শহরগুলো জুড়ে তল্লাশি চলছে। রয়টার্স জানায়, টেলিভিশনে ফুটেজে দেখা যায়, নোরচা শহরের প্রাণকেন্দ্র একটি গির্জা ধসে পড়েছে। এমনকি শহরটির বিভিন্ন অংশ এরই বন্ধ পুরোপুরি যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ঐতিহাসিক সেন্ট বেনেডিক্ট গির্জা এবং টাউন হল ভবনগুলোও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

Comments

Comments!

 শক্তিশালী ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল ইতালিAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

শক্তিশালী ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল ইতালি

Sunday, October 30, 2016 5:00 pm | আপডেটঃ October 30, 2016 7:44 PM
6767

চার দিনের ব্যবধানে আবার কেঁপে উঠল ইতালির মধ্যাঞ্চল। আজ রোববার ভোরে আঘাত হানা এই ভূমিকম্পটির তীব্রতা ৬ দশমিক ৬। যদিও মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা প্রাথমিকভাবে বলেছিল তীব্রতা ৭ দশমিক ১। পরে সংস্থাটি সংশোধন করে।রয়টার্স জানায়, ভূমিকম্পে ভেঙে পড়েছে বহু ভবন ও ঐতিহাসিক গির্জা। তবে এখন পর্যন্ত কোনো প্রাণহানির খবর পাওয়া যায়নি।
এএফপির খবরে বলা হয়, গ্রিনিচ মান সময় ৬টা ৪০ মিনিটে ছোট্ট শহর নোরচা থেকে ৬ মাইল উত্তরে ভূমিকম্পটি আঘাত হানে। কিন্তু কেঁপে ওঠে রোম থেকে ভেনিস পর্যন্ত।
গত বুধবার রাতেও ইতালির মধ্যাঞ্চলের মাচেরাতা প্রদেশে প্রথম দফায় পাঁচ দশমিক পাঁচ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হানে। তখনই ওই এলাকা ছাড়তে শুরু করেন বাসিন্দারা। দুই ঘণ্টা পর আঘাত হানে ছয় দশমিক এক মাত্রার ভূমিকম্প। এরপরই সেখানকার নোরচা, ক্যাসতেলসানজেলো, প্রেচি ও ভিসো শহরগুলো অনেকটাই পরিত্যক্ত হয়ে পড়ে। কেননা লোকজন ভয়ে রাতে গাড়িতে ঘুমায় বা উপকূলীয় এলাকায় চলে যায়।

গত আগস্টে ওই এলাকার কাছেই ভূমিকম্পে প্রায় ৩০০ জন মারা গিয়েছিলেন।

পাহাড়ে ঘেরা গ্রাম উসিতার মেয়র মার্কো রিনালদি সাংবাদিকদের বলেন, ‘সবকিছু ধসে পড়েছে। আমি শুধু ধোঁয়ার কুন্ডলী দেখলাম। এ এক দুর্যোগ, এ এক বিপর্যয়।’ তিনি বলেন, ‘আমি গাড়িতে ঘুমাচ্ছিলাম, জেগে দেখলাম নরক নেমে এসেছে।’

ইতালির সিভিল প্রোটেকশন বিভাগ জানায়, ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্ত শহরগুলো জুড়ে তল্লাশি চলছে।

রয়টার্স জানায়, টেলিভিশনে ফুটেজে দেখা যায়, নোরচা শহরের প্রাণকেন্দ্র একটি গির্জা ধসে পড়েছে। এমনকি শহরটির বিভিন্ন অংশ এরই বন্ধ পুরোপুরি যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ঐতিহাসিক সেন্ট বেনেডিক্ট গির্জা এবং টাউন হল ভবনগুলোও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X