শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১২:২৫
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Wednesday, September 21, 2016 12:12 pm
A- A A+ Print

শাহজালালে আমদানি নিষিদ্ধ অত্যাধুনিক ড্রোন আটক

153628_1-1

ঢাকা:  হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে শারজা থেকে আসা এক যাত্রীর ব্যাগ থেকে আমদানি নিষিদ্ধ একটি অত্যাধুনিক ড্রোন (চালকবিহীন বিমান) জব্দ করেছে শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তারা । মঙ্গলবার রাতে ড্রোনটি আটক করা হয়। DJI Phantom 4 মডেলের। এতে উন্নতমানের ক্যামেরা ও সেন্সর লাগানে আছে। শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান এসব তথ্য জানান। প্রাথমিক তথ্যে জানা গেছে, ড্রোনটি শুটিংয়ের পাশাপাশি গোয়েন্দাগিরির কাজে ব্যবহার করা যায়। এর কোনও অপব্যবহারের ঝুঁকি আছে কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ড্রোনটি আটক হয় জাহিদুল ইসলাম (৪০) নামে এক যাত্রীর ব্যাগ থেকে। তিনি মঙ্গলবার রাত ১০ টায় শারজা থেকে এয়ার অ্যারাবিয়া এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট নং G90515 যোগে শাহজালাল বিমানবন্দরে অবতরণ করেন। যাত্রীর পাসপোর্ট অনুযায়ী তার নাম নজরুল ইসলাম, পাসপোর্ট নং BA 0230084, গ্রাম ভুরকাপাড়া, দৌলতপুর, কুষ্টিয়া। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই যাত্রীকে আগে থেকেই নজরদারিতে রেখেছিলেন শুল্ক গোয়েন্দারা। কাস্টমস হলের গ্রিন চ্যানেল পার হয়ে যাওয়ার সময় তাকে থামানো হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি ড্রোন থাকার কথা অস্বীকার করেন। জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে তল্লাশি চালিয়ে তার সঙ্গে থাকা লাগেজ থেকে ড্রোনটি উদ্ধার করা হয়। তিনি আরো জানান, দুবাই থেকে তার এক বন্ধু ঢাকায় এক ব্যক্তিকে এসব গোয়েন্দা সরঞ্জামাদি পৌঁছে দেওয়ার জন্য দিয়েছেন। তিনি নিজে এর মালিক নন। ড্রোনে উন্নতমানের ক্যামেরা বসানোর অপশন ও সেন্সর রয়েছে। রিমোটের সাহায্যে এটি পরিচালনা করা হয়। এটি প্রতি ঘণ্টায় ৪৫ কিলোমিটার বেগে চলতে পারে। ড্রোন নানা ধরনের নাশকতার কাজে ব্যবহার হতে পারে, এই আশঙ্কায় সম্প্রতি বাংলাদেশে এর  আমদানির ওপর নিয়ন্ত্রণ আরোপ করা হয়। সরকারের পূর্ব অনুমোদন ছাড়া ড্রোন আমদানি করা যায় না এবং এটি উড্ডয়নের আগে সিভিল এভিয়েশন কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিতে হয়। শুল্ক গোয়েন্দারা এর আগে ২৭ জুলাই আরেকটি ড্রোন আটক করেছিল। ড্রোনটি আটকের ঘটনায় শুল্ক আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। এটি বিমানবন্দর কাস্টমসে জমা দেওয়া হবে।
 

Comments

Comments!

 শাহজালালে আমদানি নিষিদ্ধ অত্যাধুনিক ড্রোন আটকAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

শাহজালালে আমদানি নিষিদ্ধ অত্যাধুনিক ড্রোন আটক

Wednesday, September 21, 2016 12:12 pm
153628_1-1

ঢাকা:  হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে শারজা থেকে আসা এক যাত্রীর ব্যাগ থেকে আমদানি নিষিদ্ধ একটি অত্যাধুনিক ড্রোন (চালকবিহীন বিমান) জব্দ করেছে শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তারা ।

মঙ্গলবার রাতে ড্রোনটি আটক করা হয়। DJI Phantom 4 মডেলের। এতে উন্নতমানের ক্যামেরা ও সেন্সর লাগানে আছে।

শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান এসব তথ্য জানান।

প্রাথমিক তথ্যে জানা গেছে, ড্রোনটি শুটিংয়ের পাশাপাশি গোয়েন্দাগিরির কাজে ব্যবহার করা যায়। এর কোনও অপব্যবহারের ঝুঁকি আছে কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ড্রোনটি আটক হয় জাহিদুল ইসলাম (৪০) নামে এক যাত্রীর ব্যাগ থেকে।

তিনি মঙ্গলবার রাত ১০ টায় শারজা থেকে এয়ার অ্যারাবিয়া এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট নং G90515 যোগে শাহজালাল বিমানবন্দরে অবতরণ করেন।

যাত্রীর পাসপোর্ট অনুযায়ী তার নাম নজরুল ইসলাম, পাসপোর্ট নং BA 0230084, গ্রাম ভুরকাপাড়া, দৌলতপুর, কুষ্টিয়া। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই যাত্রীকে আগে থেকেই নজরদারিতে রেখেছিলেন শুল্ক গোয়েন্দারা।

কাস্টমস হলের গ্রিন চ্যানেল পার হয়ে যাওয়ার সময় তাকে থামানো হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি ড্রোন থাকার কথা অস্বীকার করেন। জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে তল্লাশি চালিয়ে তার সঙ্গে থাকা লাগেজ থেকে ড্রোনটি উদ্ধার করা হয়।

তিনি আরো জানান, দুবাই থেকে তার এক বন্ধু ঢাকায় এক ব্যক্তিকে এসব গোয়েন্দা সরঞ্জামাদি পৌঁছে দেওয়ার জন্য দিয়েছেন। তিনি নিজে এর মালিক নন। ড্রোনে উন্নতমানের ক্যামেরা বসানোর অপশন ও সেন্সর রয়েছে। রিমোটের সাহায্যে এটি পরিচালনা করা হয়। এটি প্রতি ঘণ্টায় ৪৫ কিলোমিটার বেগে চলতে পারে।

ড্রোন নানা ধরনের নাশকতার কাজে ব্যবহার হতে পারে, এই আশঙ্কায় সম্প্রতি বাংলাদেশে এর  আমদানির ওপর নিয়ন্ত্রণ আরোপ করা হয়। সরকারের পূর্ব অনুমোদন ছাড়া ড্রোন আমদানি করা যায় না এবং এটি উড্ডয়নের আগে সিভিল এভিয়েশন কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিতে হয়।

শুল্ক গোয়েন্দারা এর আগে ২৭ জুলাই আরেকটি ড্রোন আটক করেছিল। ড্রোনটি আটকের ঘটনায় শুল্ক আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। এটি বিমানবন্দর কাস্টমসে জমা দেওয়া হবে।

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X