সোমবার, ২৪শে এপ্রিল, ২০১৭ ইং, ১১ই বৈশাখ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৯:১৪
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Monday, March 20, 2017 10:14 am
A- A A+ Print

‘শিল্পীদের কেউ যেন দুস্থ না থাকে’

15

বর্তমানে একাধিক ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করছেন শামীমা তুষ্টি। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- ‘অলসপুর’, ‘এক চিলতে পাখি’, ‘নীড় খোঁজে গাঙচিল’, ‘বাবুই পাখির বাসা’, ‘অল্প অল্প গল্প’ সহ আরো বেশ কয়েকটি। একজন অভিনেত্রী হিসেবে সব ধরনের নাটকেই অভিনয় করেন এ অভিনেত্রী। খন্ড কিংবা ধারাবাহিকের মধ্যে তেমন কোনো পছন্দ নেই তার। তবে সারা বছর ধারাবাহিকে কাজ করেন বলে খন্ড নাটকের প্রতি বরাবরই আলাদা গুরুত্ব থাকে বলেও উল্লেখ করেন তুষ্টি। এ ব্যাপারে তিনি বলেন, একজন অভিনয় শিল্পী হিসেবে সব ধরনের নাটকেই অভিনয় করতে হয়। খন্ড বা ধারাবাহিক নিয়ে তেমন বিশেষ কোন  পছন্দের জায়গা নেই। তবে একখন্ডের নাটকের প্রতি সবসময় আলাদা গুরুত্ব থাকে। কারণ ধারাবাহিক তো সারা বছরই করা হয়। খন্ড নাটকে কাজ কম করি। চলতি বছর ফেব্রুয়ারি মাসে হয়ে গেল অভিনয় শিল্পী সংঘের নির্বাচন। এতে প্রার্থী হিসেবে দাঁড়িয়েছিলেন তুষ্টি। শুধু তাই নয়, আইন ও কল্যাণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিতও হয়েছেন তিনি। সে অনুযায়ী দায়িত্ব বুঝে নেয়ার পর থেকে নিয়মিত কাজ করছেন। প্রসঙ্গক্রমে তুষ্টি বলেন, সবাই আমাকে ভোট দিয়ে জয়ী করেছেন। সেজন্য প্রত্যেকের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। শিল্পীদের একটি বড় প্ল্যাটফরম হলো এই অভিনয় শিল্পী সংঘ। আমি যে পদটিতে আছি তাতে শিল্পীদের কল্যাণের জন্য কাজ করে যাবো। শিল্পীদের কেউ যেন দুস্থ না থাকে। সেদিকটা জোর দিয়ে খেয়াল রাখবো। অভিনয়ের সঙ্গে দীর্ঘদিনের পথচলা। এর মধ্যে অর্জন করেছেন অনেক অভিজ্ঞতা। সে আলোকে বর্তমান সময়ের নাটক নিয়ে তুষ্টি বলেন, আসলে নাটকের মান নিয়ে কথা বলার জন্য অনেক অভিজ্ঞ মানুষ আছেন। তারা আমার চেয়ে ভালো বলতে পারবেন। আমি না হয় এ বিষয়ে কথা না বলি। তবে এটা ঠিক যে অতিমাত্রায় বিজ্ঞাপনের কারণে দর্শক বিদেশী চ্যানেলে ঝুঁকছেন। সে সঙ্গে নাটকের মানও খারাপের দিকে যাচ্ছে। আমার কাছে এ জন্য বাজেট একটা সমস্যা বলে মনে হয়। তবে আমাদের নাটকের হারানো ঐতিহ্য ফিরে আসবে এমনটাই বিশ্বাস আমার। অভিনয়ের পাশপাশি শিক্ষকতা করছেন তুষ্টি। রাজধানীর বিএএফ শাহীন স্কুলে অনেকদিন ধরেই এ পেশায় সম্পৃক্ত রয়েছেন তিনি। পাশপাশি দেশের কল্যাণে, দেশের মানুষের পাশে দাঁড়াতে নাম লিখিয়েছেন রাজনীতিতেও। ২০১৫ সালে ‘ইয়াং অ্যাকটিভ’ নামের একটি রাজনৈতিক দলের কাজ শুরু করেছেন তুষ্টি। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, অভিনয় কিংবা শিক্ষকতা আমার নিজের পরিচয় বহন করে। সেখানে আমি নিজের সম্মানবোধ খুঁজে পাই। দর্শক আমার অভিনয় দেখে আমাকে ভালোবাসেন। একইভাবে আমার শিক্ষার্থী এবং অভিভাবকরা আমাকে আমার কাজের জন্য যথেষ্ট সম্মান করেন। এ সম্মান এবং ভালোবাসার জায়গাটার ব্যাপ্তি আরও বাড়াতে, দেশের মানুষের পাশে দাঁড়াতে আমি রাজনীতিতে নিজেকে সম্পৃক্ত করেছি। আর আমি একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান। সে জায়গা থেকেও আমার দেশের প্রতি, দেশের মানুষের প্রতি কিছু দায়িত্ব রয়েছে। আশা করি শুভাকাঙ্খীরা আমার পাশে থাকবেন, আমাকে সহযোগিতা করবেন। ইয়াং অ্যাকটিভ দলটি নিয়ে যেন আমি এগিয়ে যেতে পারি সেজন্য সবাই দোয়া করবেন। রাজনীতির পাশাপাশি গেল বছরে ‘মানুষ ফাউন্ডেশন’ নামের একটি সংগঠন চালু করেছেন তুষ্টি। বিশেষ করে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্যই এই সংগঠনের হয়ে কাজ করছেন তিনি। তুষ্টি শুধু এখানে একা নন। তার সঙ্গে রয়েছে একদল তরুণ-তরুণী। নাটকে অভিনয়ের পাশপাশি চলচ্চিত্রেও কাজের অভিজ্ঞতা রয়েছে তুষ্টির। দুই বছর আগে রুহুল আমিনের পরিচালনায় ‘হাছন রাজা’ নামের একটি চলচ্চিত্রের কাজ শেষ করেছেন তিনি। এর মধ্যে অনেক সময়ই পার হয়ে গেছে। কিন্তু ছবিটি মুক্তির মিছিলে যোগ দেয়নি। অবশ্য তুষ্টি সম্প্রতি জানতে পেরেছেন সব ঠিক থাকলে এ বছরই প্রেক্ষাগৃহে দেখা মিলবে ‘হাছন রাজা’র। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আসলে এতদিন মিঠুন দা (মিঠুন চক্রবর্তী)’র জন্য অপেক্ষা করেছিলাম। তার ডাবিং বাকি ছিল। যে কারণে সব কাজ শেষ হওয়া স্বত্ত্বেও আটকে ছিল। এখন মিঠুন দার কাজও সম্পন্ন হয়েছে। আশা করছি এ বছরই মুক্তির মিছিলে যোগ দেবে ছবিটি।

Comments

Comments!

 ‘শিল্পীদের কেউ যেন দুস্থ না থাকে’AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

‘শিল্পীদের কেউ যেন দুস্থ না থাকে’

Monday, March 20, 2017 10:14 am
15

বর্তমানে একাধিক ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করছেন শামীমা তুষ্টি। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- ‘অলসপুর’, ‘এক চিলতে পাখি’, ‘নীড় খোঁজে গাঙচিল’, ‘বাবুই পাখির বাসা’, ‘অল্প অল্প গল্প’ সহ আরো বেশ কয়েকটি। একজন অভিনেত্রী হিসেবে সব ধরনের নাটকেই অভিনয় করেন এ অভিনেত্রী। খন্ড কিংবা ধারাবাহিকের মধ্যে তেমন কোনো পছন্দ নেই তার। তবে সারা বছর ধারাবাহিকে কাজ করেন বলে খন্ড নাটকের প্রতি বরাবরই আলাদা গুরুত্ব থাকে বলেও উল্লেখ করেন তুষ্টি। এ ব্যাপারে তিনি বলেন, একজন অভিনয় শিল্পী হিসেবে সব ধরনের নাটকেই অভিনয় করতে হয়। খন্ড বা ধারাবাহিক নিয়ে তেমন বিশেষ কোন  পছন্দের জায়গা নেই। তবে একখন্ডের নাটকের প্রতি সবসময় আলাদা গুরুত্ব থাকে। কারণ ধারাবাহিক তো সারা বছরই করা হয়। খন্ড নাটকে কাজ কম করি। চলতি বছর ফেব্রুয়ারি মাসে হয়ে গেল অভিনয় শিল্পী সংঘের নির্বাচন। এতে প্রার্থী হিসেবে দাঁড়িয়েছিলেন তুষ্টি। শুধু তাই নয়, আইন ও কল্যাণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিতও হয়েছেন তিনি। সে অনুযায়ী দায়িত্ব বুঝে নেয়ার পর থেকে নিয়মিত কাজ করছেন। প্রসঙ্গক্রমে তুষ্টি বলেন, সবাই আমাকে ভোট দিয়ে জয়ী করেছেন। সেজন্য প্রত্যেকের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। শিল্পীদের একটি বড় প্ল্যাটফরম হলো এই অভিনয় শিল্পী সংঘ। আমি যে পদটিতে আছি তাতে শিল্পীদের কল্যাণের জন্য কাজ করে যাবো। শিল্পীদের কেউ যেন দুস্থ না থাকে। সেদিকটা জোর দিয়ে খেয়াল রাখবো। অভিনয়ের সঙ্গে দীর্ঘদিনের পথচলা। এর মধ্যে অর্জন করেছেন অনেক অভিজ্ঞতা। সে আলোকে বর্তমান সময়ের নাটক নিয়ে তুষ্টি বলেন, আসলে নাটকের মান নিয়ে কথা বলার জন্য অনেক অভিজ্ঞ মানুষ আছেন। তারা আমার চেয়ে ভালো বলতে পারবেন। আমি না হয় এ বিষয়ে কথা না বলি। তবে এটা ঠিক যে অতিমাত্রায় বিজ্ঞাপনের কারণে দর্শক বিদেশী চ্যানেলে ঝুঁকছেন। সে সঙ্গে নাটকের মানও খারাপের দিকে যাচ্ছে। আমার কাছে এ জন্য বাজেট একটা সমস্যা বলে মনে হয়। তবে আমাদের নাটকের হারানো ঐতিহ্য ফিরে আসবে এমনটাই বিশ্বাস আমার। অভিনয়ের পাশপাশি শিক্ষকতা করছেন তুষ্টি। রাজধানীর বিএএফ শাহীন স্কুলে অনেকদিন ধরেই এ পেশায় সম্পৃক্ত রয়েছেন তিনি। পাশপাশি দেশের কল্যাণে, দেশের মানুষের পাশে দাঁড়াতে নাম লিখিয়েছেন রাজনীতিতেও। ২০১৫ সালে ‘ইয়াং অ্যাকটিভ’ নামের একটি রাজনৈতিক দলের কাজ শুরু করেছেন তুষ্টি। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, অভিনয় কিংবা শিক্ষকতা আমার নিজের পরিচয় বহন করে। সেখানে আমি নিজের সম্মানবোধ খুঁজে পাই। দর্শক আমার অভিনয় দেখে আমাকে ভালোবাসেন। একইভাবে আমার শিক্ষার্থী এবং অভিভাবকরা আমাকে আমার কাজের জন্য যথেষ্ট সম্মান করেন। এ সম্মান এবং ভালোবাসার জায়গাটার ব্যাপ্তি আরও বাড়াতে, দেশের মানুষের পাশে দাঁড়াতে আমি রাজনীতিতে নিজেকে সম্পৃক্ত করেছি। আর আমি একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান। সে জায়গা থেকেও আমার দেশের প্রতি, দেশের মানুষের প্রতি কিছু দায়িত্ব রয়েছে। আশা করি শুভাকাঙ্খীরা আমার পাশে থাকবেন, আমাকে সহযোগিতা করবেন। ইয়াং অ্যাকটিভ দলটি নিয়ে যেন আমি এগিয়ে যেতে পারি সেজন্য সবাই দোয়া করবেন। রাজনীতির পাশাপাশি গেল বছরে ‘মানুষ ফাউন্ডেশন’ নামের একটি সংগঠন চালু করেছেন তুষ্টি। বিশেষ করে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্যই এই সংগঠনের হয়ে কাজ করছেন তিনি। তুষ্টি শুধু এখানে একা নন। তার সঙ্গে রয়েছে একদল তরুণ-তরুণী। নাটকে অভিনয়ের পাশপাশি চলচ্চিত্রেও কাজের অভিজ্ঞতা রয়েছে তুষ্টির। দুই বছর আগে রুহুল আমিনের পরিচালনায় ‘হাছন রাজা’ নামের একটি চলচ্চিত্রের কাজ শেষ করেছেন তিনি। এর মধ্যে অনেক সময়ই পার হয়ে গেছে। কিন্তু ছবিটি মুক্তির মিছিলে যোগ দেয়নি। অবশ্য তুষ্টি সম্প্রতি জানতে পেরেছেন সব ঠিক থাকলে এ বছরই প্রেক্ষাগৃহে দেখা মিলবে ‘হাছন রাজা’র। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আসলে এতদিন মিঠুন দা (মিঠুন চক্রবর্তী)’র জন্য অপেক্ষা করেছিলাম। তার ডাবিং বাকি ছিল। যে কারণে সব কাজ শেষ হওয়া স্বত্ত্বেও আটকে ছিল। এখন মিঠুন দার কাজও সম্পন্ন হয়েছে। আশা করছি এ বছরই মুক্তির মিছিলে যোগ দেবে ছবিটি।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X