শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ৮:৪১
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Sunday, July 24, 2016 2:33 am
A- A A+ Print

সংখ্যালঘু নির্যাতন বন্ধ না হলে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধের আর্জি ভারতের বিধানসভায়

1_135914

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: সংখ্যালঘু/হিন্দু নির্যাতন বন্ধ না হলে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণার আর্জি করেছে ভারতের আসামের বিধানসভায়। শুক্রবার বিকালে আসামের বিধানসভায় বাজেট অধিবেশনের পঞ্চম দিনে এ প্রস্তাব দেন কংগ্রেসের বিধায়ক আব্দুল খালেক। বাজেটের ওপর আলোচনায় বেসরকারি এক প্রস্তাবে তিনি বলেন, যে দেশের স্বাধীনতায় ভারতের অবদান সবচেয়ে বেশি, যে দেশ অর্থনৈতিক ক্ষেত্রে অনেকাংশে ভারতের ওপর নির্ভরশীল সে দেশে ক্রমাগত হিন্দুদের ওপর নির্যাতন হবে এটা মানা যায় না। বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের সুরক্ষা নিশ্চিতের আহ্বান জানিয়ে আব্দুল খালেক বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি একজন শক্তিশালী নেতা। তিনি প্রয়োজনে শক্তি প্রদর্শন করে নিশ্চিত করুন যাতে বাংলাদেশে বসবাস করা কোনো সংখ্যালঘু নির্যাতনের মুখে না পড়ে। কারন বাংলাদেশে বসবাসকারী হিন্দুসহ অন্যান্য সংখ্যালঘুরা দেশ বিভাজনের বলি। তাই তাদের প্রতি রাষ্ট্রের দায়বদ্ধতা অস্বীকার করা যায় না। ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্র বাংলাদেশে ধর্মের নামে নির্যাতন হলে নির্যাতিতরা ভারতে আসার চেষ্টা করবেন এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু প্রশ্ন হল নির্যাতিতদের কতটা ভার আমরা বহন করব। তাই বাংলাদেশে হিন্দুদের নিরাপত্তা দিতে শেখ হাসিনা সরকার ব্যর্থ হলে প্রয়োজনে যুদ্ধ হোক। বাংলাদেশকে উপযুক্ত ‘শিক্ষা’ দিতে হবে যাতে সংখ্যালঘু নির্যাতন বন্ধ হয়। এ ব্যাপারে বিধানসভায় প্রস্তাব পাশ করে তা কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে পাঠানোরও প্রস্তাবও দেন কংগ্রেস বিধায়ক আব্দুল খালেক। সূত্র : দৈনিক যুগশঙ্খ, অসমীয় প্রতিদিন ও দৈনিক সাময়িক প্রসঙ্গ।

Comments

Comments!

 সংখ্যালঘু নির্যাতন বন্ধ না হলে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধের আর্জি ভারতের বিধানসভায়AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

সংখ্যালঘু নির্যাতন বন্ধ না হলে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধের আর্জি ভারতের বিধানসভায়

Sunday, July 24, 2016 2:33 am
1_135914

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: সংখ্যালঘু/হিন্দু নির্যাতন বন্ধ না হলে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণার আর্জি করেছে ভারতের আসামের বিধানসভায়। শুক্রবার বিকালে আসামের বিধানসভায় বাজেট অধিবেশনের পঞ্চম দিনে এ প্রস্তাব দেন কংগ্রেসের বিধায়ক আব্দুল খালেক।

বাজেটের ওপর আলোচনায় বেসরকারি এক প্রস্তাবে তিনি বলেন, যে দেশের স্বাধীনতায় ভারতের অবদান সবচেয়ে বেশি, যে দেশ অর্থনৈতিক ক্ষেত্রে অনেকাংশে ভারতের ওপর নির্ভরশীল সে দেশে ক্রমাগত হিন্দুদের ওপর নির্যাতন হবে এটা মানা যায় না।

বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের সুরক্ষা নিশ্চিতের আহ্বান জানিয়ে আব্দুল খালেক বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি একজন শক্তিশালী নেতা। তিনি প্রয়োজনে শক্তি প্রদর্শন করে নিশ্চিত করুন যাতে বাংলাদেশে বসবাস করা কোনো সংখ্যালঘু নির্যাতনের মুখে না পড়ে। কারন বাংলাদেশে বসবাসকারী হিন্দুসহ অন্যান্য সংখ্যালঘুরা দেশ বিভাজনের বলি। তাই তাদের প্রতি রাষ্ট্রের দায়বদ্ধতা অস্বীকার করা যায় না। ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্র বাংলাদেশে ধর্মের নামে নির্যাতন হলে নির্যাতিতরা ভারতে আসার চেষ্টা করবেন এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু প্রশ্ন হল নির্যাতিতদের কতটা ভার আমরা বহন করব। তাই বাংলাদেশে হিন্দুদের নিরাপত্তা দিতে শেখ হাসিনা সরকার ব্যর্থ হলে প্রয়োজনে যুদ্ধ হোক।

বাংলাদেশকে উপযুক্ত ‘শিক্ষা’ দিতে হবে যাতে সংখ্যালঘু নির্যাতন বন্ধ হয়। এ ব্যাপারে বিধানসভায় প্রস্তাব পাশ করে তা কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে পাঠানোরও প্রস্তাবও দেন কংগ্রেস বিধায়ক আব্দুল খালেক।

সূত্র : দৈনিক যুগশঙ্খ, অসমীয় প্রতিদিন ও দৈনিক সাময়িক প্রসঙ্গ।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X