শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ২:১৫
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, September 10, 2016 8:47 am
A- A A+ Print

সব ধরনের মসলার দাম বৃদ্ধি পেয়েছে

152806_1

ঢাকা: আসন্ন পবিত্র ঈদুল আজহার আগে কাঁচাবাজরে প্রায় সব ধরনের মসলার খুচরা মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে। মসলার দাম বৃদ্ধি পেলেও পেঁয়াজের দাম কিছুট নিয়ন্ত্রণে আছে। রাজধানীর বিভিন্ন বাজারে মসলার খুচরা বিক্রেতারা জানান, মসলার দাম বেড়েছে। কারণ হিসেবে তারা চাহিদা বৃদ্ধির কথা বলছেন। ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)-এর সূত্র অনুযায়ী, প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৩০ থেকে ৪২ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে, গত সপ্তাহে যা ৩৩ টাকা ছিলো। টিসিবির সর্বশেষ বাজার তথ্য অনুযায়ী, বাজারে আদা, রসুন, জিরা, দারুচিনি ও এলাচির দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। ঈদে মসলার চাহিদা বেশি বলে মানুষ এসব মসলা ক্রয় করছেন। চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জে পাইকারি দামে আদা প্রতি কেজি ১১০ টাকা ও রসুন ১৬৫ টাকা কেজিতে বিক্রি হয়েছে, যা খুচরা বাজারে ছিলো যথাক্রমে ১৪০ টাকা ও ১৭০ টাকারও বেশি। এই মাসের শুরুতেও প্রতি কেজি আদার খুচরা মূল্য ছিলো ৫০ থেকে ৬০ টাকা। আর রসুন বিক্রি হয়েছে ১৩০ থেকে ১৪০ টাকা কেজি দরে। আদার উচ্চ মূল্য প্রসঙ্গে মসলা আমদানিকারক ফারুক আহমেদ জানান, এ বছর তারা ঈদের অধিক চাহিদা মেটাতে আদা আমদানি করতে পারেননি। তিনি জানান, এ বছর ইন্দোনেশিয়া ও ভারতের আদার উৎপাদন কম হওয়ায় আন্তর্জাতিক বাজারে আদার মূল্য অনেক বেশি ছিলো। এদিকে গত মাসে চারুচিনির গড় মূল্য ২৮০ টাকা কেজি হলেও বর্তমানে তা বেড়ে ৩৫০ টাকারও বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে। একইভাবে এলাচের দামও বেড়ে ১ হাজার ৬শ’ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। বাসস অবলম্বনে

Comments

Comments!

 সব ধরনের মসলার দাম বৃদ্ধি পেয়েছেAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

সব ধরনের মসলার দাম বৃদ্ধি পেয়েছে

Saturday, September 10, 2016 8:47 am
152806_1

ঢাকা: আসন্ন পবিত্র ঈদুল আজহার আগে কাঁচাবাজরে প্রায় সব ধরনের মসলার খুচরা মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে। মসলার দাম বৃদ্ধি পেলেও পেঁয়াজের দাম কিছুট নিয়ন্ত্রণে আছে।

রাজধানীর বিভিন্ন বাজারে মসলার খুচরা বিক্রেতারা জানান, মসলার দাম বেড়েছে। কারণ হিসেবে তারা চাহিদা বৃদ্ধির কথা বলছেন।

ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)-এর সূত্র অনুযায়ী, প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৩০ থেকে ৪২ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে, গত সপ্তাহে যা ৩৩ টাকা ছিলো।

টিসিবির সর্বশেষ বাজার তথ্য অনুযায়ী, বাজারে আদা, রসুন, জিরা, দারুচিনি ও এলাচির দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। ঈদে মসলার চাহিদা বেশি বলে মানুষ এসব মসলা ক্রয় করছেন।

চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জে পাইকারি দামে আদা প্রতি কেজি ১১০ টাকা ও রসুন ১৬৫ টাকা কেজিতে বিক্রি হয়েছে, যা খুচরা বাজারে ছিলো যথাক্রমে ১৪০ টাকা ও ১৭০ টাকারও বেশি।

এই মাসের শুরুতেও প্রতি কেজি আদার খুচরা মূল্য ছিলো ৫০ থেকে ৬০ টাকা। আর রসুন বিক্রি হয়েছে ১৩০ থেকে ১৪০ টাকা কেজি দরে।

আদার উচ্চ মূল্য প্রসঙ্গে মসলা আমদানিকারক ফারুক আহমেদ জানান, এ বছর তারা ঈদের অধিক চাহিদা মেটাতে আদা আমদানি করতে পারেননি।

তিনি জানান, এ বছর ইন্দোনেশিয়া ও ভারতের আদার উৎপাদন কম হওয়ায় আন্তর্জাতিক বাজারে আদার মূল্য অনেক বেশি ছিলো।

এদিকে গত মাসে চারুচিনির গড় মূল্য ২৮০ টাকা কেজি হলেও বর্তমানে তা বেড়ে ৩৫০ টাকারও বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে। একইভাবে এলাচের দামও বেড়ে ১ হাজার ৬শ’ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে।

বাসস অবলম্বনে

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X