মঙ্গলবার, ২০শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১:৪৭
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Tuesday, January 10, 2017 4:27 pm | আপডেটঃ January 10, 2017 6:01 PM
A- A A+ Print

সাত দিনে ২২ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে: জাতিসংঘ

166084_1

নাইপেদো: মায়ানামারের রাখাইন প্রদেশে চলমান অস্থিরতা থেকে পালিয়ে গত সাত দিনে ২২ হাজার রোহিঙ্গা মুসলমান সীমান্ত পার হয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ। গত অক্টোবর থেকে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে বর্মি সেনাবাহিনীর অভিযান শুরুর পর এ নিয়ে ৬৫ হাজারেরও বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে বলে সংস্থাটি জানায়। জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক সমন্বয় অফিস সোমবার এ তথ্য জানিয়েছে। এতে বলা হয়, বাস্তুচ্যুত শরণার্থীরা নিবন্ধিত শিবির, অস্থায়ী বসতিতে এবং কক্সবাজারের বিভিন্ন স্থানে আশ্রয় নিয়েছে। জাতিসংঘের মানবিকবিষয়ক সমন্বয় দপ্তর জানায়, ৫ জানুয়ারি পর্যন্ত ৬৫ হাজারের মতো রোহিঙ্গা বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলের কক্সবাজার এলাকার নিবন্ধিত ক্যাম্পে আশ্রয় নিয়েছে। গত ৯ অক্টোবর মায়ানমারের সীমান্ত পুলিশের অবস্থানে হামলার প্রতিক্রিয়ায় বর্মি আর্মি ‘ক্লিয়ারেন্স অপারেশন’ নামে ঢালাওভাবে রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতন শুরু করে। তাদের নির্যাতন থেকে বাঁচতে হাজার হাজার রোহিঙ্গারা পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। আশ্রয় শিবিরে এসব নির্যাতিতরা বর্মি সেনাবাহিনী কর্তৃক মানবাধিকার লঙ্ঘনের মর্মভেদী কাহিনী শুনাচ্ছে। রোহিঙ্গা গ্রামগুলোতে বার্মি সেনারা গণধর্ষণ, অগ্নিসংযোগ ও বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছে। এসব এলাকায় সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মীদের প্রবেশ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে এবং প্রায় ১,৩০,০০০ অসহায় মানুষ সেখানে মানবেতর জীবন যাপন করছে। এদিকে জাতিসংঘের বিশেষ দূত হয়ে আসা ইয়াংহি লিকে রাখাইন রাজ্যের বিভিন্ন অংশ ঘুরিয়ে দেখানো হয়েছে। তবে তার পরিদর্শন এলাকা ছিল সেনাবাহিনী নিয়ন্ত্রিত।   সূত্র: টাইম ম্যাগাজিন
 

Comments

Comments!

 সাত দিনে ২২ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে: জাতিসংঘAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

সাত দিনে ২২ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে: জাতিসংঘ

Tuesday, January 10, 2017 4:27 pm | আপডেটঃ January 10, 2017 6:01 PM
166084_1

নাইপেদো: মায়ানামারের রাখাইন প্রদেশে চলমান অস্থিরতা থেকে পালিয়ে গত সাত দিনে ২২ হাজার রোহিঙ্গা মুসলমান সীমান্ত পার হয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

গত অক্টোবর থেকে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে বর্মি সেনাবাহিনীর অভিযান শুরুর পর এ নিয়ে ৬৫ হাজারেরও বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে বলে সংস্থাটি জানায়।

জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক সমন্বয় অফিস সোমবার এ তথ্য জানিয়েছে। এতে বলা হয়, বাস্তুচ্যুত শরণার্থীরা নিবন্ধিত শিবির, অস্থায়ী বসতিতে এবং কক্সবাজারের বিভিন্ন স্থানে আশ্রয় নিয়েছে।

জাতিসংঘের মানবিকবিষয়ক সমন্বয় দপ্তর জানায়, ৫ জানুয়ারি পর্যন্ত ৬৫ হাজারের মতো রোহিঙ্গা বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলের কক্সবাজার এলাকার নিবন্ধিত ক্যাম্পে আশ্রয় নিয়েছে।

গত ৯ অক্টোবর মায়ানমারের সীমান্ত পুলিশের অবস্থানে হামলার প্রতিক্রিয়ায় বর্মি আর্মি ‘ক্লিয়ারেন্স অপারেশন’ নামে ঢালাওভাবে রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতন শুরু করে।

তাদের নির্যাতন থেকে বাঁচতে হাজার হাজার রোহিঙ্গারা পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। আশ্রয় শিবিরে এসব নির্যাতিতরা বর্মি সেনাবাহিনী কর্তৃক মানবাধিকার লঙ্ঘনের মর্মভেদী কাহিনী শুনাচ্ছে।

রোহিঙ্গা গ্রামগুলোতে বার্মি সেনারা গণধর্ষণ, অগ্নিসংযোগ ও বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছে। এসব এলাকায় সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মীদের প্রবেশ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে এবং প্রায় ১,৩০,০০০ অসহায় মানুষ সেখানে মানবেতর জীবন যাপন করছে।

এদিকে জাতিসংঘের বিশেষ দূত হয়ে আসা ইয়াংহি লিকে রাখাইন রাজ্যের বিভিন্ন অংশ ঘুরিয়ে দেখানো হয়েছে। তবে তার পরিদর্শন এলাকা ছিল সেনাবাহিনী নিয়ন্ত্রিত।

 

সূত্র: টাইম ম্যাগাজিন

 

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X