শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১০:১৪
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, November 26, 2016 8:03 pm
A- A A+ Print

সুন্দরবন রক্ষায় হরতালসহ ৭ দফা কর্মসূচি

55

ঢাকা: সাত দফা বাস্তবায়নের দাবিতে হরতালসহ ৫ দফা কর্মসূচি ঘোষণার মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে সুন্দরবনে রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র বন্ধের দাবিতে তেল-গ্যাস খনিজসম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির মহাসমাবেশ। কমিটির সদস্য সচিব আনু মুহাম্মদ শনিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে মহাসমাবেশ থেকে এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন। আনু মুহাম্মদ বলেন, ‘রামপাল প্রকল্পসহ সুন্দরবনবিনাশী সব অপতৎপরতা বন্ধ এবং জাতীয় কমিটির ৭ দফা বাস্তবায়নের দাবিতে আগামী ২৬ ডিসেম্বর দেশব্যাপী দাবি দিবস, বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করা হবে। ৭ জানুয়ারি বিশ্বব্যাপী প্রতিবাদ দিবস পালন করা হবে।’ তেল-গ্যাস কমিটির অন্য কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ১৪ জানুয়ারি দেশবাসীর সামনে জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতের জন্য সুলভ, টেকসই, পরিবেশ ও জনস্বার্থ অনুকূল বিকল্প মহাপরিকল্পনা উপস্থাপন, একইসঙ্গে সারা দেশে জেলা ও বিভাগী শহরে সমাবেশ। এই সময়ের মধ্যে দাবি পূরণ না হলে ২৬ জানুয়ারি ঢাকা মহানগরে আধাবলা সাধারণ ধর্মঘট পালন এবং পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে জানান অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ। সমাবেশে আনু মুহাম্মদ সবার প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, ‘শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস ও বিজয় দিবসে সুন্দরবন রক্ষার আওয়াজ নিয়ে শহীদদের স্মরণ করুন। সারা দেশে নিজ নিজ উদ্যোগে সুন্দরবনের জন্য গান, নাটক ও তথ্যচিত্র তৈরি করুন। সভা-সমাবেশ, মানববন্ধন, সাইকেল মিছিল ও নৌকা মিছিলসহ বিভিন্নমাত্রিক প্রচার ও প্রতিবাদ কর্মসূচি গ্রহণ করুন।’ বিভিন্ন দেশে সুন্দরবন রক্ষার এ আন্দোলন ছড়িয়ে পড়েছে, এ কথা উল্লেখ করে আনু মুহাম্মদ বলেন, ভারতের ৪৩টি সংগঠন রামপাল প্রকল্প বাতিলের দাবিতে সমর্থন দিয়েছে। ৭ জানুয়ারি বিশ্ব প্রতিবাদ দিবস পালিত হবে। ভারত বাংলাদেশসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এই প্রতিবাদ দিবস পালিত হবে। ১৪ জানুয়ারি রামপাল বিদ্যুৎ প্রকল্পসহ বিভিন্ন কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ প্রকল্প বাতিল করে কিভাবে দেশে জ্বালানি নিরাপত্তা নিশ্চিত করা যায়, এ বিষয়ে একটি মহাপরিকল্পনা উপস্থাপন করা হবে।

Comments

Comments!

 সুন্দরবন রক্ষায় হরতালসহ ৭ দফা কর্মসূচিAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

সুন্দরবন রক্ষায় হরতালসহ ৭ দফা কর্মসূচি

Saturday, November 26, 2016 8:03 pm
55

ঢাকা: সাত দফা বাস্তবায়নের দাবিতে হরতালসহ ৫ দফা কর্মসূচি ঘোষণার মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে সুন্দরবনে রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র বন্ধের দাবিতে তেল-গ্যাস খনিজসম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির মহাসমাবেশ।

কমিটির সদস্য সচিব আনু মুহাম্মদ শনিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে মহাসমাবেশ থেকে এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন।

আনু মুহাম্মদ বলেন, ‘রামপাল প্রকল্পসহ সুন্দরবনবিনাশী সব অপতৎপরতা বন্ধ এবং জাতীয় কমিটির ৭ দফা বাস্তবায়নের দাবিতে আগামী ২৬ ডিসেম্বর দেশব্যাপী দাবি দিবস, বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করা হবে। ৭ জানুয়ারি বিশ্বব্যাপী প্রতিবাদ দিবস পালন করা হবে।’

তেল-গ্যাস কমিটির অন্য কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ১৪ জানুয়ারি দেশবাসীর সামনে জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতের জন্য সুলভ, টেকসই, পরিবেশ ও জনস্বার্থ অনুকূল বিকল্প মহাপরিকল্পনা উপস্থাপন, একইসঙ্গে সারা দেশে জেলা ও বিভাগী শহরে সমাবেশ।

এই সময়ের মধ্যে দাবি পূরণ না হলে ২৬ জানুয়ারি ঢাকা মহানগরে আধাবলা সাধারণ ধর্মঘট পালন এবং পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে জানান অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ।

সমাবেশে আনু মুহাম্মদ সবার প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, ‘শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস ও বিজয় দিবসে সুন্দরবন রক্ষার আওয়াজ নিয়ে শহীদদের স্মরণ করুন। সারা দেশে নিজ নিজ উদ্যোগে সুন্দরবনের জন্য গান, নাটক ও তথ্যচিত্র তৈরি করুন। সভা-সমাবেশ, মানববন্ধন, সাইকেল মিছিল ও নৌকা মিছিলসহ বিভিন্নমাত্রিক প্রচার ও প্রতিবাদ কর্মসূচি গ্রহণ করুন।’

বিভিন্ন দেশে সুন্দরবন রক্ষার এ আন্দোলন ছড়িয়ে পড়েছে, এ কথা উল্লেখ করে আনু মুহাম্মদ বলেন, ভারতের ৪৩টি সংগঠন রামপাল প্রকল্প বাতিলের দাবিতে সমর্থন দিয়েছে। ৭ জানুয়ারি বিশ্ব প্রতিবাদ দিবস পালিত হবে। ভারত বাংলাদেশসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এই প্রতিবাদ দিবস পালিত হবে। ১৪ জানুয়ারি রামপাল বিদ্যুৎ প্রকল্পসহ বিভিন্ন কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ প্রকল্প বাতিল করে কিভাবে দেশে জ্বালানি নিরাপত্তা নিশ্চিত করা যায়, এ বিষয়ে একটি মহাপরিকল্পনা উপস্থাপন করা হবে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X