সোমবার, ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রাত ১২:১৯
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Saturday, September 3, 2016 12:19 pm
A- A A+ Print

২৫ লাখ গ্যালাক্সি নোট ৭ ফেরত নিচ্ছে স্যামসাং

30062_b3

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বিক্রি করা ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন গ্যালাক্সি নোট ৭ ফেরত নেয়ার ঘোষণা দিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্যামসাং। এই মডেলের ফোনে ব্যবহৃত ব্যাটারিতে সমস্যা থাকার কারণে চার্জিংয়ের সময় ফোনে আগুন ধরে যাওয়ার ঘটনা দেখা গেছে। যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়ায় এই ফোনে আগুন লাগা বা ফোনের বিস্ফোরিত হওয়ার খবর উঠে এসেছে গণমাধ্যমে। স্যামসাং বলছে, যারা এই ফোনটি কিনেছেন, তাদের এটি বদলে নতুন ফোন দেয়া হবে। এ খবর দিয়েছে বিবিসি। খবরে বলা হয়, এখন পর্যন্ত গ্যালাক্সি নোট ৭ মডেলের ফ্ল্যাগশিপ ফোনটি বিক্রি হয়েছে প্রায় ২৫ লাখ। এর মধ্যে ঠিক কোন ফোনগুলোর ব্যাটারিতে সমস্যা রয়েছে তা খুঁজে বের করা কঠিন কাজ বলে জানিয়েছে স্যামসাং। কোম্পানির মোবাইল ব্যবসায়ের প্রেসিডেন্ট কোহ ডং-জিন সাংবাদিকদের বলেন, ‘উৎপাদন প্রক্রিয়ায় সামান্য একটি সমস্যা ছিল। ফলে এটা খুঁজে বের করা খুবই কঠিন। এতে আমাদের এত বেশি খরচ হবে যে এখনই আমার বুকে ব্যথা হচ্ছে। তা সত্ত্বেও আমরা বিক্রি হওয়া সব ফোন ফেরত নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কারণ, আমাদের কাছে গ্রাহকদের নিরাপত্তাই সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ।’ স্যামসাং জানিয়েছে, ডিভাইস বদলে দেয়ার প্রস্তুতির জন্য তারা সপ্তাহ দু’য়েক সময় নেবে। স্যামসাংয়ের তথ্য অনুযায়ী, ফোনটি ১০টি দেশে বিক্রি হচ্ছে। কিন্তু এর ব্যাটারিগুলো সরবরাহ করেছে বিভিন্ন কোম্পানি। স্যামসাংয়ের প্রধান প্রতিপক্ষ অ্যাপলের নতুন আইফোনের ঘোষণা দেয়ার মাত্র এক সপ্তাহ আগে স্যামসাং তাদের বিক্রি করা ডিভাইস ফেরত নেয়ার ঘোষণা দিয়েছে। গত কয়েকদিনে বেশ কয়েকজন জানিয়েছেন, তাদের গ্যালাক্সি নোট ৭ স্মার্টফোনটি চার্জ দেয়ার সময় আগুন ধরেছে বা বিস্ফোরিত হয়েছে। এখন পর্যন্ত স্যামসাং এমন ৩৫টি ঘটনা নিশ্চিত করেছে। অ্যারিয়েল গনজালেজ নামে একজন ইউটিউব ব্যবহারকারী ২৯শে আগস্ট একটি ভিডিও আপলোড করেছে যাতে পুড়ে যাওয়া রাবার কেসিং ও ক্ষতি হওয়া স্ক্রিনসহ একটি গ্যালাক্সি নোট ৭ দেখানো হয়েছে। ভিডিওতে বলা হয়, স্যামসাংয়ের দেয়া মূল চার্জার দিয়ে তিনি স্মার্টফোনটি চার্জ দিচ্ছিলেন। চার্জার খুলে ফেলার পর পরই ফোনটিতে ‘আগুন লেগে যায়’। ফোনটি কেনার দুই সপ্তাহের মধ্যেই এমনটি ঘটে। ৩০শে আগস্ট কোরিয়ার জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম কাকাও স্টোরিতে পুড়ে যাওয়া গ্যালাক্সি নোট ৭-এর বেশ কয়েকটি ছবি পোস্ট করা হয়। গত ১৯শে আগস্ট আনুষ্ঠানিকভাবে ফোনটির বিক্রি শুরু হয়। গ্রাহক-সমালোচকদের কাছে প্রশংসিত হয় ফোনটি। স্যামসাংয়ের ফ্যাবলেট সিরিজের এটিই সর্বশেষ মডেল। এর বিশেষ ফিচারের মধ্যে রয়েছে আইরিশ স্ক্যানার। এই ফিচার থাকায় ফোনটি আনলক করতে ব্যবহারকারীর চোখের নকশা ব্যবহার করা হয়। দিয়ে ডিভাইসটি আনলক করতে হয় এই ফিচার ব্যবহার করে। কিন্তু অত্যাধুনিক এই স্মার্টফোনের ব্যাটারিই শেষ পর্যন্ত এর কাল হয়ে দাঁড়িয়েছে।

Comments

Comments!

 ২৫ লাখ গ্যালাক্সি নোট ৭ ফেরত নিচ্ছে স্যামসাংAmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

২৫ লাখ গ্যালাক্সি নোট ৭ ফেরত নিচ্ছে স্যামসাং

Saturday, September 3, 2016 12:19 pm
30062_b3

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বিক্রি করা ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন গ্যালাক্সি নোট ৭ ফেরত নেয়ার ঘোষণা দিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্যামসাং। এই মডেলের ফোনে ব্যবহৃত ব্যাটারিতে সমস্যা থাকার কারণে চার্জিংয়ের সময় ফোনে আগুন ধরে যাওয়ার ঘটনা দেখা গেছে। যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়ায় এই ফোনে আগুন লাগা বা ফোনের বিস্ফোরিত হওয়ার খবর উঠে এসেছে গণমাধ্যমে। স্যামসাং বলছে, যারা এই ফোনটি কিনেছেন, তাদের এটি বদলে নতুন ফোন দেয়া হবে। এ খবর দিয়েছে বিবিসি। খবরে বলা হয়, এখন পর্যন্ত গ্যালাক্সি নোট ৭ মডেলের ফ্ল্যাগশিপ ফোনটি বিক্রি হয়েছে প্রায় ২৫ লাখ। এর মধ্যে ঠিক কোন ফোনগুলোর ব্যাটারিতে সমস্যা রয়েছে তা খুঁজে বের করা কঠিন কাজ বলে জানিয়েছে স্যামসাং। কোম্পানির মোবাইল ব্যবসায়ের প্রেসিডেন্ট কোহ ডং-জিন সাংবাদিকদের বলেন, ‘উৎপাদন প্রক্রিয়ায় সামান্য একটি সমস্যা ছিল। ফলে এটা খুঁজে বের করা খুবই কঠিন। এতে আমাদের এত বেশি খরচ হবে যে এখনই আমার বুকে ব্যথা হচ্ছে। তা সত্ত্বেও আমরা বিক্রি হওয়া সব ফোন ফেরত নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কারণ, আমাদের কাছে গ্রাহকদের নিরাপত্তাই সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ।’ স্যামসাং জানিয়েছে, ডিভাইস বদলে দেয়ার প্রস্তুতির জন্য তারা সপ্তাহ দু’য়েক সময় নেবে। স্যামসাংয়ের তথ্য অনুযায়ী, ফোনটি ১০টি দেশে বিক্রি হচ্ছে। কিন্তু এর ব্যাটারিগুলো সরবরাহ করেছে বিভিন্ন কোম্পানি। স্যামসাংয়ের প্রধান প্রতিপক্ষ অ্যাপলের নতুন আইফোনের ঘোষণা দেয়ার মাত্র এক সপ্তাহ আগে স্যামসাং তাদের বিক্রি করা ডিভাইস ফেরত নেয়ার ঘোষণা দিয়েছে।
গত কয়েকদিনে বেশ কয়েকজন জানিয়েছেন, তাদের গ্যালাক্সি নোট ৭ স্মার্টফোনটি চার্জ দেয়ার সময় আগুন ধরেছে বা বিস্ফোরিত হয়েছে। এখন পর্যন্ত স্যামসাং এমন ৩৫টি ঘটনা নিশ্চিত করেছে। অ্যারিয়েল গনজালেজ নামে একজন ইউটিউব ব্যবহারকারী ২৯শে আগস্ট একটি ভিডিও আপলোড করেছে যাতে পুড়ে যাওয়া রাবার কেসিং ও ক্ষতি হওয়া স্ক্রিনসহ একটি গ্যালাক্সি নোট ৭ দেখানো হয়েছে। ভিডিওতে বলা হয়, স্যামসাংয়ের দেয়া মূল চার্জার দিয়ে তিনি স্মার্টফোনটি চার্জ দিচ্ছিলেন। চার্জার খুলে ফেলার পর পরই ফোনটিতে ‘আগুন লেগে যায়’। ফোনটি কেনার দুই সপ্তাহের মধ্যেই এমনটি ঘটে। ৩০শে আগস্ট কোরিয়ার জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম কাকাও স্টোরিতে পুড়ে যাওয়া গ্যালাক্সি নোট ৭-এর বেশ কয়েকটি ছবি পোস্ট করা হয়। গত ১৯শে আগস্ট আনুষ্ঠানিকভাবে ফোনটির বিক্রি শুরু হয়। গ্রাহক-সমালোচকদের কাছে প্রশংসিত হয় ফোনটি। স্যামসাংয়ের ফ্যাবলেট সিরিজের এটিই সর্বশেষ মডেল। এর বিশেষ ফিচারের মধ্যে রয়েছে আইরিশ স্ক্যানার। এই ফিচার থাকায় ফোনটি আনলক করতে ব্যবহারকারীর চোখের নকশা ব্যবহার করা হয়। দিয়ে ডিভাইসটি আনলক করতে হয় এই ফিচার ব্যবহার করে। কিন্তু অত্যাধুনিক এই স্মার্টফোনের ব্যাটারিই শেষ পর্যন্ত এর কাল হয়ে দাঁড়িয়েছে।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X