বৃহস্পতিবার, ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, দুপুর ১২:৫৯
শিরোনাম
  • ঘৃণাকে বিজয়ী হতে দেয়া যাবে না, ট্রাম্পকে ইঙ্গিত করে জর্জ ক্লুনি
  • আমার একটাই চিন্তা দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা: প্রধানমন্ত্রী
  • ‘কেন্দ্রীয় সরকারের আগ্রাসী নীতির কারণে কাশ্মীরকে হারাতে হবে’
  • সাড়ে চারমাস পর মুখোমুখি, খাদিজাকে উদ্দেশ্য করে যা বলল বদরুল
  • খালেদার ‘সাজা’ বিরোধী নেতাকর্মীদের মনোবল ভাঙ্গার কৌশল!
  • বিএনপির কর্মসূচি ‘যথাসময়ে’ জানানো হবে: রিজভী
  • দলের জন্য বোলিং করতেও রাজি মুশফিক
  • শিশু জিহাদের মৃত্যু: চার জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড
  • অবশেষে বাড়ি অবরুদ্ধ করে রাখা সেই দেয়াল ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে
  • সাক্ষ্য দিলেন খাদিজা, চাইলেন বদরুলের সর্বোচ্চ শাস্তি
  • বদরুলের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে আদালতে খাদিজা
  • আজ বগুড়ায় যেসব প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা স্থানান্তরের সরকারি পরিকল্পনার সঙ্গে দ্বিমত মানবাধিকার কমিশনের
  • মহেশখালীতে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’
  • হোয়াইট হাউসে কাজ করার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কথা জানালেন এই বাংলাদেশি সাংবাদিক
Friday, December 23, 2016 9:04 pm
A- A A+ Print

32

তারকাদের গ্ল্যামার আর অভিনয়ে মুগ্ধ হন ভক্ত। এ জন্যই হয়তো ভক্তদের মাঝে তারকাদের ব্যক্তিগত বিষয়েও আগ্রহ একটু বেশিই থাকে। এ সুযোগটি কাজে লাগান অনেকে। অনেক সময় দেখা যায়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন মাধ্যমে তারকাদের নিয়ে মুখরোচক খবর প্রকাশিত হয়। বর্তমানে এ ধরনের খবর ফেসবুকে দ্রুত ছড়িয়ে পরে। এ নিয়ে বিব্রতকর অবস্থায় পরতে হয় তারকাদের। এর ধরনের গুজব নতুন নয়। এর আগেও শাবনূর, পপিসহ অনেক জনপ্রিয় নায়িকাদের নিয়ে বিভিন্ন সময় গুজব রটানো হয়েছে, যা অনেক সময়ই মিথ্যা প্রমাণিত হয়েছে। ঢাকাই চলচ্চিত্রে তারাকাদের নিয়ে ২০১৬ সালেও বেশ কিছু গুজব রটেছে। এসব গুজবের মধ্যে ঢালিউড নায়িকাদের বিয়ের গুজব এবারের বেশি গুরুত্ব পেয়েছে। এ তালিকায় রয়েছে-চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস, জয়া আহসান, মাহিয়া মাহি, পরীমনি, নাজনিন আক্তার হ্যাপি ও শবনম বুবলী। জনপ্রিয় ছয় নায়িকার বিয়ের গুঞ্জন নিয়ে সাজানো হয়েছে ২০১৬ সালের সালতামামি। জয়া আহসান : চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেত্রী জয়া আহসানের সঙ্গে বছরের শুরুতে কলকাতার নির্মাতা সৃজিতের বিয়ের গুঞ্জন ওঠে। Joya এমনকি বিষয়টি নিয়ে শাকিব খানও গণমাধ্যমে মন্তব্য করেন। তবে বিষয়টি এখনও প্রমাণিত হয়নি। ধারণা করা হচ্ছে শাকিব-জয়ার পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনি-টু সিনেমাটির মুক্তিকে সামনে রেখেই এমন সংবাদ প্রকাশ করা হয়। এটি সস্তা প্রচারণা ছাড়া আর কিছুই নয়। পরীমনি : চলতি বছরের ৩১ জানুয়ারি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে কিছু স্থিরচিত্র প্রকাশিত হয়। এসব স্থিরচিত্রের ক্যাপশনে লেখা হয় :  ‘স্বামীর সঙ্গে পরীমনি’। এখানে স্বামীর নাম লেখা হয় ইসমাইল। তারপর এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমসহ সংবাদ মাধ্যমগুলোতে মুখরোচক সংবাদ প্রকাশিত হয়। সে ঝড় থামতে না থামতেই একদিন পরে প্রকাশিত হয় পরীর বিয়ের কাবিননামা। এতে তার স্বামীর নাম জানা যায় সৌরভ কবীর। শাকিল রিয়াজ নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে স্ট্যাটাসের মাধ্যমে এ তথ্যগুলো জানানো হয়। পরীমনির দুজন স্বামীর নাম প্রকাশ করা হলেও এখন পর্যন্ত ইসমাইল ও সৌরভ কবীরের পক্ষ থেকে কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি। এদিকে বিষয়টি ভিত্তিহীন ও মিথ্যে বলে দাবি করেছেন পরীমনি। বিয়ের বিষয়টি এখনও প্রমানিত হয়নি বলে বিষয়টি গুজবই বলা যায়। মাহিয়া মাহি : চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির বিয়ের গুঞ্জনে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ সংবাদ মাধ্যমগুলোতে ব্যাপক আলোচনার ঝড় বয়ে যায়। মাহি এক যুবকের সঙ্গে সেলফি তুলে ফেসবুকে আপলোড করার পরই শুরু হয়ে যায় লঙ্কাকাণ্ড। Mahiya_Mahi এ নিয়ে বিনোদন অঙ্গনেও চলে ব্যাপক আলোচনা। অনেক ভক্ত বিষয়টি একেবারেই মেনে নিতে পারেননি। তারা ফেসবুকে মন্তব্য করে মনের ঝাল মিটিয়েছেন। তবে বিয়ের বিষয়টি মাহি অস্বীকার করেন।পরে জানা যায় ছেলেটি মাহির বন্ধু শাওন।   অপু বিশ্বাস : ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস। চলতি বছরের শেষের দিকে বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় খবর প্রকাশ করা হয় চিত্রনায়ক শাকিব খানকে বিয়ে করেছেন অপু বিশ্বাস। যদিও্ এর আগেও বেশ কয়েকবারই এমন খবর প্রকাশ করা হয়। গুলশানে শাকিবের বাসাতেই মুসলিম রীতি অনুযায়ী সম্পন্ন হওয়া বিয়েতে হিন্দু ধর্মাবলম্বী অবন্তী বিশ্বাস অপুর নাম কাবিননামায় ‘অপু ইসলাম খান’ নামে লিপিবদ্ধ করা হয় বলে খবর প্রকাশ করা হয়। বিয়ের খবরের রেশ কাটতে না কাটতেই শাকিব-অপুর ঘরে সন্তান- এমন খবরও প্রকাশিত হয় সংবাদ মাধ্যমে। বাচ্চা প্রসবের জন্যই এতদিন মিডিয়া থেকে দূরে রয়েছেন বলে উল্লেখ্য করা হয়। মিডিয়ার অন্তরালে থাকলেও এসব খবর নিয়ে আলোচনায় ছিলেন অপু।   সম্প্রতি জিতু নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে যশোরের তন্ময় বিশ্বাস নামের এক ছেলের সঙ্গে অপুর বিয়ে বলে স্ট্যাটাস দেয়া হয়। এর পরেই বিভিন্ন অনলাইন নিউজ পোর্টাল খবরটি প্রকাশ করে। যদিও খবর প্রকাশের পর জিতু তা অস্বীকার করেন। তিনি জানান, এর পুরোটাই ছিল ফান। তন্ময় তার বন্ধু। তাকে নিয়ে মজা করতে গিয়ে বিষয়টি সিরিয়াস হয়ে গেছে। তার মানে দাঁড়ালো বিয়ের বিষয়টা গুজবই ছিলো। অপু বর্তমানে ভারতের শিলিগুড়িতে তার মায়ের সঙ্গে রয়েছেন বলে জানা গেছে।   শবনম বুবলী : চলতি বছর ঢাকাই চলচ্চিত্রে জোড়া সিনেমা দিয়ে অভিষেক হয়েছে চিত্রনায়িকা শবনম বুবলির। তিনি দীর্ঘদিন বেসরকারি টেলিভিশনের সংবাদ পাঠিকা হিসেবে কাজ করেন। এরপর রুপালী জগতে নাম লেখান তিনি। সিনেমা মুক্তির কিছুদিন পরেই শোনা গেলো বুবলি বিবাহিতা। Bubli তার ঘরে সাত বছরের সন্তানও রয়েছে। এছাড়া এর আগেও একবার তার বিয়ে হয়েছিলো। দেশের জাতীয় দৈনিকসহ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে এমন খবর প্রকাশ করা হয়। এ নিয়ে চলচ্চিত্র পাড়ায় শোরগোল পড়ে যায়। বিষয়টি নিয়ে তার দীর্ঘদিনের কর্মস্থল বাংলাভিশনে আলাপ করেও সঠিক কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি। তারা বিষয়টির প্রসঙ্গে নীরব থেকেছেন। তবে বিষয়টি সত্য নয় বলে দাবি করেছেন বুবলি। কিন্তু এখনও বিষয়টি প্রমানিত হয়নি। গুজবই রয়ে গেছে।   নাজনীন আক্তার হ্যাপি : শোবিজ অঙ্গনের আলোচিত নাম নাজনীন আক্তার হ্যাপি। গত দুই বছর ধরে বিভিন্ন গুজবের কারণে সংবাদের শিরোনাম হয়েছেন এই অভিনেত্রী। চলতি বছরের ১৮ অক্টোবর, সোমবার রাতে মিরপুরের রূপনগরে বিয়ে হয় হ্যাপির। বিয়ের পর আত্মীয়-স্বজন ও প্রতিবেশীদের মিষ্টি বিতরণও করা হয়। হ্যাপির বর মিরপুরের এক মাদ্রাসার শিক্ষক। বিয়ের সময় দুই পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। সংবাদমাধ্যমে হ্যাপির বোন শারমিন আক্তার পপি বিয়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেন বলে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে খবর প্রকাশ করা হয়। কিন্তু হ্যাপি বিষয়টি অস্বীকার করে ফেসবুক পেজে লেখেন : ‘‘আমার বিয়ে হয়নি! আমার বাসার লোকদের মাধ্যমে জানতে পারলাম ‘গোপনে বিয়ে সারলেন হ্যাপি’ এই শিরোনামে নিউজ যাচ্ছে! ভেবেছিলাম বিষয়টা পাত্তা দেব না কিন্তু এত বাড়াবাড়ি হচ্ছে যে, অসহনীয় পর্যায়ে চলে যাচ্ছে!’’   Happy   তিনি আরো লেখেন : ‘এবার আসল ঘটনায় আসি! বিয়ের যে নিউজ হচ্ছে, যে তারিখ ও সময় উল্লেখ করে, সেটা আসলে বিয়ে নয়। আমাকে বিয়ের জন্য পাত্রপক্ষ দেখতে এসেছিল। পারিবারিকভাবে বিয়ের কথাবার্তা হয়েছে তবে তা পাকা কথাবার্তা নয়। আর কাবিনটাবিন অনেক পরের কথা। আল্লাহ চাইলে বিয়ে হবে, না হলে না। দৈনিক পত্রিকা ও অনলাইন নিউজ পোর্টালগুলোর কাছে একটা অনুরোধ- পুরোপুরি নিশ্চিত না হয়ে কোনো খবর প্রকাশ করবেন না। আল্লাহ যেদিন আমার বিয়ের ফায়সালা করবেন সেদিনই জানিয়ে দেব ইনশাআল্লাহ!’ তবে বিয়ের বিষয়টি এখনও প্রমানিত হয়নি। গুজবই রয়ে গেছে।   আমাদের দেশে বিয়ে করলে তারকাদের দর্শকপ্রিয়তা কমে যাবে বলে বিয়ের বিষয়টি গোপন রাখেন অনেকে। এমনও হয়েছে বিয়ে করেছেন অনেক আগেই কিন্তু এখন পর্যন্ত মিডিয়ার সামনে নিজেদের স্ত্রী বা স্বামীকে পরিচয় করাননি। বিয়ে করা অন্যায় নয়। বিশ্বের অনেক তারকা বিয়ের পরও অসংখ্য জনপ্রিয় সিনেমা উপহার দিয়েছেন। তাদের জনপ্রিয়তায় কোনরকম ছেদ পরেনি। পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের বলিউডের জনপ্রিয় তারকারা বিয়ের পরেও তাদের জনপ্রিয়তা ধরে রেখেছেন। এ তালিকায় রয়েছেন-শাহরুখ খান, আমির খান, অক্ষয় ক্ষান্না, হৃত্বিক রোশন, কারিনা কাপুরদের মতো অনেকেই।

Comments

Comments!

 AmarbangladeshonlineAmarbangladeshonline | Amarbangladeshonline

Friday, December 23, 2016 9:04 pm
32

তারকাদের গ্ল্যামার আর অভিনয়ে মুগ্ধ হন ভক্ত। এ জন্যই হয়তো ভক্তদের মাঝে তারকাদের ব্যক্তিগত বিষয়েও আগ্রহ একটু বেশিই থাকে। এ সুযোগটি কাজে লাগান অনেকে। অনেক সময় দেখা যায়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন মাধ্যমে তারকাদের নিয়ে মুখরোচক খবর প্রকাশিত হয়। বর্তমানে এ ধরনের খবর ফেসবুকে দ্রুত ছড়িয়ে পরে। এ নিয়ে বিব্রতকর অবস্থায় পরতে হয় তারকাদের। এর ধরনের গুজব নতুন নয়। এর আগেও শাবনূর, পপিসহ অনেক জনপ্রিয় নায়িকাদের নিয়ে বিভিন্ন সময় গুজব রটানো হয়েছে, যা অনেক সময়ই মিথ্যা প্রমাণিত হয়েছে।

ঢাকাই চলচ্চিত্রে তারাকাদের নিয়ে ২০১৬ সালেও বেশ কিছু গুজব রটেছে। এসব গুজবের মধ্যে ঢালিউড নায়িকাদের বিয়ের গুজব এবারের বেশি গুরুত্ব পেয়েছে। এ তালিকায় রয়েছে-চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস, জয়া আহসান, মাহিয়া মাহি, পরীমনি, নাজনিন আক্তার হ্যাপি ও শবনম বুবলী। জনপ্রিয় ছয় নায়িকার বিয়ের গুঞ্জন নিয়ে সাজানো হয়েছে ২০১৬ সালের সালতামামি।

জয়া আহসান : চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেত্রী জয়া আহসানের সঙ্গে বছরের শুরুতে কলকাতার নির্মাতা সৃজিতের বিয়ের গুঞ্জন ওঠে।

Joya

এমনকি বিষয়টি নিয়ে শাকিব খানও গণমাধ্যমে মন্তব্য করেন। তবে বিষয়টি এখনও প্রমাণিত হয়নি। ধারণা করা হচ্ছে শাকিব-জয়ার পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনি-টু সিনেমাটির মুক্তিকে সামনে রেখেই এমন সংবাদ প্রকাশ করা হয়। এটি সস্তা প্রচারণা ছাড়া আর কিছুই নয়।

পরীমনি : চলতি বছরের ৩১ জানুয়ারি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে কিছু স্থিরচিত্র প্রকাশিত হয়। এসব স্থিরচিত্রের ক্যাপশনে লেখা হয় :  ‘স্বামীর সঙ্গে পরীমনি’। এখানে স্বামীর নাম লেখা হয় ইসমাইল। তারপর এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমসহ সংবাদ মাধ্যমগুলোতে মুখরোচক সংবাদ প্রকাশিত হয়। সে ঝড় থামতে না থামতেই একদিন পরে প্রকাশিত হয় পরীর বিয়ের কাবিননামা। এতে তার স্বামীর নাম জানা যায় সৌরভ কবীর। শাকিল রিয়াজ নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে স্ট্যাটাসের মাধ্যমে এ তথ্যগুলো জানানো হয়। পরীমনির দুজন স্বামীর নাম প্রকাশ করা হলেও এখন পর্যন্ত ইসমাইল ও সৌরভ কবীরের পক্ষ থেকে কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি। এদিকে বিষয়টি ভিত্তিহীন ও মিথ্যে বলে দাবি করেছেন পরীমনি। বিয়ের বিষয়টি এখনও প্রমানিত হয়নি বলে বিষয়টি গুজবই বলা যায়।

মাহিয়া মাহি : চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির বিয়ের গুঞ্জনে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ সংবাদ মাধ্যমগুলোতে ব্যাপক আলোচনার ঝড় বয়ে যায়। মাহি এক যুবকের সঙ্গে সেলফি তুলে ফেসবুকে আপলোড করার পরই শুরু হয়ে যায় লঙ্কাকাণ্ড।

Mahiya_Mahi

এ নিয়ে বিনোদন অঙ্গনেও চলে ব্যাপক আলোচনা। অনেক ভক্ত বিষয়টি একেবারেই মেনে নিতে পারেননি। তারা ফেসবুকে মন্তব্য করে মনের ঝাল মিটিয়েছেন। তবে বিয়ের বিষয়টি মাহি অস্বীকার করেন।পরে জানা যায় ছেলেটি মাহির বন্ধু শাওন।

 

অপু বিশ্বাস : ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস। চলতি বছরের শেষের দিকে বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় খবর প্রকাশ করা হয় চিত্রনায়ক শাকিব খানকে বিয়ে করেছেন অপু বিশ্বাস। যদিও্ এর আগেও বেশ কয়েকবারই এমন খবর প্রকাশ করা হয়। গুলশানে শাকিবের বাসাতেই মুসলিম রীতি অনুযায়ী সম্পন্ন হওয়া বিয়েতে হিন্দু ধর্মাবলম্বী অবন্তী বিশ্বাস অপুর নাম কাবিননামায় ‘অপু ইসলাম খান’ নামে লিপিবদ্ধ করা হয় বলে খবর প্রকাশ করা হয়। বিয়ের খবরের রেশ কাটতে না কাটতেই শাকিব-অপুর ঘরে সন্তান- এমন খবরও প্রকাশিত হয় সংবাদ মাধ্যমে। বাচ্চা প্রসবের জন্যই এতদিন মিডিয়া থেকে দূরে রয়েছেন বলে উল্লেখ্য করা হয়। মিডিয়ার অন্তরালে থাকলেও এসব খবর নিয়ে আলোচনায় ছিলেন অপু।

 

সম্প্রতি জিতু নামের একটি ফেসবুক আইডি থেকে যশোরের তন্ময় বিশ্বাস নামের এক ছেলের সঙ্গে অপুর বিয়ে বলে স্ট্যাটাস দেয়া হয়। এর পরেই বিভিন্ন অনলাইন নিউজ পোর্টাল খবরটি প্রকাশ করে। যদিও খবর প্রকাশের পর জিতু তা অস্বীকার করেন। তিনি জানান, এর পুরোটাই ছিল ফান। তন্ময় তার বন্ধু। তাকে নিয়ে মজা করতে গিয়ে বিষয়টি সিরিয়াস হয়ে গেছে। তার মানে দাঁড়ালো বিয়ের বিষয়টা গুজবই ছিলো। অপু বর্তমানে ভারতের শিলিগুড়িতে তার মায়ের সঙ্গে রয়েছেন বলে জানা গেছে।

 

শবনম বুবলী : চলতি বছর ঢাকাই চলচ্চিত্রে জোড়া সিনেমা দিয়ে অভিষেক হয়েছে চিত্রনায়িকা শবনম বুবলির। তিনি দীর্ঘদিন বেসরকারি টেলিভিশনের সংবাদ পাঠিকা হিসেবে কাজ করেন। এরপর রুপালী জগতে নাম লেখান তিনি। সিনেমা মুক্তির কিছুদিন পরেই শোনা গেলো বুবলি বিবাহিতা।

Bubli

তার ঘরে সাত বছরের সন্তানও রয়েছে। এছাড়া এর আগেও একবার তার বিয়ে হয়েছিলো। দেশের জাতীয় দৈনিকসহ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে এমন খবর প্রকাশ করা হয়। এ নিয়ে চলচ্চিত্র পাড়ায় শোরগোল পড়ে যায়। বিষয়টি নিয়ে তার দীর্ঘদিনের কর্মস্থল বাংলাভিশনে আলাপ করেও সঠিক কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি। তারা বিষয়টির প্রসঙ্গে নীরব থেকেছেন। তবে বিষয়টি সত্য নয় বলে দাবি করেছেন বুবলি। কিন্তু এখনও বিষয়টি প্রমানিত হয়নি। গুজবই রয়ে গেছে।

 

নাজনীন আক্তার হ্যাপি : শোবিজ অঙ্গনের আলোচিত নাম নাজনীন আক্তার হ্যাপি। গত দুই বছর ধরে বিভিন্ন গুজবের কারণে সংবাদের শিরোনাম হয়েছেন এই অভিনেত্রী। চলতি বছরের ১৮ অক্টোবর, সোমবার রাতে মিরপুরের রূপনগরে বিয়ে হয় হ্যাপির। বিয়ের পর আত্মীয়-স্বজন ও প্রতিবেশীদের মিষ্টি বিতরণও করা হয়। হ্যাপির বর মিরপুরের এক মাদ্রাসার শিক্ষক। বিয়ের সময় দুই পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। সংবাদমাধ্যমে হ্যাপির বোন শারমিন আক্তার পপি বিয়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেন বলে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে খবর প্রকাশ করা হয়। কিন্তু হ্যাপি বিষয়টি অস্বীকার করে ফেসবুক পেজে লেখেন : ‘‘আমার বিয়ে হয়নি! আমার বাসার লোকদের মাধ্যমে জানতে পারলাম ‘গোপনে বিয়ে সারলেন হ্যাপি’ এই শিরোনামে নিউজ যাচ্ছে! ভেবেছিলাম বিষয়টা পাত্তা দেব না কিন্তু এত বাড়াবাড়ি হচ্ছে যে, অসহনীয় পর্যায়ে চলে যাচ্ছে!’’

 

Happy

 

তিনি আরো লেখেন : ‘এবার আসল ঘটনায় আসি! বিয়ের যে নিউজ হচ্ছে, যে তারিখ ও সময় উল্লেখ করে, সেটা আসলে বিয়ে নয়। আমাকে বিয়ের জন্য পাত্রপক্ষ দেখতে এসেছিল। পারিবারিকভাবে বিয়ের কথাবার্তা হয়েছে তবে তা পাকা কথাবার্তা নয়। আর কাবিনটাবিন অনেক পরের কথা। আল্লাহ চাইলে বিয়ে হবে, না হলে না। দৈনিক পত্রিকা ও অনলাইন নিউজ পোর্টালগুলোর কাছে একটা অনুরোধ- পুরোপুরি নিশ্চিত না হয়ে কোনো খবর প্রকাশ করবেন না। আল্লাহ যেদিন আমার বিয়ের ফায়সালা করবেন সেদিনই জানিয়ে দেব ইনশাআল্লাহ!’ তবে বিয়ের বিষয়টি এখনও প্রমানিত হয়নি। গুজবই রয়ে গেছে।

 

আমাদের দেশে বিয়ে করলে তারকাদের দর্শকপ্রিয়তা কমে যাবে বলে বিয়ের বিষয়টি গোপন রাখেন অনেকে। এমনও হয়েছে বিয়ে করেছেন অনেক আগেই কিন্তু এখন পর্যন্ত মিডিয়ার সামনে নিজেদের স্ত্রী বা স্বামীকে পরিচয় করাননি। বিয়ে করা অন্যায় নয়। বিশ্বের অনেক তারকা বিয়ের পরও অসংখ্য জনপ্রিয় সিনেমা উপহার দিয়েছেন। তাদের জনপ্রিয়তায় কোনরকম ছেদ পরেনি। পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের বলিউডের জনপ্রিয় তারকারা বিয়ের পরেও তাদের জনপ্রিয়তা ধরে রেখেছেন। এ তালিকায় রয়েছেন-শাহরুখ খান, আমির খান, অক্ষয় ক্ষান্না, হৃত্বিক রোশন, কারিনা কাপুরদের মতো অনেকেই।

Comments

comments

সম্পাদক : মোহাম্মদ আবদুল বাছির
প্রকাশক: মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম
ফোন : ‎০১৭১৩৪০৯০৯০
৩৪৫/১, দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০
X
 
নিয়মিত খবর পড়তে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন
X